আ.লীগ বিরোধীদলে থাকলে ব্যবসায়ীরা ব্যবসা করতে পারতো না: সালাম

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা টাইমস
| আপডেট : ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২৩, ২০:৫২ | প্রকাশিত : ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২৩, ২০:৩৯

বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ও ঢাকা মহানগর দক্ষিণের আহবায়ক আব্দুস সালাম বলেছেন, আজকে হাসিনার পক্ষে কিছু ব্যবসায়ী ঢুকঢুকি বাজাচ্ছেন। বিরোধীদলে আওয়ামী লীগ থাকলে আপনারা ব্যবসা করতে পারতেন না। জ্বালাও পোড়াও, ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা এবং সারাদেশে সহিংসতা করতো। কিন্তু বিএনপি দেশকে ভালবাসে, জনগণকে ভালবাসে। দেশ ও মানুষের ক্ষতি হয়, এমন কিছু বিএনপি করে না। সরকার অনেকভাবে আস্কারা দিচ্ছে কেনো আমরা জ্বালাও পোড়াও করছি না। আমরা এগুলো করলে মানুষ মারবে ওরা আর দোষ চাপাবে বিএনপির ওপর। তিনি বলেন, এরা শুধু গণতন্ত্র খায়নি, শেষ করে দিচ্ছে দেশ। এরা আর ছয় মাস ক্ষমতায় থাকলে দেশে দুর্ভিক্ষ নামবে। দেশকে আওয়ামী লীগ আবার ৭২ থেকে ৭৫ সালে নিয়ে যেতে চায়।

বৃহস্পতিবার বিকালে রাজধানীর নয়াপল্টনে একটি রেস্তরাঁয় জিয়া মঞ্চে ৩০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে এক আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। তিনি এসব কথা বলেন।

এসময় বক্তব্য রাখেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল আউয়াল মিন্টু, সহ সাংগঠনিক সম্পাদক হারুনুর রশিদ, জিয়া মঞ্চের আব্দুল হামিদ, এ্যাডভোকেট আনিসুর রহমান, আব্দুল আলীম, প্রচার দলের সভাপতি মাহফুজ কবির মুক্তা প্রমুখ।

সালাম বলেন, জিয়াউর রহমান মৃত্যুর আগে ব্যাংকে কত ব্যালেন্স রেখেছিলেন, কয়টা বাড়ী করেছিলেন। স্ত্রী ও সন্তানদের জন্য কি রেখে গিয়েছিলে। তা নতুন প্রজন্মকে জানতে হবে। জিয়াউর রহমান ক্যু করে ক্ষমতায় আসেনি। দেশ যখন অনিশ্চিত যাত্রার দিতে ধাবিত হলো, গণতন্ত্র লুন্ঠিত হলো তখন ঐতিহাসিক ৭ নভেম্বর সিপাহী-জনতা জিয়াউর রহমানের হাতে দেশের নেতৃত্ব তুলে দেয়। আওয়ামী লীগই দেশে হত্যার রাজনীতি শুরু করেছে। কথায় কথায় ৭৫ মুজিব হত্যার ঘটনায় জিয়াউর রহমান ও বিএনপিকে টানে। তখনতো বিএনপির জন্মই হয়নি। জিয়াউর রহমান তখন সিনেই ছিলেন না।

তিনি বলেন, জিয়াউর রহমান অল্পসময় ক্ষমতায় এবং রাজনীতিতে ছিলেন। শেখ মুজিবুর রহমান যত বছর জেল খেটেছেন জিয়া ততদিন রাজনীতিই করেননি। কিন্তু জিয়া তার কর্মের মাধ্যমে মানুষের হৃদয়ে স্থান করে নিয়েছেন। জিয়াউর রহমান ক্ষমতায় থাকাকালীন সময়েও বিরোধ দলের নেতা ও অভিজ্ঞলোকদের ডেকে নিয়ে পরামর্শ নিতেন। তিনি মেধাবী দেশপ্রেমিক ও রাজনীতিবিদদের খুজে নিয়েছেন। তিনি জানতেন অভিজ্ঞ ও ভালো লোক ছাড়া দেশে উন্নয়ন হয় না।

তিনি আরও বলেন, জালেম সরকার জাতিসংঘে গিয়ে বলে তারা নাকি মানবাধিকারের কথা বলে। তিনবারের নির্বাচিত প্রধানমন্ত্রী ও গণমানুষের নেত্রী তাকে বন্দী রেখেছেন, চিকিৎসা করতে বাঁধা দিচ্ছেন। ওবায়দুল কাদের কয়েকদিন আগেও সিঙ্গাপুরে চিকিৎসা করে আসলো। নতুন রাষ্ট্রপতি হয়েই বিদেশে গেলেন চিকিৎসা করতে। আগের রাষ্ট্রপতি বিদায়ের আগেও স্বপরিবার নিয়ে বিমান রিজার্ভ করে চিকিৎসা করালেন।

(ঢাকাটাইমস/২৮সেপ্টেম্বর/জেবি/)

সংবাদটি শেয়ার করুন

রাজনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

রাজনীতি এর সর্বশেষ

স্বাধীন ফিলিস্তিন রাষ্ট্রের দাবিতে রাজধানীতে ছাত্রশিবিরের বিক্ষোভ মিছিল

হাজার হাজার আজিজ-বেনজীর তৈরি করেছে আ.লীগ: মির্জা ফখরুল

আজিজ আহমেদকে কেন গ্রেপ্তার করা হচ্ছে না, প্রশ্ন মান্নার

ষড়যন্ত্রে ব্যর্থ হয়ে হতাশায় ভুগছে বিএনপি: ওবায়দুল কাদের

অধিকার সুরক্ষায় ইস্পাতকঠিন গণঐক্য গড়ে তুলতে হবে: মির্জা ফখরুল

ঘূর্ণিঝড় রেমাল উপদ্রুত এলাকায় আ. লীগের প্রতিনিধিদল

রেমালের আঘাতে ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের পাশে জামায়াতের আমির 

ছাত্রদল নেতা মুস্তাফিজুর রহমানকে ডিবি পরিচয়ে তুলে নেওয়ার অভিযোগ

দেশ পৈত্রিক ব্যবস্থায় পরিণত হয়েছে: মির্জা ফখরুল

প্রধানমন্ত্রী নিজের ছায়া দেখেও ভয় পাবেন: গয়েশ্বর

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :