ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ‘কাউয়া চত্বর’

সৈয়দ অদিত, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২৩ মার্চ ২০১৭, ০৮:৫০ | প্রকাশিত : ২৩ মার্চ ২০১৭, ০৮:০০

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের জসিম উদদীন হলে নতুন একটি চত্বর হয়েছে। চত্বরটির নাম দেয়া হয়েছে ‘কাউয়া চত্বর’। এই এলাকায় বেশ কিছু উঁচু গাছ থাকার কারণে অনেক কাক এসে এখানে জমায়েত হয়। এই কারণে জায়গাটিকে ‘কাউয়া চত্বর’ নামে ঘোষণা করেন শিক্ষার্থীরা।

চত্বর এলাকায় গিয়ে দেখা যায়, দুইটি গাছে সাইনবোর্ড ঝুলানো আছে। দুটিতেই লেখা রয়েছে ‘কাউয়া চত্বর’।

হলের শিক্ষার্থী ওবায়েদ হোসেন ঢাকাটাইমসকে বলেন, ‘এই জায়গায় সারা দিনরাত কাক ডাকে। এখানে কাকের ডাক ছাড়া আমরা অন্য কোনো পাখির ডাক শুনতে পাই না। সেজন্যই আমরা হলের শিক্ষার্থীরা একত্রিত হয়ে এই স্থানটিকে ‘কাউয়া চত্বর’ নাম দিয়েছি।’

‘কাউয়া চত্বরে’ গিয়ে দেখা যায় সেখানে কিছু বেঞ্চ পাতা হয়েছে। সাইনবোর্ডে লেখা রয়েছে, ‘এখানে শুধুমাত্র হলের ছাত্ররা বসতে পারবে। অন্যদের এখানে বসা নিষেধ।’ জসিম উদদীন হলের পপুলেশন সাইন্স বিভাগের শিক্ষার্থী অরুন্নাথ দাস ঢাকাটাইমসকে বলেন, ‘মূলত বেশি কাক ডাকাডাকির কারণে এই চত্বরের নামকরণ করা হয়েছে কাকের নামে। এখানে বসলেই শুধু কাকের ডাক শোনা যায়। এতদিন ধরে আমি এই হলে থাকি এখনো অন্য কোনো পাখির ডাক শুনিনি।’

চত্বর এলাকায় বেশ কিছুক্ষণ অবস্থান করে দেখা যায়, অনেকগুলো কাক অনবরত ডাকাডাকি করছে। কাকের ডাক ছাড়া অন্য কোনো ডাক শোনা যায়নি। চত্বর এলাকার পাশে ডিপার্টমেন্টাল স্টোরের মালিক খোকন ঢাকাটাইমসকে বলেন, ‘ছাত্ররা এখানে সারাদিন বসে আড্ডা দেয়। কাউয়ার জন্য এখানে দোকানদারিও করা যায় না। হঠাৎ করে কাউয়া আইসা রুটি খাইয়া যায়। কয়টারে আর খেদাবো বলেন?’ তিনি জানান এই চত্বরের নাম ‘কাউয়া চত্বর’ দেয়া যথার্থ হয়েছে।

(ঢাকাটাইমস/২৩মার্চ/এসও/জেবি)

সংবাদটি শেয়ার করুন

শিক্ষা বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :