পটকা মাছের জীবন

মনোনেশ দাস, ময়মনসিংহ
 | প্রকাশিত : ২৪ ডিসেম্বর ২০১৭, ০৮:০৫

এক সময় ময়মনসিংহ অঞ্চলের গভীর অগভীর পানিতে হরহামেশা দেখা মিলতো পটকা মাছ । এই মাছ পানির ভেতর থেকে ডাঙায় অর্থাৎ মাটিতে তুলে আনা হলে , পেটের ভেতর বাতাস ঢুকিয়ে ফুটবল বানিয়ে ফেলে ।

নিজের আকৃতি পরিবর্তনে সক্ষম এই মাছটির বিশেষ বৈশিষ্ট্য । মাছটি দেখতে খুবই সুন্দর । তবে, বিষাক্ত এই মাছ খেয়ে মারা গেছেন , এমন লোকের সংখ্যাও কম নয় ।

ময়মনসিংহেই নয় বাংলাদশের সকল স্থানেই দেখা মিলতো এই মাছের । বিশ্বের বিভিন্ন স্থানেও এর প্রাপ্তি কম নয় । সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, চীন, জাপান, ফিলিপিন্স, মেক্সিকোর আশেপাশের সমুদ্রেও দেখা মেলে এই অদ্ভুত মাছটির ।

মাছ গবেষক সূত্রে জানা গেছে, পটকা মাছেন দেহ অনেকটই গোলাকার, মাথা ও দেহখন্ড চওড়া হলেও শেষ ভাগ অর্থাৎ লেজ চিকন ।

মুখে ধাঁড়ালো চারটি দাঁত আছে । পটকা মাছ খেলে মানুষের মৃত্যুর আশঙ্কা আছে ।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, পটকা মাছ নিজেদের পেটের মধ্যে পানি ঢুকিয়ে দেয় । এতে বলের মত ফুলতে থাকে । আতœরক্ষা কিংবা ভয়ার্ত হলে নিজের তৈরি বলের ভেতর নিজেকে লুকিয়ে ফেলে ।পটকার এসব কা- দেখে শত্রুপক্ষ পালিয়ে যায়।

খাল-বিল , নদী-নালা, পুকুর- ডোবা ভরাট , কীটনাশক প্রয়োগ , পটকা মাছ খেলে মৃত্যুর ভয়সহ নানাবিধ কারণে চাষাবাদের অভাবে হারিয়ে যেতে বসেছে , ময়মনসিংহ তথা বাংলাদেশের ঐহিত্যবাহী পটকা মাছ।

ঢাকাটাইমস/২৪ডিসেম্বর/এমডি/ডব্লিউবি

সংবাদটি শেয়ার করুন

ফিচার বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :