ভোলা-১

তোফায়েলের আশ্বাসের পরও হামলা-গ্রেপ্তারের অভিযোগ

ভোলা প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২০ ডিসেম্বর ২০১৮, ১৮:৪০

আওয়ামী লীগের জ্যেষ্ঠ নেতা ও নৌকা প্রতীকের প্রার্থী তোফায়েলের আশ্বাসের পরও ধানের শীষের নেতাকর্মীদের ওপর হামলা ও তাদের গ্রেপ্তার করা হচ্ছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির প্রার্থী গোলাম নবী আলমগীর। তিনি বলেছেন, সুষ্ঠু পরিবেশ তৈরি না হলে দেশবাসীর বহুল প্রত্যাশিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন প্রহসনে পরিণত হবে।

আজ বৃহস্পতিবার ভোলা জেলা বিএনপির কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে ভোলা-১ আসনে বিএনপির প্রার্থী দলের নেতাকর্মীদের মারধর ও হামলা-মামলার অভিযোগ তুলে ধরেন।

গত ১৫ ডিসেম্বর আওয়ামী লীগের প্রার্থী বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদের বিএনপির প্রার্থী গোলাম নবী আলমগীরের বাসায় গিয়ে তার সঙ্গে কুশল বিনিময় করেন এবং নির্বিঘেœ নির্বাচনী প্রচারণা চালানোর আশ্বাস দেন।

সংবাদ সম্মেলনে গোলাম নবী সে কথা উল্লেখ করে রিখিত বক্তব্যে বলেন, “তিনি  (তোফায়েল) বলেছিলেন ‘বাংলাদেশের কোথায় কী হলো আমার জানার প্রয়োজন নেই। তবে ভোলায় শান্তিপূর্ণ সহ-অবস্থানে এবং আন্তরিক পরিবেশে নির্বাচনী প্রচারণা চলবে। এ ব্যাপারে আমার  (তোফায়েল) তরফ থেকে সম্পূর্ণ সহযোগিতা থাকবে।’ তার মতো একজন জাতীয় নেতার সৌহার্দপূর্ণ বক্তব্যকে আমরা বিশ্বাস করি।’

গোলাম নবী বরেন, ‘কিন্তু পরিতাপে বিষয়, তিনি চলে যাওয়ার পর থেকে কাচিয়া, ধনিয়া, শিবপুর, বাপ্তা ইউনিয়নসহ পৌরসভার বিভিন্ন ওয়ার্ডে তার দলের লোকজন আমার প্রায় ৫০ জন নেতাকর্মীকে আহত করে। অনেকের বাড়িতেও হামলা চালানো হয়। ১৭ জন নেতাকর্মীকে পুলিশ গ্রেপ্তার করে। এ ছাড়া ভোটারদের ৩০ তারিখে ভোটকেন্দ্রে না যেতে হুমকি দিচ্ছে তার দলের নেতাকর্মীরা।’

ধানের শীষের প্রার্থী বলেন, ‘আমরা চাই পুলিশ, র‌্যাব, বিজিবিসহ আইন প্রয়োগকারী সংস্থাগুলো নিরপেক্ষভাবে এসব ঘটনার তদন্ত করে নির্বাচনী পরিবেশ ফিরিয়ে আনুক। জনগণ যাতে নির্ভয়ে তাদের পছন্দের প্রার্থীকে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করতে পারে। তা না হলে দেশবাসীর বহুল প্রত্যাশিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন প্রহসনে পরিণত হবে। এই কলঙ্কের বোঝা ক্ষমতাসীন দল ও নির্বাচন কমিশনকে বহন করতে হবে।’

সংবাদ সম্মেলনে আরও উপস্থিত ছিলেন বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সদস্য হায়দার আলী লেনিন, জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি আমিনুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক হারুনুর রশিদ ট্রুম্যান, যুগ্ম সম্পাদক হুমায়ুন কবির সোপান, সাংগঠনিক সম্পাদক এনামুল হক, থানা বিএনপির আহ্বায়ক আসিফ আলতাফ, সদস্যসচিব হেলাল উদ্দিন, কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক খন্দকার আল আমিন প্রমুখ।

(ঢাকাটাইমস/২০ডিসেম্বর/মোআ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

রাজনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :