কিস্তির জন্য এনজিওকর্মীর বকাঝকা, যুবকের আত্মহত্যা

যশোর প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ০৯ মার্চ ২০১৯, ১৯:৪৫
ফাইল ছবি

যশোরের চৌগাছায় ঋণ পরিশোধে ব্যর্থ হওয়ায় এনজিওকর্মীর বকাঝকার জেরে বিকাশ অধিকারি নামে এক ভ্যানচালক কীটনাশক পানে আত্মহত্যা করেছেন বলে অভিযোগ করেছে তার পরিবার। শনিবার বেলা ১১টার দিকে কীটনাশক পানে তিনি আত্মহত্যা করেন।

নিহত বিকাশ যশোর সদর উপজেলার খাজুরা গ্রামের বাসিন্দা হলেও বিবাহ সূত্রে চৌগাছার ধুলিয়ানি ইউনিয়নের ধুলিয়ানি বাজারের পাশে থাকতেন।

নিহতের স্ত্রী পারুল অধিকারি চৌগাছা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে সাংবাদিকদের বলেন, ‘আমাদের গ্রামীণ ব্যাংক, আরআরএফ, আশাসহ কয়েকটি এনজিও থেকে ঋণ নেয়া ছিল। শনিবার সকালে একটি এনজিওর কর্মীরা বাড়িতে এসে কিস্তি দিতে না পারায় খুব বকাঝকা করেন। কোন এনজিওর কর্মী তারা আমি ভালো করে চিনতে পারিনি। এনজিও কর্মীরা চলে গেলেই আমার স্বামী বিষপান করেন। পরে স্থানীয়দের সহায়তায় চৌগাছা হাসপাতালে আনলে ডাক্তাররা তাকে মৃত ঘোষণা করেন।’

চৌগাছা হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার আওরঙ্গজেব বলেন, হাসপাতালে নিয়ে আসার আগেই ওই ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে।

স্থানীয় ইউপি সদস্য গোলাম মোস্তফা জানান, গ্রামীণ ব্যাংক বা অন্য একটি এনজিওর সদস্যরা তার বাড়িতে কিস্তি আদায়ে যান। বিকাশ কিস্তির টাকা দিতে না পারায় তাকে বকাঝকা করলে তিনি কীটনাশক পানে আত্মহত্যা করেন।

তবে গ্রামীণ ব্যাংক ধুলিয়ানি শাখার ব্যবস্থাপক হারুন অর রশীদ বলেন, ‘আজ তো আমাদের ছুটি। আমাদের কোনো কর্মী তার কাছে কিস্তি আনতে যাননি।’ তিনি আরও বলেন, বিকাশ আমাদের কাছ থেকে ঋণ নিয়েছেন। তবে তিনি নিয়মিত কিস্তি দেন। তার কোনো কিস্তি বাকি নেই। অন্য কোনো কারণে তিনি আত্মহত্যা করে থাকতে পারেন।

(ঢাকাটাইমস/০৯মার্চ/জেবি)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :