উচ্ছ্বল আনন্দে মেতেছে শিশুরা

তানিয়া আক্তার, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১১:৫৭

এ বছরের বইমেলার তৃতীয় শিশুপ্রহরে হৈ হুল্লোড় আর উচ্ছল আনন্দে ভাসছে শিশুরা।  মেলায় ঢুকলেই চোখে পড়ছে তাদের বাঁধভাঙা উচ্ছ্বাস। উচ্ছ্বল আনন্দে ভরপুর শিশুরা মাতিয়ে রাখছে মেলা প্রাঙ্গণ। শুধুই শিশুদের কলকাকলিতে মুখর বইমেলা।

তবে শুধু আনন্দ করাই নয়, বইও কিনছে এই খুদেরা। তাদের পছন্দের শীর্ষে রয়েছে রূপকথার গল্প, ছড়া এবং কার্টুনের বই।

ঝিঙেফুল স্টলের সামনে মায়ের সঙ্গে দাঁড়িয়ে সুমাইয়া বিনতে রিমি নামে এক শিশু। আনন্দে উচ্ছ্বল তার চোখ দুটো কোন বই বাছাই করবে কিছুই বুঝে উঠতে পারছে না। শেষ পর্যন্ত মায়ের পরামর্শ নিয়ে পছন্দের বইটি কিনেছে।

সুমাইয়া বিনতে রিমি ঢাকা টাইমসকে বলে,  ‘এত আনন্দ হচ্ছে। এত সুন্দর সুন্দর বই এখানে। কোনটা রেখে কোনটা কিনব কিছুই বুঝতে পারছি না। মা কিনে দিয়েছে রূপকথার বইটা। বাসায় গিয়েই পড়ব।’

বাবার আঙ্গুল ধরে দাঁড়িয়ে আছে আলিফ। এত শিশু দেখে হতবাক সে। বাবার কাঁধে মেয়ে। পছন্দের বই দেখে নামতে চাইল। খুঁটিয়ে-খুঁটিয়ে বড় বড় চোখ নিয়ে কয়েকটা বই দেখছে। বাবা রাকেশ হাসান পরিচয় করিয়ে দিচ্ছেন বিভিন্ন বইয়ের সঙ্গে।

রাকেশ হাসান ঢাকা টাইমসকে বলেন,  ‘পছন্দের চরিত্র দেখেই বই কিনতে চায়। তাই তাকে মেলা ঘুরে পছন্দের সবগুলো চরিত্রের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দিচ্ছি।’

প্রিয় সিসিমপুরের চরিত্রগুলোর সঙ্গে আজ বাস্তবে দেখা মিলবে তিনবার! প্রথম পর্বে সাড়ে ১১টায়, দ্বিতীয় পর্বে সাড়ে তিনটায় ও তৃতীয় পর্বে সাড়ে ছয়টায়। প্রতি শুক্র ও শনিবার বেলা ১১টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত চলে শিশুপ্রহর।

(ঢাকাটাইমস /১৪ ফেব্রুয়ারি /টিএটি)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বইমেলা বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :