চণ্ডীগড়ে অক্ষয়ের কুশপুত্তলিকা দাহ, কিন্তু কেন?

বিনোদন ডেস্ক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৯ জুন ২০২১, ১১:৩৭

করোনা আবহের মধ্যেই নতুন ছবির কাজ করছেন বলিউড খিলাড়ি অক্ষয় কুমার। নাম ‘পৃথ্বীরাজ’। কিছুদিন আগে এই নামটিতে আপত্তি জানায় রাজস্থানের রাজনৈতিক দল করণী সেনারা। তারা দাবি করেন, মারাঠা সম্রাট পৃথ্বীরাজ চৌহানের পুরো নাম ব্যবহার করা হোক ছবির নামে।

এবার একই দাবি তুলল চণ্ডীগড়ের অখিল ভারতীয় ক্ষত্রিয় মহাসভা। তারা এক ধাপ এগিয়ে ছবির প্রধান চরিত্র অক্ষয় কুমারের কুশপুত্তলিকা দাহ করেছে শুক্রবার। এছাড়া ছবির প্রযোজক আদিত্য চোপড়ারও কুশপুত্তলিকা দাহ করা হয়। পাশাপাশি তারা দাবি করে, ছবির নাম `হিন্দু সম্রাট পৃথ্বীরাজ চোহান‘ রাখা হোক। এই দাবি পূরণের জন্য তারা বিক্ষোভও করে।

পৌরাণিক বা ইতিহাস-নির্ভর ছবি নিয়ে ভারতের কোনো রাজনৈতিক দলের এ জাতীয় আচরণ নতুন নয়। এর আগে করণী সেনারা শাহিদ কাপুর, দীপিকা পাড়ুকোন ও রণবীর সিং অভিনীত `পদ্মাবত‘-এর সময়ে ছবির সেটে গিয়ে ভাঙচুর করেছিল। ছবির পরিচালক সঞ্জয় লীলা বানসালিকে শারীরিক নিগ্রহও করেছিল।

এরপর হৃত্বিক রোশন অভিনীত ‘জোধা আকবর’ ছবির সময়েও রাজনৈতিক দলগুলো বিক্ষোভ দেখিয়েছিল। তবে রাজনৈতিক দলগুলোর এ ধরনের আচরণের বিরুদ্ধে এ পর্যন্ত বলিউড থেকে জোরালো প্রতিবাদ উঠে আসেনি। অক্ষয়ের ‘পৃথ্বীরাজ’-এর শুটিং এখনো কিছুটা বাকি। তাই এখন এটাই দেখার, নির্মাতারা রাজনৈতিক চাপে ছবিটির নাম বদল করেন কি না।

ঢাকাটাইমস/১৯জুন/এএইচ

সংবাদটি শেয়ার করুন

বিনোদন বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :