বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি না করায় তরুণীর আত্মহত্যা!

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২৮ জুলাই ২০২১, ২২:৫৩ | প্রকাশিত : ২৮ জুলাই ২০২১, ২২:৫১
প্রতীকী ছবি

রাজধানীর সেগুনবাগিচা এলাকায় বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি না করায় ফারজানা বিন নূর নামে এক তরুণী গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন। বুধবার বিকাল পৌনে পাঁচটার দিকে এই ঘটনা ঘটে।

মৃত ফারজানার মা হোসনে আরা ঢাকা টাইমসকে বলেন, বিকালে আমার মেয়ে বাথরুমে গলায় ফাঁস দেয়। পরে দরজা ভেঙে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের জরুরি বিভাগে নিয়ে এলে সোয়া ছয়টায় চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

হোসনে আরা বলেন, আমার মেয়ে অনেক ভালো ছাত্রী ছিল। এই বছর সে এইচএসসি পাস করেছে। আমরা তাকে সিটি কলেজে ভর্তি করেছিলাম। কিন্তু সে ওখানে পড়বে না। আমরা জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াতে চাইলাম, কিন্তু পড়বে না। সে তার বড় বোনের মতো বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়তে চায়। তাকে বললাম তোমার বাবা তো এখন চাকরি করেন না, এত টাকা দিতে পারব না। এটা নিয়ে অভিমান করে বিকালে গোসল করতে গিয়ে বাথরুমের ঝর্ণার সঙ্গে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে।

ফারজানার বাবা আইয়ুব আলী ঢাকা টাইমসকে বলেন, আমি বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসে চাকরি করতাম। এখন অবসরে আছি। আমার দুই মেয়ে এক ছেলে। বড় মেয়ে একটি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ে। আমার মেয়ে ফারজানা এইচএসসি পাস করেছে। সে এখন বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়তে চায়। কিন্তু আমার এখন তাকে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ানোর মতো টাকা নাই। তাই সে অভিমানে আত্মহত্যা করেছে।

ফারজানা তার পরিবারের সঙ্গে সেগুনবাগিচার নগর ছায়ানীড় ৬/৫ নম্বর বাসায় থাকতেন। তাদের বাড়ি ঝালকাঠির কাঁঠালিয়া এলাকায়।

এ ব্যাপারে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ (পরিদর্শক) বাচ্চু মিয়া ঢাকা টাইমসকে বলেন, সেগুনবাগিচা থেকে অচেতন অবস্থায় এক কিশোরীকে জরুরি বিভাগে নিয়ে এলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। পরিবারের সাথে কথা বলে জানা যায়, বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি না করায় তিনি গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন। মরদেহ হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে। সংশ্লিষ্ট থানাকে জানানোও হয়েছে।

(ঢাকাটাইমস/২৮জুলাই/এএ/জেবি)

সংবাদটি শেয়ার করুন

রাজধানী বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :