১০ ডিসেম্বর নয়াপল্টনেই মহাসমাবেশ হবে: রিজভী

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২৮ নভেম্বর ২০২২, ১৪:৫২ | প্রকাশিত : ২৮ নভেম্বর ২০২২, ১৪:৪৩

১০ ডিসেম্বর নয়াপল্টনেই বিএনপির মহাসমাবেশ হবে বলে জানিয়েছেন দলটির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী।

সোমবার দুপুরে নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে এসব কথা বলেন তিনি।

সমাবেশ সফলের লক্ষ্যে বিএনপির প্রচার উপকমিটির উদ্যোগে এই মতবিনিময় সভা ডাকা হয়।

রুহুল কবির রিজভী বলেন, ‘দেশের গণমাধ্যম নানাভাবেই চাপে পড়ে। আমাদের সমাবেশ নিয়ে গণমাধ্যমে বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশন হবে বলেই আমাদের প্রত্যাশা। সরকার বিএনপির সমাবেশের অনুমতি নিয়ে টালবাহানা করছে। কখনো অনুমতি দেয় কখনো দেয় না। অনেক সময় অনুমতি দিলেও শারীরিক আক্রমণ করছে। ২২ আগস্ট থেকে এ পর্যন্ত ৮ জন নেতা মারা গেছেন। সর্বশেষ আমাদের সাবেক এমপি মারা গেছেন।’

‘শেখ হাসিনার আক্রমণ থেকে জনপ্রতিনিধি থেকে শুরু করে কেউ বাদ যায়নি’ বলেও মন্তব্য করেন রিজভী।

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব বলেন, ‘আমাদের কর্মসূচি অব্যাহত থাকবে। বাধা বিপত্তি দিলেও কর্মসূচি থাকবে। আপনারা জানেন আমাদের সমাবেশ ঘিরে নানা ধরনের প্রতিবন্ধকতা তৈরি করে। পরিবহন ধর্মঘট ডাকে। যে-ই বিএনপির সমাবেশ শেষ তাদের ধর্মঘটও শেষ।’

রিজভী আরো বলেন, ‘ঢাকার সমাবেশ নিয়ে এখনো আমাদেরকে আনুষ্ঠানিকভাবে কিছু জানায়নি। গণমাধ্যমে জানতে পারছি সরকার অন্য জায়গায় অনুমতি দিতে চায়। আমাদের সিদ্ধান্ত হচ্ছে নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনেই সমাবেশ হবে। এখানে অতীতেও আমরা অনেকগুলো বড় সমাবেশ করেছি। সুতরাং এখানে সমাবেশের বিষয়ে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ও প্রশাসন জানে কীভাবে নয়াপল্টনে সমাবেশ হয়। কেননা সভা হচ্ছে আমাদের, সুন্দর ও সুশৃঙ্খল করার দায়িত্ব তো আমাদেরই।’

মতবনিমিয় সভায় বিএনপি জাতীয় নির্বাহী কমিটির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট আব্দুস সালাম আজাদ বলেন, ‘আমাদের দাবি দাওয়া মেনে নিলে তো সমাবেশ করা লাগবে না। তারা আমাদের দাবিসমূহ মানলেই হলো।’

তিনি বলেন, ‘আমরা শান্তিপূর্ণ সমাবেশ করতে চাই। তবে যেখানেই বাধা আসবে সেখানে প্রতিরোধ গড়ে তোলা হবে।’

আব্দুস সালাম আজাদ আরও বলেন, ‘আজকে পঞ্চাশ বছর পরও শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের মতো আমাদের নেতা তারেক রহমানের নেতৃত্বে দেশবাসী ঐক্যবদ্ধ। জিয়া পরিবারের জন্মই হয়েছে দেশের মানুষের জন্য। আজকে শুধু তারেক রহমানের হাতে ক্ষমতা নেই। দেশের সব মানুষের হাতে ক্ষমতা।’

নয়াপল্টনেই সমাবেশ করার কথা পুনর্ব্যক্ত করে তিনি বলেন, ‘আমরা দুপুর ১২টা থেকে বিকেল ৫টার মধ্যে সমাবেশ শেষ করব। কারণ সবদিক বিবেচনায় নয়াপল্টন অপেক্ষাকৃত নিরাপদ। সরকার বাধা দিলে বুঝতে হবে তাদের দুরভিসন্ধি রয়েছে।’

‘আজকে দেশের বর্তমান পরিস্থিতি থেকে উত্তরণের জন্য সরকারের পতনের কোনো বিকল্প নেই’ বলে উল্লেখ করেন এই বিএনপি নেতা।

মীর সরাফত আলী সপু বলেন, ‘আমরা ১০ ডিসেম্বর ঢাকা বিভাগীয় সমাবেশ শান্তিপূর্ণভাবে করতে চাই। এজন্য আমাদের সার্বিক প্রস্তুতি চলছে। আশা করি সরকারের শুভবুদ্ধির উদয় হবে এবং তারা নয়াপল্টনে বিএনপিকে সমাবেশের অনুমতি দেবে। কোনো টালবাহানা করলে জনগণ প্রতিহত করবে ইনশাআল্লাহ। তিনি আইনশৃঙ্খলা বাহিনীসহ প্রশাসনকে নিরপেক্ষ ভূমিকা পালনের আহ্বান জানান।

সভায় আরও বক্তব্য রাখেন বিএনপির ঢাকা বিভাগীয় গণসমাবেশ সফল করার লক্ষ্যে গঠিত কমিটির সমন্বয়ক অ্যাডভোকেট আবদুস সালাম আজাদ, প্রচার উপকমিটির আহ্বায়ক মীর সরাফত আলী সপু, সদস্য সচিব প্রকৌশলী আশরাফ উদ্দিন বকুল। এসময় উপস্থিত ছিলেন প্রচার উপকমিটির নেতা আ ক ম মোজাম্মেল হক, ওমর ফারুক সাফিন, আকরামুল হাসান, ফেরদৌস আহমেদ খোকন, তাঁতীদলের আবুল কালাম আজাদ, মজিবুর রহমান প্রমুখ।

(ঢাকাটাইমস/২৮নভেম্বর/এফএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

রাজনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

রাজনীতি এর সর্বশেষ

আইইবি নির্বাচনে বঙ্গবন্ধু প্রকৌশলী পরিষদের পরিচিত সভা অনুষ্ঠিত

রাষ্ট্রপতি পদে দলীয় প্রার্থী কে সিদ্ধান্ত দেবেন শেখ হাসিনা

ঢাবির আবাসিক হলে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষ, সভাপতির কক্ষে ভাঙচুর

জামিনে মুক্তি পেলেন ছাত্রদল নেতা হিমেল আল ইমরান

রাষ্ট্রপতির মনোনয়ন নিয়ে সংসদীয় কমিটিতে আলোচনা হয়নি: ওবায়দুল কাদের

পাল্টা কর্মসূচি দিয়ে আ.লীগের সংঘাতময় পরিস্থিতি তৈরি করতে চায়: সমমনা জোট

পদযাত্রা কর্মসূচির অনুমতি চেয়ে ডিএমপি কমিশনারকে বিএনপির চিঠি

জামিনে মুক্তি পেলেন ঢাকা জেলা বিএনপির সভাপতি আবু আশফাক

আন্দোলনের কেন্দ্রবিন্দু হবে ঢাকা: ইশরাক

সরকারের সমালোচনা কখনোই রাষ্ট্রদ্রোহিতা হতে পারে না: জি এম কাদের

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :