কোদালিছড়ায় অপরিকল্পিত বাঁধ, সহস্রাধিক একর জমি অনাবাদি

নিজস্ব প্রতিবেদক, মৌলভীবাজার
 | প্রকাশিত : ২২ জানুয়ারি ২০২৩, ১৫:১০

মৌলভীবাজারের লামা জগন্নাথপুর এলাকায় কোদালিছড়ায় বাঁধ দিয়ে পানি আটকে রাখার ফলে সহস্রাধিক একর জমিতে বোরো ধান লাগানো অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে। বাঁধ অপসারণ করে পানির ব্যবস্থা করার জন্য জায়গায় জায়গায় ধর্ণা দিয়েও সমাধান পাচ্ছেন না ১০ গ্রামের কৃষকেরা। এ নিয়ে কৃষকদের মাঝে চরম ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে।

রবিবার সকালে কয়েক শতাধিক কৃষক ট্রাকযোগে এসে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে তাদের ক্ষোভের কথা জানান।

স্থানীয় কৃষকদের অভিযোগ চলতি মৌসুমের শুরুতে একটি প্রভাবশালী মহল শহরতলীর লামা জগন্নাথপুর ও আজমেরু এলাকায় কোদালিছড়া নদীতে বাঁধ দিয়ে পানি আটকে রেখেছে। এতে ওই এলাকার অন্তত ১০ গ্রামের মানুষ বোরো ধান আবাদের জন্য পানি পাচ্ছে না।

গিয়াস নগর ইউনিয়নের ২ নম্বর ওয়ার্ডের মেম্বার শোয়েব আহমেদ ঢাকা টাইমসকে জানান, কোদালিছড়ার নদীর পানি দিয়ে গিয়াস নগর ইউনিয়নের ২ নম্বর ওয়ার্ডের কৃষকরা বোরো ধান চাষ করে। চলতি বোরো মৌসুমের শুরুতে একটি মহল আজমেরু এলাকায় অপরিকল্পিত বাঁধ দিয়ে পানি আটকে রাখা হয়েছে। এতে ইউনিয়নের ২ নম্বর ওয়ার্ডের সহস্রাধিক একর জমি অনাবাদি পড়ে আছে।

গিয়াস নগর ইউনিয়নের শ্রীমঙ্গল গ্রামের পেশাদার কৃষক আফজাল মিয়া জানান, তিনি ৩০-৪০ একর জমিতে বোরো ধান লাগিয়ে থাকেন। প্রতিবছর ৫ থেকে ১৫ ডিসেম্বরের মধ্যে আমাদের বীজতলা হয়ে যায়। এমন সময়ে রোপণ প্রায় শেষ পর্যায়ে থাকে। কিন্তু এবার অপরিকল্পিত বাঁধ দিয়ে পানি আটকে দেওয়ায় সহস্রাধিক একর জমি পতিত পড়ে আছে।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে মৌলভীবাজার সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শরিফ উদ্দিন আহমেদ ঢাকা টাইমসকে বলেন, আমি উভয় পক্ষের বক্তব্য শুনেছি। পানি সঙ্গে কলের প্রয়োজন। কিন্তু এভাবে বাঁধ দিয়ে পানি আটকে দেওয়ায় সুযোগ নেই। তাই উভয় পক্ষকে সমঝোতা করে পানি নেওয়ার জন্য বলেছি।

(ঢাকাটাইমস/২২জানুয়ারি/এসএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

বাংলাদেশ এর সর্বশেষ

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :