আওয়ামী লীগ প্রতারক, জনগণ ভোট দেবে না: ১২ দলীয় জোট

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা টাইমস
| আপডেট : ০৭ ডিসেম্বর ২০২৩, ১৩:২৫ | প্রকাশিত : ০৭ ডিসেম্বর ২০২৩, ১২:৫৭

‘আওয়ামী লীগের একতরফা নির্বাচনমুখী অবস্থান দেখে মনে হয় আগামী নির্বাচনে (ভোটের দিন) ভোট কেন্দ্রগুলো আওয়ামী লীগের অস্থায়ী কার্যালয়ে পরিণত হবে’ এমন মন্তব্য করে ১২ দলীয় জোটের শীর্ষ নেতারা বলেছেন, আওয়ামী লীগ প্রতারক, নৌকা গুম-খুনের প্রতীক সুতরাং জনগণ তাদের ভোট দেবে না।’

বুধবার দুপুরে রাজনৈতিক বন্দিদের মুক্তি, শেখ হাসিনার পদত্যাগ ও তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে জাতীয় নির্বাচনের দাবিতে অবরোধের সমর্থনে ১২ দলীয় জোটের বিক্ষোভ মিছিল শেষে সংক্ষিপ্ত সমাবেশে তারা এসব কথা বলেন।

মিছিলটি জাতীয় প্রেসক্লাব থেকে বের করে বিজয়নগর ঘুরে পল্টন মোড় এসে শেষ হয়। সেখানে সংক্ষিপ্ত বক্তব্য দেন জোট নেতারা।

জাতীয় গণতান্ত্রিক পার্টি-জাগপার সহসভাপতি ও ১২ দলীয় জোটের প্রধান সমন্বয়ক রাশেদ প্রধান বলেন, ‘এদের নাম আওয়ামী লীগ। যারা মজলুম মানুষের রক্তাক্ত লাশের ওপর দিয়ে আবারও পাতানো নির্বাচন খেলা খেলতে চায়, তাদের প্রতিহত করতে হবে। আওয়ামী লীগ এখন দেশের শক্র, জনগণের শত্রু। তারা দেশের পচনশীল রাজনৈতিক দল এবং নৌকা গুম-খুনের প্রতীকে পরিণত হয়েছে। এবার জনগণ তাদের প্রতিহত করতে রাস্তায় নেমেছে।’

জমিয়তে উলামায়ে ইসলামের মহাসচিব মাওলানা মুফতি মহিউদ্দিন ইকরাম বলেন, ‘দেশের অর্থনীতির ওপর আওয়ামী লীগের আগ্রাসন বর্তমানে দেশকে গভীর বিপদে ফেলেছে। গণঅভ্যুত্থানের মাধ্যমে ফ্যাসিবাদ শেখ হাসিনার পতন ঘটিয়ে জনগণের বিজয় অর্জিত হবে।’

বাংলাদেশ লেবার পার্টির চেয়ারম্যান লায়ন মো. ফারুক রহমান বলেন, ‘বাংলাদেশের ৬৪টি রাজনৈতিক দল এবং ৯০ ভাগ মানুষ নির্বাচন বয়কট করেছে। তাই এই নির্বাচন দেশ-বিদেশে গ্রহণযোগ্য হবে না। গণবিরোধী এই নির্বাচন করলে বা হতে দিলে বাংলাদেশের রাজনীতি ও অর্থনীতির সংকট ঘনীভূত হবে।’

বিক্ষোভ মিছিল বক্তব্য রাখেন জাতীয় গণতান্ত্রিক পার্টি-জাগপার সহ-সভাপতি ও ১২ দলীয় জোটের প্রধান সমন্বয়ক রাশেদ প্রধান, জমিয়তে উলামায়ে ইসলামী বাংলাদেশের মহাসচিব মাওলানা মুফতি মহিউদ্দিন ইকরাম, বাংলাদেশ লেবার পার্টির চেয়ারম্যান লায়ন মো. ফারুক রহমান, জাতীয় পার্টির (কাজী জাফর) ভাইস চেয়ারম্যান হান্নান আহমেদ বাবলু, বাংলাদেশ এলডিপির এম এ বাশার, বাংলাদেশ জাতীয় দলের ভাইস চেয়ারম্যান শামসুল আহাদ।

সংক্ষিপ্ত সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন জমিয়তের মাওলানা আব্দুল মালিক চৌধুরী, আতাউর রহমান খান, এম কাশেম ইসলামাবাদী, বাংলাদেশ জাতীয় দলের বেলায়েত হোসেন শামীম, বাংলাদেশ লেবার পার্টির হুমায়ুন কবির, শরীফুল ইসলাম, এলডিপি যুবদলের ফয়সাল আহমেদ, যুব জাগপার নজরুল ইসলাম বাবলু, মনোয়ার হোসেন, জনি নন্দী, ছাত্র সমাজের কাজী ফয়েজ আহমেদ, মেহেদী হাসান, ফাহিম হোসাইন, ছাত্র জমিয়ত বাংলাদেশের নিজাম উদ্দিন আল আদনান, হাফেজ খালেদ মাহমুদ প্রমুখ।

(ঢাকাটাইমস/০৭ডিসেম্বর/জেবি/এফএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

রাজনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

রাজনীতি এর সর্বশেষ

কল্যাণ পার্টির অতিরিক্ত মহাসচিবের পদত্যাগ

বিশ্বজয়ী হাফেজ বশিরকে সংবর্ধনা দিলো ছাত্রলীগ

আ.লীগ আরও বেশি বেপরোয়া হয়ে উঠেছে: মির্জা ফখরুল

কারামুক্ত বিএনপি নেতা সালাউদ্দিনের বাসভবনে ড. মঈন খান

নির্বাচনে না আসার ভুলের খেসারত বিএনপিকে দিতে হবে: ওবায়দুল কাদের 

কারামুক্ত বিএনপি নেতা আলতাফ চৌধুরী

ভেদাভেদ ভুলে সব রাজনৈতিক দলকে ঐক্যবদ্ধভাবে রাজপথে নামতে হবে: মান্না

পিলখানার হত্যাকাণ্ডের মাধ্যমে সার্বভৌমত্বকে ধ্বংসের ষড়যন্ত্র করা হয়েছিল: ডা. তাহের

পিলখানায় দেশের সার্বভৌমত্ব মাটি চাপা দেওয়া হয়েছে: ডা. ইরান

প্রতিবেশী রাষ্ট্র বন্ধু সেজে উঁইপোকার মতো বাংলাদেশের সব কিছু খেয়ে যাচ্ছে: রাশেদ প্রধান 

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :