জয়পুরহাটে মাদক কারবারির আহত হওয়ার নাটক!

জয়পুরহাট প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৯ মে ২০১৯, ২৩:১৫

জয়পুরহাটের আক্কেলপুর উপজেলার কবিরাজপাড়া এলাকার একাধিক মাদক মামলার আসামি পরিতোষ চন্দ্র আবারো একই অভিযোগ থেকে বাঁচতে সাজিয়েছেন আহত হওয়ার নাটক। বিষয়টি নিয়ে ব্যাপক চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে।

সরেজমিনে জানা গেছে, উপজেলার কবিরাজপাড়া গ্রামের পরিতোষ চন্দ্র দীর্ঘদিন ধরে চোলাই মদ, ইয়াবা, হিরোইন, ফেন্সিডিলসহ নানা ধরনের মাদক বিক্রি করে আসছিলেন। এ ধরনের অভিযোগসহ জয়পুরহাট ও আক্কেলপুর থানায় পরিতোষের বিরুদ্ধে চারটি মাদক মামলা রয়েছে। এছাড়া মাদক মামলায় তিনি একাধিকবার গ্রেপ্তার হলেও জামিনে মুক্ত হয়ে আবারো জড়িয়ে পড়েন মাদক ব্যবসায়।

এরই এক পর্যায়ে শনিবার মাদক বেচাকেনা, বাড়িতে যুবকদের ডেকে এনে মাদকের আসর বসানোসহ অসামাজিক কার্যকলাপ চলছে বলে স্থানীয়রা ইউনিয়ন পরিষদে অভিযোগ করেন। অভিযোগের সূত্র ধরে স্থানীয় রুকিন্দীপুর ইউপির প্যানেল চেয়ারম্যান শহিদুল ইসলাম, স্থানীয় ইউপি সদস্য আনোয়ার হোসেন বাবুসহ গণ্যমান্য ব্যক্তিরা পরিতোষের বাড়িতে গিয়ে তাকে মাদক ব্যবসা না করার জন্য নিষেধ করেন।

একই গ্রামের সামছুল ইসলাম, রফিকুল ইসলাম, আব্দুল খালেকসহ গ্রামবাসী ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে আরো বলেন, ‘এলাকার অভিভাবকসহ গ্রামবাসী পরিতাষের ভয়ে সব সময় ভীত থাকেন। মাদক কারবার বন্ধ করার জন্য অনুরোধ করতে গেলে পরিতোষ নিজেকে দাবি করে মাদক ব্যবসায় বাধা দানকারীদের নানাভাবে ভয় প্রদর্শন করতেন। এ অবস্থায় গ্রামবাসীরা এর প্রতিকারে স্থানীয় রুকিন্দ্রীপুর ইউনিয়ন পরিষদে অভিযোগ দেন।

প্যানেল চেয়ারম্যান শহিদুল ইসলাম ও স্থানীয় ইউপি সদস্য আনোয়ার হোসেন বাবু জানান, মাদক কারবারি পরিতোষের বাড়িতে গিয়ে তাকে পাওয়া না গেলে তার স্ত্রীকে মাদক ব্যবসা না করার জন্য নিষেধ করা হয়। ‘পরে পরিতোষ দলবলসহ পাশের জামালগঞ্জ বাজারের গৌহাটি এলাকায় এসে অশ্লীল ভাষায় গালাগালের এক পর্যায়ে আমাদের লাঠি দিয়ে পেটাতে উদ্ধ্যত হলে স্থানীয়রা এগিয়ে আসেন। বাধা পেয়ে ফিরে গিয়ে জয়পুরহাট জেলা আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি হয়ে তাকে আহত করা হয়েছে বলে প্রচার করতে থাকেন।’

আক্কেলপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কিরন কুমার রায় জানান, ‘চারটি মাদক মামলার আসামি পরিতোষ চন্দ্র আহত হয়েছেন বলে থানায় অভিযোগ করে করেছেন। বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।’

(ঢাকাটাইমস/১৯মে/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :