বিদেশে পাঠানোর প্রলোভনে ঢাকায় এনে ধর্ষণ

মাগুরা প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২০:১৮ | প্রকাশিত : ২৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১৭:২১
ফাইল ছবি

বিদেশে পাঠানোর নামে রাজধানীর দারুস সালাম এলাকার একটি বাসায় আটকে রেখে মাগুরার এক গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। কৌশলে পালিয়ে গিয়ে এ ঘটনায় মাগুরা সদর থানায় মামলা করেছেন ভুক্তভোগী নারী।

শুক্রবার এ মামলার পরিপ্রেক্ষিতে সদর উপজেলার আমুড়িয়া গ্রাম থেকে এ ঘটনার প্রধান অভিযুক্ত নজরুল ইসলামকে (৫০) গ্রেপ্তার করেছে মাগুরা সদর থানা পুলিশ।

থানায় দায়েরকৃত ভুক্তভোগী গৃহবধূর অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, সংসারে অভাব অনটন থাকায় বিভিন্ন জায়গায় কাজ খুঁজছিলেন তিনি। এরই এক পর্যায়ে নজরুল ইসলামের সঙ্গে পরিচয় হলে তিনি সৌদি আরবে লোক পাঠান বলে জানান। পরবর্তী সময়ে পাসপোর্ট এবং ভিসা বাবদ তার কাছ থেকে ৩৫ হাজার টাকা নেন নজরুল।

গত ১৩ আগস্ট নজরুল পাসপোর্টে ভিসা লাগানো এবং প্রশিক্ষণের কথা বলে মাগুরা সদরের লস্করপুর নানা বাড়ি থেকে তাকে ঢাকার দারুসসালাম থানার পাশে মোকাররমের বাসায় নিয়ে যান। সেখানে নিয়ে জোরপূর্বক আটকে রেখে নজরুল, মোকাররম, আরজু শেখসহ আরও অজ্ঞাতনামা দুজন তাকে প্রতিনিয়ত ধর্ষণ করতে থাকে। এরই এক পর্যায়ে গত ১২ সেপ্টেম্বর ভোরে ওই বাসা থেকে ভুক্তভোগী গৃহবধূ কৌশলে পালিয়ে গাবতলী হয়ে মাগুরায় ফিরে আসেন। পরে থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলা করেন।

এ ব্যাপারে মাগুরা সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সিরাজুল ইসলাম জানান, বাদীর মামলার পরিপ্রেক্ষিতে নজরুল ইসলামকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। পলাতক আসামিদের গ্রেপ্তারে অভিযান চলছে।

(ঢাকাটাইমস/২৭সেপ্টেম্বর/জেবি)

 

 

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :