রবির পুঁজিবাজারে আসার আনুষ্ঠানিক ঘোষণা

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ২২:৩১

দীর্ঘ প্রতীক্ষার পর অবশেষে দেশের পুঁজিবাজারে আসছে বেসরকারি মোবাইল ফোন সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান রবি আজিয়াটা। মালয়েশিয়াভিত্তিক এই কোম্পানির মূল পরিচালনা পর্ষদ এ ব্যাপারে কাজ শুরুর অনুমতি দিয়েছে।

আজ শুনিবার ঢাকার গুলশানে রবি কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে কোম্পানির ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মাহতাব উদ্দিন আহমেদ এ কথা জানান।

আজিয়াটা গতকাল শুক্রবার রবিকে পুঁজিবাজারে নেওয়ার ঘোষণার তথ্য জানায় বলে এরই মধ্যে সংবাদমাধ্যমে জানা গেছে।

মাহতাব জানান, তারা ইতিমধ্যে পুঁজিবাজার নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) সঙ্গে বৈঠক করেছেন।

সংবাদ সম্মেলনে মাহতাব উদ্দিন আহমেদ জানান, পুঁজিবাজারে আসার জন্য রবি সরকারের কাছে তাদের দুটি শর্ত পূরণের দাবি করছে। একটি শর্ত হলো ন্যূনতম করহার ২ শতাংশ থেকে কমিয়ে দশমিক ৭৫ শতাংশ করা। অন্যটি হলো, করপোরেট কর হার ৪৫ শতাংশ থেকে ১০ শতাংশ কমিয়ে ৩৫ শতাংশ করা।

সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে জানানো হয়, এখন পর্যন্ত রবির পরিশোধিত মূলধন ৪ হাজার ৭১৪ কোটি টাকা। প্রাথমিক গণপ্রস্তাব (আইপিও) আসার পর তা বেড়ে ৫ হাজার ২৩৭ কোটি টাকা হতে পারে। তবে কী পরিমাণ টাকা আইপিওর মাধ্যমে সংগ্রহ করা হবে, আপাতত তা উল্লেখ করা হয়নি।

তবে সংবাদমাধ্যমের তথ্যমতে, অভিহিত মূল্যে (১০ টাকা) ৫২ কোটি ৩৮ লাখ নতুন শেয়ার ইস্যুর মাধ্যমে ৫২৩ কোটি ৮০ লাখ টাকা সংগ্রহ করবে রবি। নতুন শেয়ারের মধ্যে ৩৮৭ কোটি ৭০ লাখ টাকার শেয়ার আইপিওতে ইস্যু করা করা হবে বিনিয়োগকারিদের জন্য। বাকি ১৩৬ কোটি ১০ লাখ টাকার শেয়ার ইস্যু করা হবে কোম্পানির কর্মচারী ও পরিচালকদের জন্য।

রবি ইতোমধ্যে তাদের আইপিরও জন্য আইডিএলসি ইনভেস্টমেন্ট লিমিটেডকে তাদের ইস্যু ম্যানেজারের দায়িত্ব দিয়েছে।

অজিয়াটার তথ্যমতে, এখন দেশে রবির সেবাগ্রহীতার সংখ্যা ৪ কোটি ৭৩ লাখ, যা দেশের মোট গ্রাহকসংখ্যার প্রায় ৩০ শতাংশ। মালয়েশিয়ার কোম্পানি আজিয়াটা রবির ৬৮ দশমিক ৭ শতাংশ শেয়ারের মালিক।

এর আগে ২০১৯ সালে কোম্পানিটি শেয়ারবাজারে আসার আগ্রহ প্রকাশ করে। তার আগে ২০১৬ সালে রবি ও এয়ারটেল যুক্ত হয়ে দেশের বাজারে দ্বিতীয় বৃহত্তম মোবাইল অপারেট কোম্পানিতে পরিণত হয়।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, ২০১৯ সালে রবির মোট রাজস্বের পরিমাণ ছিল ৭ হাজার ৪৮১ কোটি টাকা, যা আগের বছরের তুলনায় ১০ শতাংশ বেশি। আর করপোরেট করের হার ৪৫ শতাংশ হলেও কার্যকর করের পরিমাণ ছিল ৯০ শতাংশ।

সংবাদ সম্মেলনে কোম্পানির অন্য উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

(ঢাকাটাইমস/২২ফেব্রুয়ারি/মোআ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

অর্থনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :