এখন জ্বর হলে কী করবেন, কী ওষুধ খাবেন? কী পরামর্শ ডা. আব্দুল্লাহর?

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ৩০ জুন ২০২২, ২০:৫৫ | প্রকাশিত : ৩০ জুন ২০২২, ২০:৪৪
ফাইল ছবি

এখন সময়টা করোনার। দেশের অধিকাংশ মানুষ জ্বর, সর্দি, কাশিতে আক্রান্ত হচ্ছেন। এছাড়াও শরীরে প্রচন্ড ব্যথা, খাবারে রুচি নেই নাকে ঘ্রাণ নেই। যারা এমন সব সমস্যায় ভুগছেন তাদের জন্য পরামর্শ দিচ্ছেন ডা. এবিএম আব্দুল্লাহ। তিনি বর্তমানে প্রধানমন্ত্রীর ব্যক্তিগত চিকিৎসকের দায়িত্ব পালন করছেন।

জ্বর, সর্দি, কাশি, শরীর ব্যথা, রুচি নেই, নাকে ঘ্রাণ নেই- যাদেরই এ ধরনের লক্ষণ থাকছে তাদের অবশ্যই করোনা পরীক্ষা করতে হবে। ঘরে ঘরে জ্বর-সর্দি-কাশিতে আক্রান্ত মানুষ। করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বৃদ্ধির পাশাপাশি ডেঙ্গুর প্রকোপও বাড়ছে। এ সময় কী করবেন?

ডা. আব্দুল্লাহ বলেন, জ্বর, সর্দি, কাশি, শরীর ব্যথা, রুচি নেই, নাকে ঘ্রাণ নেই- যাদেরই এ ধরনের লক্ষণ থাকছে তাদের অবশ্যই করোনা পরীক্ষা করতে হবে। র‌্যাপিড অ্যান্টিজেন টেস্ট খুব সহজেই করা হয়। করোনা পজিটিভ হলে আইসোলেশনে থাকতে হবে, তার মাধ্যমে যেন পরিবারের কেউ আক্রান্ত না হয়।

ডা. এবিএম আবদুল্লাহ বলেন, বিশেষ করে কিডনি, লিভার, হার্ট ও স্ট্রোকের রোগীদের জ্বর হলে অবহেলা করা যাবে না। ডাক্তারের পরামর্শ নিতে হবে। এখন ডেঙ্গু ও করোনা রোগে আক্রান্ত হয়েছে এমন অনেক রোগী পাওয়া যাচ্ছে। এসব রোগীর অবশ্যই ডাক্তারের পরামর্শ মানা জরুরি।

পরীক্ষা করা সম্ভব না হলে কী করবেন?

কেউ পরীক্ষা না করিয়ে বাড়িতে থাকলে তাদের জ্বর হলে প্যারাসিটামল, কাশি হলে কাশির ওষুধ ও গরম পানি দিয়ে কুলকুচা করতে হবে, গরম পানি খেতে হবে বলে পরামর্শ দেন এই চিকিৎসক।

এছাড়া ডাক্তারের পরামর্শ ছাড়া অ্যান্টিবায়োটিক খাওয়া যাবে না। জ্বর হলে সব ধরনের সাধারণ খাবার খাওয়া যাবে। ফলমূল, শাক-সবজি ও প্রোটিনজাতীয় খাবার খেতে হবে। বেশিরভাগ সময় হাসপাতালে ভর্তির প্রয়োজন হয় না। তবে ঝুঁকি এড়াতে ডাক্তারের পরামর্শ নিতে হবে। এর পাশাপাশি সংক্রমণ রোধে হাত ধোয়া, সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে।

(ঢাকাটাইমস/৩০জুন/এএ/কেএম)

সংবাদটি শেয়ার করুন

স্বাস্থ্য বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :