মৌসুমের আগেই ডেঙ্গু রোগী বেড়েছে পাঁচ গুণ, পাঁচ মাসে আক্রান্ত ১৭৭৪ জন, মৃত্যু ১৩

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা টাইমস
 | প্রকাশিত : ২৯ মে ২০২৩, ২৩:২৪

দেশে ডেঙ্গুর প্রাদুর্ভাব বৃদ্ধি পেয়েছে। গত বছরের তুলনায় এ বছর ডেঙ্গু আক্রান্তের সংখ্যা পাঁচগুণ বেশি। গত এক দিনে আরও ৭২ জন ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে রাজধানী ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে। এ নিয়ে চলতি বছরের জানুয়ারি থেকে সোমবার পর্যন্ত ১ হাজার ৭৭৪ জন ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। আর মৃত্যু হয়েছে ১৩ জনের।

এমন অবস্থায় সবাইকে সতর্ক থাকার আহ্বান জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক। চলতি বছরের ও গত বছরের ডেঙ্গু আক্রান্তের হিসাব তুলে ধরে তিনি বলেন, এ বছর এখন পর্যন্ত গত বছরের তুলনায় ৫ গুণ বেশি ডেঙ্গু রোগী শনাক্ত হয়েছে। ফলে সামনের দিনে ডেঙ্গুর পিক সিজনে অবস্থা ভয়াবহ হতে পারে বলেও সতর্ক করেন তিনি।

সোমবার দুপুরে সচিবালয়ে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে এক সংবাদ সম্মেলনে স্বাস্থ্যমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘এ বিষয়ে কিছু পদক্ষেপ আমরা নিয়েছি। আমাদের হাসপাতালের পরিচালকদের সঙ্গে ডিজির (স্বাস্থ্য অধিদপ্তর) বৈঠক হয়েছে, হাসপাতালে যাতে প্রস্তুতি থাকে। আমাদের ডাক্তার-নার্সদের ট্রেনিংয়ের ব্যবস্থা করা হয়েছে। যে ডেঙ্গু সার্ভে, সেটি চলমান আছে। রিপোর্ট দুই সিটি কর্পোরেশনকে দিয়েছি।

মন্ত্রী বলেন, ‘হাসপাতালে যেহেতু রোগী বাড়ছে সেহেতু এ বিষয়ে আমরা পদক্ষেপ নিচ্ছি। হাসপাতালে আলাদা ওয়ার্ড এবং আলাদা কর্নার তৈরি করা হয়েছে ডেঙ্গু রোগীদের জন্য। বছর খানেকের মধ্যে আমরা আড়াইহাজার ডাক্তার এবং নার্সকে ট্রেনিং দিয়েছি।’

তিনি বলেন, ‘জনগণকে সচেতন করার জন্য আমরা বিভিন্ন মহলকে যুক্ত করেছি। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষক আছেন, ছাত্রছাত্রী আছেন। তাদের মাধ্যমে এটা প্রচার করা হচ্ছে। সেনাবাহিনীর সদস্যদেরকেও যুক্ত করা হয়েছে, যারা জনগণকে সতর্ক করতে পারে, কীভাবে ডেঙ্গু রোগ থেকে বাঁচা যায়, মশার কামড় থেকে বাঁচা যায় এবং ডেঙ্গু হলে পরে তাড়াতাড়ি চিকিৎসা নেওয়া, এ বিষয়েও বলা।’

এ বিষয়ে প্রচার-প্রচারণার জন্য পোস্টার, ব্যানার এবং টিভিতে বিজ্ঞাপন দেওয়ার ব্যবস্থাও করা হয়েছে বলেও জানান স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

তিনি বলেন, ‘স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয় মিটিং আহ্বান করেছিল। সেখানে আমাদের প্রতিনিধি গিয়েছে। জরুরি কোনো ব্যবস্থা যদি নিতে হয়, সেজন্য প্রস্তুতি আমাদের রয়েছে।’

মন্ত্রী বলেন, ‘আপনাদের মাধ্যমে আমরা জনগণকে অবহিত করতে চাই যে, আপনারা ডেঙ্গু প্রতিরোধ করার ব্যবস্থা নিন। মানে বাসার আশেপাশের আঙিনা পরিষ্কার রাখুন, নিজের ঘর স্প্রে করুন, আশেপাশের যদি জঙ্গল থাকে, সেটা স্প্রে করুন এবং পানি বা যদি অন্য কিছু জমে থাকে সেগুলো সরিয়ে ফেলুন। এ কাজগুলো আমাদের নিজেদেরই করতে হবে। কেউ অসুস্থ হলে হাসপাতালে এসে তাড়াতাড়ি চিকিৎসা নিবেন। সময়মতো চিকিৎসা নিলে প্রায় সবাই সুস্থ হয়ে যাচ্ছেন।’

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, দেশে ডেঙ্গুর ধরন বদলেছে। তাতে একদিকে ডেঙ্গু যেমন ভয়ংকর হয়ে উঠছে, তেমনি ‘শহুরে রোগ’ ডেঙ্গু শহর ছাড়িয়ে ঝুঁকি বাড়িয়েছে দেশজুড়ে।

চলতি বছরের সবচেয়ে বেশি ৮৫৭ জন রোগী পাওয়া গেছে এ মাসের ২৯ দিনে। জানুয়ারিতে দেশে ডেঙ্গুতে হাসপাতালে ভর্তি হয় ৫৬৬ জন, মারা যায় ছয়জন। ফেব্রুয়ারিতে তিনজনের মৃত্যুর পাশাপাশি শনাক্ত হয় ১৬৬ জনের, মার্চে কোনো মৃত্যু না হলেও ১১১ জন হাসপাতালে ভর্তি হয়, এপ্রিলে ১৪৩ জন আক্রান্তের পাশাপাশি মৃত্যু হয় দুজনের। আর চলতি মে মাসে মৃত্যু হয় দুজনের।

(ঢাকাটাইমস/২৯মে/আরকেএইচ/কেএম)

সংবাদটি শেয়ার করুন

স্বাস্থ্য বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

স্বাস্থ্য এর সর্বশেষ

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :