জামালপুরে যৌতুকের মিথ্যা মামলার বাদীর কারাদণ্ড

জামালপুর প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২১ নভেম্বর ২০২৩, ২২:০৬

জামালপুরে যৌতুকের দাবিতে দায়ের করা মামলা মিথ্যা প্রমাণিত হওয়ায় ইদফুল (৪০) নামে এক নারীকে দেড় বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

মঙ্গলবার দুপুরে জামালপুর সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক তানজিনা আক্তার এই দণ্ডের আদেশ দেন।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, জামালপুরের দেওয়ানগঞ্জ উপজেলার চঘারচর গ্রামের মকছেন আলীর ছেলে গোলাপজলের (৪৮) সঙ্গে ১৯৯৬ সালের ২০ মে একই উপজেলার শাহজাতপুর গ্রামের মৃত খাজর আলীর মেয়ে ইদফুলের বিয়ে হয়।

দীর্ঘদিন সংসার জীবনের পরে ২০২০ সালের ২৯ অক্টোবর গোলাপজল তার স্ত্রী ইদফুলকে তালাক দেন। এরপর ইদফুল তার প্রাক্তন স্বামী গোলাপজলের বিরুদ্ধে গত ২০২২ সালের ২৫ সেপ্টেম্বর যৌতুক নিরোধ আইনে আদালতে মামলা দায়ের করেন।

তবে আদালতের কাছে প্রমাণিত হয় যে, মামলার আসামি গোলাপজল ২০২০ সালের ২৯ অক্টোবর তার স্ত্রী ইদফুলকে তালাক দেয়। তালাকের নোটিশ পেয়েও অসৎ উদ্দেশে গত ২০২২ সালের ৬ মে যৌতুকের মামলা দায়ের করেন।

তালাকপ্রাপ্ত হওয়ার পর যৌতুক দাবি করার বিষয়টি আদালতের কাছে সন্দেহাতীতভাবে প্রমাণিত হয়। উভয় পক্ষের ৫ জন সাক্ষীর সাক্ষের ভিত্তিতে শুনানি শেষে মামলার বাদী বিবাদী উভয়ের উপস্থিতিতে মঙ্গলবার দুপুরে মামলার আসামি গোলাপজলকে বেকসুর খালাস দেন এবং মিথ্যা মামলা দায়ের করায় মামলার বাদী ইদফুলকে দেড় বছরের বিনাশ্রম কারাদণ্ডের আদেশ দেন সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক তানজিনা আক্তার।

(ঢাকাটাইমস/২১ নভেম্বর/ইএইচ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

সারাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :