জমি বিক্রেতা প্রতারকচক্রের একজন গ্রেপ্তার

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২২ জানুয়ারি ২০১৯, ১৯:৩৫

জমির মালিক একজন। অথচ মালিক পরিচয়ে বেচতেন অন্যজন। এভাবে ক্রেতা হতেন প্রতারিত। এমন প্রতারকচক্রের একজন সদস্য জাহাঙ্গীর ফারুককে গ্রেপ্তার করেছে ডিবির সিরিয়াস ক্রাইমের অর্গানাইজড ক্রাইম প্রিভেশন টিম।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গত শনিবার রাতে ডিবির সিরিয়াস ক্রাইমের অর্গানাইজড ক্রাইম প্রিভেশন টিমের জ্যেষ্ঠ্য সহকারী কমিশনার নাজমুল হকের নেতৃত্বে রাজধানীর তুরাগ এলাকা থেকে জাহাঙ্গীরকে গ্রেপ্তার করা হয়। এই গ্রেপ্তারের ঘটনা গণমাধ্যমকে জানানো হয়েছে গতকাল রাতে। তখন আরও জানানো হয়, প্রতারক চক্রের প্রধান হারুন অর রশীদ। তার সহযোগী আরও কয়েকজন। তাদের কেউ সাজতেন জমির মালিক। কেউ হতেন ‘পাওয়ার অব এটর্নি’ পাওয়ার দাবিদার। তবে এর কাগজপত্র থাকতো জাল।

পুলিশ জানায়, প্রতারক চক্র তুরাগের বাউনিয়া এলাকার আবদুল কাদেরের ২৭ দশমিক পাঁচ শতক জমি প্রতারণার মাধ্যমে বিক্রির উদ্যোগ নেয়। তার জন্য গ্রেপ্তার হওয়া জাহাঙ্গীর ফারুক সাজে আবদুল কাদের। তিনি আবার কাদেরের সই নকল করে মূল হোতা হারুন অর রশীদের নামে নকল পাওয়ার অব এটর্নি দলিল তৈরি করে। এর নম্বর-৬১৫৬/ তারিখ ১৫.১০.২০১৮।

চক্রটি এই জমি বিক্রির জন্য প্রিয়াংকা গ্রুপের চেয়ারম্যান সাঈদুর রহমানের কাছ থেকে বায়না বাবদ ১০ লাখ টাকা নেয়। বায়নাকারী একপর্যায়ে প্রতারণা টের পেয়ে যায়। তাই প্রিয়াংকা গ্রুপের প্রতিনিধি বাদি হয়ে তুরাগ থানায় অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে প্রতারণার মামলা করে।

চক্রটি আগেও প্রতারণা করেছে বলে পুলিশ জানায়। এ নিয়ে উত্তরা পশ্চিম থানায় একটি মামলাও রয়েছে। যেখানে অভিযোগ করা হয়েছে, জমির মামলার ভূক্তভোগী আবদুল কাদেরের ফুলবাড়িয়া সুপার মার্কেট-২-এর এ ব্লকের (সিটি প্লাজা) নিচতলার ৮৩ নম্বর দোকানের নকল দখলস্বত্ত ও নামজারির আবেদন করে প্রতারকচক্র। পরে তার দোকান ঘরের দখল স্বত্ব হস্তান্তর ও পজেশন বিক্রয় দলিল নকল করে। এরপর দোকানের পজেশন বিক্রি করে দেওয়া হয়। এসব প্রতারণার কথা প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে স্বীকার করেছে আসামি জাহাঙ্গীর ফারুক। অপরাধ স্বীকার করে আদালতেও জবানবন্দি দেন তিনি।

সংবাদটি শেয়ার করুন

অপরাধ ও দুর্নীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত