পাসপোর্ট করতে গিয়ে আটক রোহিঙ্গা নারী

মানিকগঞ্জ প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৩ নভেম্বর ২০১৯, ১৯:২৮

বাংলাদেশি পরিচয় দিয়ে মানিকগঞ্জে পাসপোর্ট করার সময় হাতেনাতে ধরা খেয়েছেন এক নারী। বুধবার দুপুরে ওই নারীকে আটক করা হয়।

আটক করা হয় রোহিঙ্গা ওই নারীর স্বামী পরচয়দানকারী রেজাউল করিম ও সনাক্তকারী আইনজীবী মনোয়ার হোসেনকেও।

জেলা আঞ্চলিক পাসপোর্ট কার্যালয় এবং পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, বুধবার বেলা ১২টার দিকে জেলা পাসপোর্ট কার্যালয়ে জান্নাত আক্তার নামে এক নারী পাসপোর্ট করতে যান। তার পাসপোর্ট আবেদন ফরমে স্বামীর নাম রেজাউল করিম এবং বাবার নাম আবদুল হাই উল্লেখ করা হয়।

জেলার সাটুরিয়া উপজেলার দিঘুলিয়া ইউনিয়নের বেংরই গ্রামে তাদের বাড়ির তথ্য ফরমে লিপিবদ্ধ করেন। সেখানে জান্নাতের জন্ম দেখানো হয়েছে ২০০০ সালের ১০ জুন।

জেলা আঞ্চলিক পাসপোর্ট কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক মাকসুদুর রহমান জানান, ওই নারীর কথাবার্তায় সন্দেহ হলে তাৎক্ষণিক রোহিঙ্গা শরণার্থীদের নিবন্ধিত ওয়েব সার্ভারে অনুসন্ধান করেন ওই কর্মকর্তা। এতে দেখা যায়, পাসপোর্ট আবেদনকারী জান্নাত আক্তার বাংলাদেশি নন, রোহিঙ্গা নারী। তার আসল নাম আসমা। বাবা সিরাজুল হক। তার রোহিঙ্গা নিবন্ধিত নম্বর ১৪৩২০১৭১২১৩১৫৪৪১৫। জন্ম তারিখ ৫ জানুয়ারি, ২০০১। ২০১৭ সালের ১০ অক্টোবর তার পরিচয় টেকনাফ রোহিঙ্গা ক্যাম্পে নিবন্ধিত হয়।

মাকসুদুর রহমান বলেন, রোহিঙ্গা নারীর পরিচয় নিশ্চিত হওয়ার পর বিষয়টি পুলিশকে অবহিত করা হয়। পরে পুলিশ পাসপোর্ট কার্যালয় থেকে তাকে আটক করে।

সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রকিবুজ্জামান বলেন, রোহিঙ্গা নারী ও তার স্বামী পরিচয়দানকারী রেজাউল কারিম এবং পাসপোর্টের আবেদন ফরমে সনাক্তকারী আইনজীবী মনোয়ার হোসেনকে আটক করা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

ঢাকাটাইমস/১৩নভেম্বর/প্রতিনিধি/এমআর

 

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :