গ্রাম প্রতিরক্ষা দলনেতাদের চাকরি নিয়ে হাইকোর্টের রুল

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৮:২০

বাংলাদেশ গ্রাম প্রতিরক্ষা দলের ওয়ার্ড ও ইউনিয়ন দলনেতাদের চাকরি রাজস্ব খাতে স্থানান্তর করে জাতীয় বেতন স্কেলে অন্তর্ভুক্ত করার নির্দেশ কেন দেওয়া হবে না তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট।

সোমবার এ বিষয়ে দায়ের করা এক রিট আবেদনের শুনানি করে বিচারপতি জেবিএম হাসান ও বিচারপতি রাজিক আল জলিলের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

হাইকোর্টের অপর এক রুলে, গ্রাম প্রতিরক্ষা দল আইন-১৯৯৫ এ বর্ণিত চাকরি বিধি ও প্রবিধানমালা প্রণয়ন করতে কেন নির্দেশ দেওয়া হবে না তাও জানতে চাওয়া হয়। আগামী চার সপ্তাহের মধ্যে এ রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে আইন সচিব, প্রতিরক্ষা বিভাগের সচিব, প্রতিরক্ষা সচিব ও আনসার ভিডিপি মহাপরিচালকসহ মোট আটজনকে।

আদেশের বিষয়টি ঢাকা টাইমসকে জানান রিটকারীদের আইনজীবী ব্যারিস্টার হুমায়ুন কবির পল্লব। তিনি বলেন, সারাদেশের এই দলের সংখ্যা ২৫ হাজারের মতো। এরাই সবাই মাসে ২৫০০ টাকা বেতন পান। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অনসার ভিডিবিও অধীনে চাকরি করেন এই দল নেতারা।

সিরাজগঞ্জের গ্রাম প্রতিরক্ষা দলনেতা মুহাম্মদ শেখ ফরিদসহ ২৬ জন এ রিট করেন। আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন ব্যারিস্টার মো. মোহাম্মদ হুমায়ন কবির পল্লব।

এর আগে ২৭ ফেব্রুয়ারি এ বিষয়ে পদক্ষেপ নিতে সংশ্লিষ্টদের প্রতি লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছিল। যথাযথ জবাব না পেয়ে গত ৬ জুন তারা এ রিট করেন।

রিটে বলা হয়, ইউনিয়ন দলনেতার পদ দুটি আইনের সৃষ্ট পদ। তাই তারা সরকারের রাজস্ব থেকে বেতন পাওয়ার অধিকারী এবং জাতীয় বেতন স্কেলের অন্তর্ভুক্ত। কিন্তু এখন পর্যন্ত তাদের জাতীয় বেতন স্কেলের আওতাভুক্ত করে বেতন-ভাতা প্রদান করা হয়নি। যা আইনের ব্যত্যয় এবং তাদের মৌলিক অধিকারের পরিপন্থী।

(ঢাকাটাইমস/২৭সেপ্টেম্বর/এআইএম/জেবি)

সংবাদটি শেয়ার করুন

আদালত বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :