চোখ ভালো রাখতে যেসব নিয়ম মেনে চলবেন

স্বাস্থ্য ডেস্ক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৭ অক্টোবর ২০২১, ০৯:২৯

চোখ মানুষের অমূল্য সম্পদ। তাই চোখের প্রতি যত্নবান হওয়া দরকার। চোখের যত্নে কিছু নিয়ম আপনাকে অবশ্যই মানতে হবে। যেসব নিয়ম মানলে দীর্ঘদিন চোখ ভালো থাকবে।

চোখ সুস্থ রাখতে বা দৃষ্টিশক্তি উন্নত রাখতে আমাদের লাইফস্টাইলে বেশ কিছু নিয়ম মেনে চলা দরকার। তাতে অকালে দৃষ্টিশক্তি হারানোর মতো ভয়ঙ্কর পরিস্থিতির মুখে পড়তে হবে না।

পাঁচজনের মধ্যে চারজনেরই চোখের এমন বেশ কিছু সমস্যা থাকে, সময় থাকলে চিকিৎসা করালে যার সমাধান সম্ভব। বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, আশি শতাংশ মানুষের দৃষ্টিহীনতার সমস্যা সম্ভব হয়, যদি সঠিক সময়ে চিকিৎসা করানো হয়। এছাড়াও চোখ সুস্থ রাখতে বা দৃষ্টিশক্তি উন্নত রাখতে আমাদের লাইফস্টাইলে বেশ কিছু নিয়ম মেনে চলা দরকার। তাতে অকালে দৃষ্টিশক্তি হারানোর মতো ভয়ঙ্কর পরিস্থিতির মুখে পড়তে হবে না।

ওয়ার্ল্ড হেলথ অর্গানাইজেশন বা হু-এর তথ্য অনুযায়ী জানা যায়, বয়সজনিত কারণ, ডায়াবেটিস রোগ এবং অন্যান্য অসুখের কারণ ছাড়াও অনিয়মিত লাইফস্টাইল এবং অস্বাস্থ্যকর খাদ্যাভ্যাসের কারণেও বহু মানুষ দৃষ্টিশক্তি হারিয়ে ফেলেন অকালে। লাইফস্টাইলে বা অভ্যাসে কী কী পরিবর্তন নিয়ে আসলে চোখ সুস্থ থাকবে, তা জানাচ্ছেন চিকিৎকরা।

১. প্রতিদিনের খাবারের তালিকায় প্রচুর শাক-সবজি রাখুন। সবুজ শাক-সবজি চোখের স্বাস্থ্যের জন্য খুবই উপকারী। এছাড়াও প্রতিদিন টাটকা ফল খান।

২. চোখের স্বাস্থ্যের জন্য খুবই ক্ষতিকর ধূমপান। নিয়মিত ধূমপানের ফলে দৃষ্টিশক্তি এতটাই ক্ষতিগ্রস্থ হয় যে তা সমাধানের আর কোনও রাস্তা থাকে না।

৩. সূর্যের অতিবেগুনী রশ্মির হাত থেকে চোখকে রক্ষা করতে চশমা বা সানগ্লাস পরুন।

৪. করোনা পরিস্থিতিতে বেড়ে গিয়েছে কাজের চাপ। বাড়িতে বা অফিসে সারাক্ষণই কম্পিউটার, ল্যাপটপ, মোবাইলে চোখ রেখে কাজ করে যেতে হচ্ছে। এতে চোখের স্বাস্থ্যে প্রভাব পড়ছে। বিশেষজ্ঞরা পরামর্শ দিচ্ছেন যে, টানা কাজের মাঝে কম্পিউটারের স্ক্রিন থেকে অন্তত ২০ মিনিট অন্তর চোখ সরিয়ে ঠান্ডা পানির ঝাপটা দিন।

৫. সকালে সবুজ প্রকৃতির দিকে তাকালে চোখ ভালো থাকে। এমন কথা আমরা ছোটবেলা থেকেই বাবা-মায়ের কাছে শুনে থাকি। চোখ সুস্থ রাখতে বয়সকাল পর্যন্ত আমাদের এই অভ্যাস জারি রাখা প্রয়োজন।

৬. চোখে হাত দেওয়ার আগে ভালো করে হাত ধুয়ে নেওয়া দরকার।

৭. নিয়মিত চোখের চেকআপ করানো দরকার। যাতে অল্প কোনও সমস্যা হলে সঙ্গে সঙ্গেই চিকিৎসা করানো সম্ভব হয়।

(ঢাকাটাইমস/১৭অক্টোবর/এজেড)

সংবাদটি শেয়ার করুন

স্বাস্থ্য বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :