ওমিক্রন আক্রান্তদের যেসব লক্ষণ দেখা দেয়

স্বাস্থ্য ডেস্ক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ০৭ ডিসেম্বর ২০২১, ০৯:৫১

মহামারি করোনাভাইরাসের নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রন। বলা হচ্ছে এটি বেশি পরিমানে ছোঁয়াচে। অর্থাৎ স্বল্প সময়ে বেশি সংখ্যক মানুষকে আক্রান্ত করে। প্রশ্ন হচ্ছে কী করে চিনবেন ওমিক্রনকে? বুঝবেন কী করে শরীরে বাসা বেঁধেছে ওমিক্রন? রোগের লক্ষণগুলো কী কী? জেনে নিন সে সম্পর্কে।

এমন অনেকেই রয়েছেন, যাদের এখনও পর্যন্ত টিকার দ্বিতীয় ডোজ পর্যন্ত নেওয়া হয়নি। টিকা নেওয়া থাকলেও তা আদৌ কাজ করবে কিনা তা নিয়েও সংশয় রয়েছে বিশেষজ্ঞদের। বুস্টার ডোজের প্রয়োজন কিনা তা নিয়েও ধন্দে রয়েছেন তারা।

ফলে ওমিক্রন নিয়ে সাধারণ মানুষের মনে এই মুহূর্তে অনেক প্রশ্ন। এখন, কী করে বুঝবেন, সেই ভ্যারিয়েন্ট এদিক সেদিক ঘুরে আপনার চৌহদ্দিতেই ঢুকে পড়েছে কিনা! আগে করোনা সংক্রান্ত যে সব লক্ষণের কথা আমরা জানতাম, তার চেয়ে নাকি অনেকটাই আলাদা এই ভ্যারিয়েন্টটিতে আক্রান্ত হওয়ার লক্ষণ।

কী কী সেসব লক্ষণ?

মূলত গলা ব্যথা, দুর্বলতা এবং সারা গায়ে ব্যথা। এখনও পর্যন্ত যে কজন ওমিক্রন আক্রান্ত হয়েছেন, তাদের প্রত্যেকেরই ছিল একই রকম উপসর্গ।

তবে বহু আক্রান্তই রয়েছেন উপসর্গহীন। ফলে না-বুঝেই রোগ ছড়াচ্ছেন তারা।

ডেল্টা বা অন্য ভ্যারিয়েন্টের ক্ষেত্রে যেমন অন্যতম সমস্যা ছিল শ্বাসকষ্ট এবং ঘ্রাণশক্তি চলে যাওয়া। এক্ষেত্রে তা একেবারেই নেই। সাধারণ জ্বরসর্দির মতোই সামান্য উপসর্গ দেখা যাচ্ছে আক্রান্তের শরীরে।

নতুন ধরনের এই উপসর্গের কারণ সম্ভবত ভাইরাসটির মিউটেশন ক্ষমতা। পরবর্তীকালে মানবশরীরের থেকে জেনেটিক কিছু বৈশিষ্ট্য ধার করে অন্য কোনও ভয়াল আকার যে নেবে না এই ভ্যারিয়েন্টটি, তা নিয়ে এখনও নিশ্চিত নন চিকিৎসকেরা। আর সাধারণ সর্দিকাশির সঙ্গে উপসর্গগত বিশেষ পার্থক্য না থাকায় বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই পাত্তা দিচ্ছেন না মানুষ। ফলে রোগ আরও বেশি ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা দেখা দিচ্ছে।

ফলে সামান্য উপসর্গকেও অবহেলা না করে সতর্ক হোন। চিকিৎসকের পরামর্শ নিন এবং প্রয়োজনে কোয়ারান্টাইনে থাকুন। তবে তারও আগে মেনে চলুন কোভিড বিধি। মাস্ক, স্যানিটাইজার ব্যবহার করুন, আর নিরাপদ দূরত্ববিধি মেনে চলুন। কথায় বলে না, সাবধানের মার নেই!

(ঢাকাটাইমস/৭ডিসেম্বর/এজেড)

সংবাদটি শেয়ার করুন

স্বাস্থ্য বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :