ইলিয়াস কাঞ্চনের সঙ্গে জায়েদ খানের এ কেমন প্রতারণা!

বিনোদন প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ০৮ মার্চ ২০২২, ১৪:১৮ | প্রকাশিত : ০৮ মার্চ ২০২২, ০৯:৪৩

চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির ২০২২-২৪ মেয়াদের নির্বাচনে খল অভিনেতা মিশা সওদাগরকে হারিয়ে নতুন সভাপতি হয়েছেন বিশিষ্ট অভিনেতা ও সমাজসেবক ইলিয়াস কাঞ্চন। একসময়ের তুমুল জনপ্রিয় নায়ক এবং বর্তমানে নিরাপদ সড়ক চাই আন্দোলনের চেয়ারম্যান হিসেবে জনকল্যাণমূলক কাজের জন্য সারা দেশে তিনি বিশেষভাবে সম্মানিত ব্যক্তি। তার সঙ্গেই কি না ভয়ংকর এক প্রতারণা করলেন শিল্পী সমিতির সাধারণ সম্পাদক পদ প্রত্যাশী জায়েদ খান!

গত মেয়াদে শিল্পী সমিতির সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব সামলেছেন এই অভিনেতা। এবারও তিনি জিতেছেন শিল্পীদের ভোটে। পরে জায়েদের বিরুদ্ধে নির্বাচনী আচরণবিধি ভঙ্গের লিখিত অভিযোগ করেন বিপক্ষ প্যানেলের প্রার্থী নিপুণ আক্তার। যার জেরে অভিনেতার প্রার্থিতা বাতিল করে নির্বাচনী আপিল বোর্ড। সাধারণ সম্পাদক পদে জয়ী ঘোষণা করা হয় নিপুণকে। বিষয়টি এখন উচ্চ আদালতে মীমাংসাধীন।

তারই মাঝে জায়েদ খান হাইকোর্ট থেকে নিজের পক্ষে রায় পেয়েছেন গত ২ মার্চ। গত ৪ মার্চ তিনি নতুন সভাপতির কাছে শপথও নিয়েছেন। যদিও তার আগে ইলিয়াস কাঞ্চন জায়েদ খানকে শর্ত দিয়েছিলেন, ‘তুমি যদি হাইকোর্টের রায়ের কপি আমাকে দেখাতে পারো, তবেই তোমাকে শপথ পড়াব। সেই মতো জায়েদ খান আদালতের একটা কপি দেখান কাঞ্চনকে এবং শপথও নেন।

কিন্তু পরে জানা যায়, জায়েদ খান আদালতের যে কাগজটি দেখিয়ে শপথ নিয়েছেন, সেটি ছিল ভুয়া। আদালত থেকে তাকে রায়ের কোনো কপিই দেওয়া হয়নি। ফলে গত ৯ ফেব্রুয়ারি হাইকোর্ট তার পক্ষে যে রায় দিয়েছিলেন, সেদিনের একটি কাগজ দেখিয়ে ইলিয়াস কাঞ্চনকে বোকা বানিয়ে গত ৪ মার্চ শপথ নেন জায়েদ খান।

বিষয়টি সম্প্রতি বুঝতে পেরে খুব ক্ষেপেছেন স্বভাবে শান্ত ইলিয়াস কাঞ্চন। সোমবার এফডিসিতে জরুরি এক সাংবাদিক সম্মেলন ডেকে তিনি জায়েদ খানের শপথগ্রহণ বাতিল ঘোষণা করেছেন। শুধু তাই নয়, প্রতারণা করে শপথ নেওয়ার দায়ে শিল্পী সমিতির সভাপতি হিসেবে তিনি জায়েদ খানের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ারও হুঁশিয়ারি দিয়েছেন। জায়েদ খান কীভাবে তার সঙ্গে প্রতারণা করেছেন সেই ঘটনাও বিস্তারিত প্রকাশ করেন তিনি।

এদিকে মঙ্গলবারের সাংবাদিক সম্মেলনে গুরুত্বপূর্ণ একটি ঘোষণাও দিয়েছেন ইলিয়াস কাঞ্চন। তিনি জানিয়েছেন, সাধারণ সম্পাদক পদ নিয়ে যেহেতু জায়েদ খান ও নিপুণ আক্তারের মধ্যে মামলা চলছে এবং আদালত এই পদের ওপর আরও চার সপ্তাহের স্থগিতাদেশ দিয়েছেন, তাই চূড়ান্ত রায় না আসা পর্যন্ত শিল্পী সমিতির সাধারণ সম্পাদক হিসেবে চিত্রনায়ক সায়মন সাদিক দায়িত্ব পালন করবেন। যিনি এবারের নির্বাচনে সহ-সাধারণ সম্পাদক পদে জিতেছেন।

ঢাকাটাইমস/৮ মার্চ/এএইচ

সংবাদটি শেয়ার করুন

বিনোদন বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :