খুলনা-৩ আসনে এস এম কামালের আগমনে উচ্ছ্বসিত সর্বস্তরের মানুষ

খুলনা ব্যুরো, ঢাকা টাইমস
 | প্রকাশিত : ২৮ নভেম্বর ২০২৩, ২২:১৯

আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে খুলনা-৩ আসনের নৌকার মাঝি হিসেবে মনোনয়ন পেয়েছেন সাবেক ছাত্র নেতা ও আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এসএম কামাল। এতে করে উচ্ছ্বসিত নেতাকর্মীরা ও সর্বস্তরের সাধারণ মানুষ। খুলনায় বইছে নৌকার গণজোয়ার।

রবিবার বিকালে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু এভিনিউতে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয় থেকে খুলনা-৩ আসনের দলীয় প্রার্থী হিসেবে এস এম কামালের নাম ঘোষণা করেন দলের সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। নাম ঘোষণার পর থেকে খুলনায় দলীয় নেতাকর্মীরা ছাড়াও সাধারণ মানুষেরা আনন্দ মিছিল ও মিষ্টি বিতরণ করেন।

এর আগে এই আসনটিতে টানা তিনবার দলীয় মনোনয়নে নির্বাচিত হন বেগম মুন্নুজান সুফিয়ান। দীর্ঘ ১৫ বছর দুইবার শ্রমও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ে প্রতিমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

এদিকে এস এম কামাল মনোনয়ন পাওয়ার পর খুলনায় সাধারণ মানুষের সাথে মিশে তাদের দুঃখ-দুর্দশার কথা শুনছেন।

মঙ্গলবার তিনি তার নির্বাচিত আসনের বিভিন্ন এলাকায় মসজিদে নামাজ আদায় করেন স্থানীয় মুসল্লিদের সাথে নিয়ে। একই সাথে তিনি খুলনা ৩- আসনকে দুর্নীতিবাজ, চাঁদাবাজ, মাদকমুক্ত ভূমিদস্যুদের উৎখাত করার জন্য সকলকে সহযোগীতা হাত বাড়িয়ে দিতে অনুরোধ জানিয়েছেন।

মঙ্গলবার খালিশপুর বিআইডসি রোড পিপলস এলাকায় জোহর নামাজ বাদ তিনি উপস্থিত সাধারণ মানুষ ও সাংবাদিকদের বলেন, আমি এই এলাকার মানুষ। আমার কৈশোর, ছাত্রজীবন এই খুলনা নিয়ে। আমি এই শ্রমিক অধ্যুষিত এলাকার মানুষ। আমি এই অঞ্চলের মানুষকে খুব ভালবাসি। আমার সবাই পরিচিত বা কেউ কেউ আত্মীয়। আমি এখন মানুষের ভালবাসা চাই। আমি শ্রমিক বান্ধব জনপ্রতিনিধি হতে চাই।

এস এম কামাল হোসেন গোপালগঞ্জের কাশিয়ানীর জোনাসুরে ১৯৬০ সালের ৩১ জানুয়ারি এক সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ছাত্রলীগ করার মধ্যদিয়ে রাজনীতিতে প্রবেশ করেন। এস এম কামাল হোসেন শিক্ষার্থী অবস্থায় ওরাকান্দি মিড হাই স্কুল ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক, খুলনা মজিদ মেমোরিয়াল সিটি কলেজ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক, খুলনা জেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক, খুলনা মহানগর ছাত্রলীগের সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। জাতীয় ছাত্রলীগের পর্যায় ক্রমে কেন্দ্রীয় কমিটির প্রচার সম্পাদক, সাংগঠনিক সম্পাদক এবং সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন। এরপর ১৯৯০ এর স্বৈরাচার বিরোধী আন্দোলনের সর্বদলীয় ছাত্র ঐক্যের অন্যতম নেতা। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনেটের সদস্য এবং বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের দীর্ঘদিনের উপ কমিটির সহ-সম্পাদক ও সাবেক কেন্দ্রেীয় কার্যনির্বাহী সদস্য ছিলেন।

(ঢাকা টাইমস/২৮নভেম্বর/প্রতিনিধি/এসএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

বাংলাদেশ এর সর্বশেষ

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :