আওয়ামী লীগ খেল-তামাশার হঠকারী নির্বাচন নিয়ে উল্লাস করছে; এবি পার্টি

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা টাইমস
| আপডেট : ০৪ ডিসেম্বর ২০২৩, ১৮:৪৯ | প্রকাশিত : ০৪ ডিসেম্বর ২০২৩, ১৮:৩৬

দেশ, জাতি ও আন্তর্জাতিক মহলের মতামত উপেক্ষা করে প্রহসনের নির্বাচন করার জেদ অব্যাহত রাখলে জনরোষ এবং আন্তর্জাতিক নিষেধাজ্ঞা থেকে সরকার, ইসি ও দালালরা কেউই রেহাই পাবে না বলে হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেছে আমার বাংলাদেশ পার্টি- ‘এবি পার্টি’।

সরকারের পদত্যাগ ও প্রহসনের নির্বাচন বাতিলের দাবিতে রাজধানীর বিজয়-৭১ চত্বরে সোমবার বিকালে অনুষ্ঠিত পূর্বঘোষিত ‘প্রতিবাদী অবস্থান’ থেকে এই হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন দলের আহ্বায়ক এএফএম সোলায়মান চৌধুরী।

তিনি বলেন, ব্যাংকগুলোর আমানত ও দেশের রিজার্ভ লুটপাটের কারণে জাতীয় অর্থনীতি ভয়াবহভাবে বিপর্যস্ত তবুও তাদের কোনো বিকার নেই। ক্ষমতার মোহে অন্ধ হয়ে সরকার এখন গার্মেন্টস শিল্পকে মারাত্মক ঝুঁকির দিকে ঠেলে দিচ্ছে। জনগণ যখন অভাবের তাড়নায় দিকবিদিক জ্ঞানশুন্য হয়ে দিশাহারা তখন তারা খেল-তামাশার হঠকারী নির্বাচন নিয়ে আনন্দ-উল্লাস করছে। তিনি ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, এই কাণ্ডজ্ঞানহীন ক্ষমতালোভী সরকারকে জনগণ কখনো ক্ষমা করবে না।

প্রতিবাদী অবস্থানে আরও বক্তব্য দেন দলের যুগ্ম আহ্বায়ক প্রফেসর ডা. আব্দুল ওহাব মিনার, অ্যাডভোকেট তাজুল ইসলাম, সদস্য সচিব মজিবুর রহমান মঞ্জু, যুগ্ম সদস্য সচিব ব্যারিস্টার আসাদুজ্জামান ফুয়াদ, এবি যুব পার্টির আহ্বায়ক এবিএম খালিদ হাসান, সি. সহকারী সদস্য সচিব আব্দুল বাসেত মারজান, সহকারী সদস্য সচিব শাহ আব্দুর রহমান, মেহেদী হাসান চৌধুরী পলাশ, কেন্দ্রীয় নেতা অ্যাডভোকেট আলী নাসের খান, আব্দুল হালিম খোকন, সুলতানা রাজিয়া, সেলিম খান প্রমুখ।

সমাবেশে প্রফেসর ডা. আব্দুল ওহাব মিনার বলেন, বর্তমান সরকার প্রধানের কার্যক্রম দেখে এটা পরিষ্কার যে তিনি মানসিকভাবে সুস্থ নন। প্রতিশোধপরায়ণ মানসিকতা নিয়ে তিনি দেশ শাসন করছেন।

অ্যাডভোকেট তাজুল ইসলাম বলেন, রাতে আদালত বসিয়ে বিরোধী দলের নেতাদের যেভাবে সাজা দেওয়া হচ্ছে তাতে আইন ও বিচার ব্যবস্থার কফিনে শেষ পেরেক ঠুকে দেওয়া হচ্ছে। সরকার বেসামাল হয়ে দেশের সকল সাংবিধানিক প্রতিষ্ঠানকে ধ্বংস করতে ভয়ংকর খেলায় মেতেছে বলে তিনি অভিযোগ করেন।

সদস্য সচিব মজিবুর রহমান মঞ্জু বলেন, যখন দেশের ঘরে ঘরে অভাব, মানুষ যখন নির্যাতিত ও অধিকার বঞ্চিত তখন ঢোল-তবলা নিয়ে আওয়ামী সন্ত্রাসীরা উল্লাস করে স্লোগান দিচ্ছে ‘জিতবে আবার নৌকা’! তাদের আনন্দ দেখে জনগণ বিক্ষুব্ধ হচ্ছে। আওয়ামী লীগ ও নৌকার প্রতি মানুষের ক্ষোভ ও ঘৃণা তীব্রতর হচ্ছে।

যুগ্ম সদস্য সচিব ব্যারিস্টার আসাদুজ্জামান ফুয়াদ বলেন, শিক্ষাব্যবস্থার যে ক্ষতি এই সরকার করেছে এটা লক্ষ কোটি মানুষকে খুন করার শামিল। তিনি অযোগ্য ও বিতর্কিত লোকদের পাঠ্য কার্যক্রম থেকে প্রত্যাহারের দাবি জানান।

ঢাকাটাইমস/০৪ডিসেম্বর/জেবি/ইএস

সংবাদটি শেয়ার করুন

রাজনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

রাজনীতি এর সর্বশেষ

এবার দল পুনর্গঠনে বিএনপি 

বিদ্যুৎ খাতে লুণ্ঠন নীতির মাশুল জনগণ দেবে না: গণতন্ত্র মঞ্চ

বৈশ্বিক চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করে দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণের সর্বাত্মক প্রচেষ্টা চলছে: ওবায়দুল কাদের

সদ্য কারামুক্ত আলালের বাসায় গয়েশ্বর

৭৪ সালে দুর্ভিক্ষের চক্রান্তে বিএনপির এক নেতার বাবা জড়িত ছিলেন: প্রধানমন্ত্রী

জনগণের প্রতি প্রতিশোধ নিতেই সরকার বিদ্যুৎ ও জ্বালানির মূল্য বৃদ্ধি করতে চাচ্ছে: রিজভী

মাতৃভাষা দিবসে যুক্তরাজ্য জিয়া পরিষদের আলোচনা সভা

রক্তে অর্জিত ভাষাকে বিদেশি আগ্রাসন থেকে রক্ষা করতে হবে: শিবির সভাপতি

কখনো যুব মহিলা লীগ নেত্রীর দুলাভাই কখনো স্বামী, অবশেষে প্রতারণা মামলায় গ্রেপ্তার

উপজেলা নির্বাচনে জামানত বৃদ্ধির প্রস্তাব অস্বাভাবিক: মুক্তিযুদ্ধ প্রজন্ম কাউন্সিল

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :