রাবিতে প্রতিবাদী আলোক প্রজ্জ্বলন

রাবি প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২২:২৯

গোপালগঞ্জের বশেমুরবিপ্রবিতে আন্দোলনরত  শিক্ষার্থী ও সাংবাদিকদের ওপর সন্ত্রাসী হামলার প্রতিবাদে আলোক প্রজ্জ্বলন ও প্রতিবাদ সমাবেশ করেছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। এসময় বিশ্ববিদ্যালয়টির ভিসির পদত্যাগ দাবি করা হয়।

রবিবার সন্ধ্যায় বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে হতে  প্রজ্জ্বলিত মোমবাতি হাতে পদযাত্রা কর্মসূচি শুরু হয়। ক্যাম্পাস প্রদক্ষিণ শেষে  শহীদ বুদ্ধিজীবী স্মৃতিস্তম্ভে সমাবেশ করেন তারা।

এসময় শিক্ষার্থীরা বলেন, বশেমুরবিপ্রবিতে উপাচার্যের অপসারণের দাবিতে আন্দোলনে কর্তব্যরত সাংবাদিক ও শিক্ষার্থীদের ওপর উপাচার্যের নির্দেশে স্থানীয় সন্ত্রাসীরা হামলা করেছে। এতে আমরা মনে করি, উপাচার্যের মত পদে থাকার যোগ্যতা নেই। উপাচার্যের গুন্ডা বাহিনী যে ন্যাক্কারজনক হামলা করছে তা দ্রুত তদন্ত করে তাদের বিচারের আওতায় আনা হোক। যত দ্রুত সম্ভব উপাচার্যকে অপসারণের জোর দাবি জানাচ্ছি।

সারাদেশে বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে যে অগণতান্ত্রিক ও স্বৈরাচারী পরিবেশ তা থেকে দেশকে উদ্ধারে শিক্ষার্থী জনসাধারণের ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের বিকল্প নেই উল্লেখ করে তারা বলেন, আমরা আলোক হাতে দাঁড়িয়েছি, এর মানে আমরা এই প্রতিবাদী আলো সারাদেশে ছড়িয়ে দিতে চাই। স্বৈরাচারী পরিবেশ সৃষ্টি করার কারণে শিক্ষার্থীরা তাদের জ্ঞান চর্চার পরিবেশ পাচ্ছে না। এই দুর্নীতি শুধু জাহাঙ্গীরনগর বা বশেমুরবিপ্রবিতে নয় এমনকি রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়েও চলছে দুর্নীতির মহালুটপাট। ছাত্রসমাজই পারে তা রুখে দিতে। এই আলোক শিখা আমরা সারাদেশে ছড়িয়ে দিতে চাই। 

এসময় বিশ্ববিদ্যালয়টির উপাচার্য  খন্দকার নাসির উদ্দীনের দ্রুত অপসারণ ও বিচারের দাবি জানান তারা।

গত ১১ সেপ্টেম্বর বিশ্ববিদ্যালয় কাজ কি? এ ধরনের স্ট্যাটাস দেয়ায়  আইন বিভাগের শিক্ষার্থী ফাতেমা-তুজ জিনিয়া বিশ্ববিদ্যালয়  থেকে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়। এরপর থেকে শিক্ষার্থীদের উপাচার্যের পদত্যাগের দাবিতে আন্দোলন শুরু হলে স্থানীয় সন্ত্রাসীরা শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা করে। এতে  সাংবাদিকসহ অন্তত ২০ জন আহত হন।

(ঢাকাটাইমস/২২সেপ্টেম্বর/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

শিক্ষা বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :