সাকিবদের ১১ দফা নিয়ে আলোচনায় বসবে বিসিবি

ক্রীড়া ডেস্ক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২১ অক্টোবর ২০১৯, ২০:০৬ | প্রকাশিত : ২১ অক্টোবর ২০১৯, ১৭:৪২

সোমবার (২১ অক্টোবর) বিসিবি প্রাঙ্গণে জরুরি সংবাদ সম্মেলনে ১১ দফা দাবি উত্থাপন করেন বাংলাদেশের ক্রিকেটাররা। তাদের যাবতীয় সুযোগ সুবিধা দেওয়ার এই দাবি না মানলে সব ধরনের ক্রীড়া কার্যক্রম থেকে বিরত থাকবেন বলে ঘোষণাও দেন খেলোয়াড়রা। অবশেষে সাকিবদের ধর্মঘটের স্বপক্ষে কথা বলল বিসিবি। দ্রুত সময়ে ক্রিকেটারদের দাবি নিয়ে আলোচনা হবে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সিইও নিজামউদ্দিন চৌধুরী সুজন।

সাকিব-তামিমদের সংবাদ সম্মেলন শেষে সংবাদমাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে সুজন বলেন, ‘হ্যাঁ, আমরা মিডিয়ার মাধ্যমেই খেলোয়াড়দের দাবির কথা জানতে পেরেছি। তাদের সাথে এখনো প্রশাসনিকভাবে কোনো যোগাযোগ হয়নি। অবশ্যই খেলোয়াড়রা আমাদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ, তাদের বিষয়গুলো আমরা বোর্ডকে জানাব এবং বোর্ডই এটার সিদ্ধান্ত নেবে।’

ক্রিকেটারদের আন্দোলনে মুখপাত্র হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন বাংলাদেশ টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। তবে সংবাদ সম্মেলনে ১১ জন ক্রিকেটার তুলে ধরেন ১১টি দাবি। দাবি না মানলে সকল ক্রিকেটীয় কার্যক্রম বন্ধ করার কথা বলেছেন তারা, খেলবেন না জাতীয় লিগেও। 

উত্থাপিত ১১ দফা দাবি

১. ক্রিকেটার স্বার্থ দেখভালের সংগঠন ক্রিকেটার্স ওয়েলফেয়ার অব বাংলাদেশ (কোয়াবের) বর্তমান কোনো কার্যক্রম না থাকায় বর্তমান কমিটিকে অবিলম্বে পদত্যাগ করতে হবে। 

২. প্রিমিয়ার লিগ আগের মত করতে হবে। নিজেদের মতো করতে দিতে হবে। 

৩. এ বছর না হোক, তবে পরের বছর থেকে আগের মত বিপিএল হতে হবে, লোকাল ক্রিকেটারদের পারিশ্রমিক বাড়াতে হবে। গ্রাউন্ডস সুবিধা ও মাঠের ক্রিকেটে আন্তর্জাতিক মানের ভালো বল দিয়ে খেলা পরিচালনা নিশ্চিত করতে হবে। 

৪. প্রথম শ্রেণির ম্যাচ ফি এক লাখ, বেতন বাড়াতে হবে, বারো মাস কোচ ফিজিও দিতে হবে। ক্রিকেটারদের ফিটনেস পরীক্ষা আলাদা আলাদা বিভাগে অনুষ্ঠিত হবে। তাদের অনুশীলনও ঢাকামুখী না করে বিভাগীয় পর্যায়ে রেখে সুবিধা নিশ্চিত করা। 

৫.  ডেইলি অ্যালাউন্স ১৫০০ টাকায় কিছু হয় না, তাই বাড়াতে হবে, ট্রাভেল প্লেন ভাড়া দিতে হবে, হোটেল ভালো হতে হবে। 

৬. চুক্তিভুক্ত ক্রিকেটারের সংখ্যা ও বেতন বাড়াতে হবে 

৭. দেশি সব স্টাফদের বেতন বাড়াতে হবে, কোচ থেকে গ্রাউন্ডস, আম্পায়ার সবার বেতন বাড়াতে হবে। 

৮. ঘরোয়া ওয়ানডে বাড়াতে হবে, বিপিএলের আগে আরেকটি টি-টুয়েন্টিতে খেলতে চাই। 

৯. ঘরোয়া ক্যালেন্ডার নির্দিষ্ট করতে হবে। 

১০. বিপিএলের পাওনা টাকা নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে পরিশোধ করতে হবে । 

১১. ফ্র্যাঞ্চাইজি লিগ দুইটির বেশি খেলা যাবে না এমন নিয়ম তুলে দিতে হবে। সুযোগ থাকলে সবাই খেলবে।

(ঢাকাটাইমস/২১অক্টোবর/এআইএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

খেলাধুলা বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :