স্পিনবান্ধব উইকেট চান না ডোমিঙ্গো

ক্রীড়া ডেস্ক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ২১:১৫

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে একমাত্র টেস্ট জিতে টানা ছয় ম্যাচ হারের বৃত্ত থেকে বেরিয়ে আসতে বদ্ধপরিকর বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। এজন্য নিজেদের কন্ডিশন কাজে লাগিয়ে নিজেদের উপযোগী উইকেট তৈরির পরিকল্পনা বাংলাদেশের। অতীতে স্পিন উইকেট বানিয়ে অস্ট্রেলিয়া-ইংল্যান্ডের মত দলের বিপক্ষে বড়-বড় সাফল্যও পেয়েছে বাংলাদেশ। হয়তো এবারও সেই পথে হাটবে টাইগাররা। কিন্তু নিজেদের মত করে তৈরি করা উপযোগী উইকেটে খেলতে চান না বাংলাদেশের কোচ রাসেল ডোমিঙ্গো। বিদেশের উইকেটের মত উইকেট বানিয়ে বাংলাদেশকে গড়ে তুলতে চান ডোমিঙ্গো।

টেস্ট ক্রিকেটে বাংলাদেশের জয় ১৩টি। এর মধ্যে সবচেয়ে বড় সাফল্য, ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ার মত দলের বিপক্ষে টেস্ট জয়। সেটিও তারা করতে পারে স্পিনিং উইকেট বানিয়ে। স্পিনাররা স্পিন বিষে পুড়িয়েছিলেন ইংল্যান্ড ও অস্ট্র্রেলিয়ার ব্যাটসম্যানদের। ম্যাচের প্রথম দিন থেকেই উইকেট থেকে পুরোপুরি ফায়দা নিয়ে প্রতিপক্ষকে শক্ত হাতে ঘায়েল করে বাংলাদেশের স্পিনাররা। তাই প্রতিপক্ষকে ঘায়েল করতে নিজেদের শক্তিশালী দিক স্পিনিং উইকেটে মনোযোগ দেয় বাংলাদেশ।

কিন্তু ডোমিঙ্গো এই ধরনের উইকেটে খেলতে সর্তক করেছিলেন। বিদেশের কন্ডিশনের কথা মাথায় রেখে বাংলাদেশকে প্রস্তুত করতে চান তিনি। ডোমিঙ্গো বলেন, ‘টেস্টে ক্রিকেটে বাংলাদেশের উন্নতির জন্য আমরা সবসময় নিজেদের উপযোগী উইকেটে খেলতে পারি না। আপনি একটি পেসার নিবে, তারপর ভারতে খেলতে যাবেন। দক্ষিণ আফ্রিকা ও অস্ট্রেলিয়ায় আপনার তিন সিমার কে হবে বা কারা আমাদের চারজন পেসার হবে। কারণ তারা কোন ম্যাচ খেলেনি। এটি একটি সূক্ষ্ণ ভারসাম্য।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমরা জানি, দলের শক্তি যা তাতে স্পিন উইকেটে খেলা। বিশেষভাবে অস্ট্রেলিয়া, নিউজিল্যান্ড ও দক্ষিণ আফ্রিকার দলের বিপক্ষে। আপনি আপনার উইকেট স্পিন করতে চান কিন্তু আমরা নিজেরাই শিখতে পেরেছি এবং ভালো উইকেটে কিভাবে খেলতে হয় শিখতে হবে। যাতে পেসাররা খেলায় থাকে এবং ব্যাটসম্যানরা বড় ইনিংস খেলতে পারে।’

‘যদি তারা কঠিন উইকেটে খেলে, অর্ধেক ব্যাটসম্যানরা সেঞ্চুরি করে বড় ইনিংস খেলতে পারবে এবং বোলারদের ধারণা দিতে পারবে কারণ উইকেটটি স্পিনিং। তারা ভাববে, তারা ভালো বোলার কারণ উইকেট হলো স্পিনিং। আর পেসাররা ভাববে, তারা খারাপ কারণ উইকেট পেসার সহায়ক নয়।’

ডোমিঙ্গো বলেছেন, ভবিষ্যতে দলের ভালোর জন্য ভালো উইকেটে খেলতে চান। তিনি বলেন, ‘এটির সাথে মানিয়ে নেয় দলের জন্য কঠিনই বটে। আমি ভালো উইকেটে খেললে শক্তিশালী হয়ে উঠব। ফলে আমার খেলার উন্নতি হবে, শুধুমাত্র দেশের মাটিতে নয়, বাংলাদেশের বাইরেও। যদি আপনি শুধুমাত্র স্পিনিং উইকেটে খেলেন, তবে যেখানেই খেলতে যাক না কেন, আমাদের কোন সুযোগই থাকবে না।’

ভালো উইকেট কি, তা পরিস্কার করে দিয়েছিলেন ডোমিঙ্গো। তিনি বলেন, ‘আমি ভালো উইকেট চাই। আমি চাই আমাদের পেসাররা ম্যাচের প্রথম দিন বোলিং করবে। স্পিনাররা তৃতীয়, চতুর্থ ও পঞ্চম দিন খেলবে। ব্যাটসম্যানরা প্রথম দিনের প্রথম সেশনে খেলবে এবং এটি সহজতর হবে। আবার পরবর্তিতে কঠিন হবে। আমি নিশ্চিত, এমন উইকেটে বাংলাদেশ ভালো করবে। বিশেষভাবে অস্ট্রেলিয়া, দক্ষিণ আফ্রিকা এবং ইংল্যান্ডের মত দলের বিপক্ষে। তবে দলের উন্নতির জন্য, আমাদের আরও বড় ধরনের পরিকল্পনা থাকা দরকার।’

(ঢাকাটাইমস/২১ ফেব্রুয়ারি/এসইউএল)

সংবাদটি শেয়ার করুন

খেলাধুলা বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :