শিমুলিয়া ঘাটে মানুষের ঢল (ভিডিও)

মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২৬ মার্চ ২০২০, ০৮:১৭ | প্রকাশিত : ২৫ মার্চ ২০২০, ২৩:৪৪

করোনা ভাইরাসের ঝুঁকি নিয়েই বুধবার দ্বিতীয় দিনেও মুন্সীগঞ্জের লৌহজংয়ের শিমুলিয়া ঘাটে ঘরমুখী যাত্রীদের ঢল দেখা গেছে। দেশব্যাপী করোনা সংক্রমণ ঠেকাতে সতর্ক থাকলেও পদ্মা নদীর শিমুলিয়া-কাঠালবাড়ি নৌ-রুটে যেন পারপারে প্রতিযোগিতায় লেগেছে হাজার হাজার মানুষ।

বুধবার বিকাল থেকে সন্ধ্যা সাড়ে ৭টা পর্যন্ত সরজমিনে দেখা যায়, দক্ষিণবঙ্গের ২১টি জেলার প্রবেশদ্বার হিসেবে পরিচিত শিমুলিয়া ঘাট হয়ে ফেরি ও ট্রলারযোগে পদ্মা পাড়ি দিচ্ছে হাজার হাজার মানুষ। ফেরিতে মানুষের চাপে পারাপার করানো যাচ্ছে না যানবাহনকে। এতে পারাপারের অপেক্ষায় ঘাটে প্রহর গুণছে পাঁচ শতাধিক যানবাহন। প্রাইভেটকার, অ্যাম্বুলেন্স ও পণ্যবাহী যানবাহনের র্দীঘ জট শিমুলিয়া ঘাট থেকে কুমারভোগ পর্যন্ত পৌঁছেছে।

যাত্রীরা জানান, ঢাকা-মাওয়া মহাসড়কের বাসগুলো বন্ধ না করে শুধুমাত্র লঞ্চ, ফেরি ও সি-বোট বন্ধ করায় দুর্ভোগের মাত্রা বেড়েছে বহুগুণ। ঢাকা থেকে বাসগুলো আগে বন্ধ করে দিয়ে পরে ফেরি, লঞ্চ ও সি-বোট চলাচল বন্ধ করলে আর যাত্রীদের দুর্ভোগ হতোনা।

বিআইডব্লিউটিসি মাওয়া ব্যবস্থাপক (বাণিজ্য) সাফায়েত আহমেদ ঢাকা টাইমসকে জানান, নদীতে ১৪টি ফেরি চলাচল করছে। মঙ্গলবার দুপুরে শিমুলিয়া-কাঠালবাড়ী নৌরুটে সব ধরনের ফেরি চলাচল বন্ধ ঘোষণা করে বিআইডাব্লিউটিসি কর্তৃপক্ষ। তবে যাত্রীর অতিরিক্ত চাপ থাকায় এ নৌ-রুটে সব ধরনের ফেরি চলাচলের সুযোগ তৈরি হয়। এদিকে উপচেপড়া যাত্রীদের সুযোগকে কাজে লাগিয়ে শিমুলিয়া ফেরিঘাট আদায় করছে অতিরিক্ত ভাড়া। এছাড়া রাতে নিয়ম না মেনে ট্রলার চালাতেও দেখা গেছে।

সরেজমিনে শিমুলিয়া ফেরি ঘাট, লঞ্চ ঘাট ও সি-বোট ঘাটে গিয়ে দেখা যায়, কাঠালবাড়ী, মাঝিকান্দি ও মাছ ধরার অসংখ্য অবৈধ ট্রলারে অতিরিক্ত যাত্রী বহন করে পদ্মা নদী পাড়ি দিচ্ছে। জনপ্রতি ২০০ থেকে ৩০০ টাকা ভাড়ায় ট্রলারে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে পদ্মা নদী পাড়ি দিচ্ছেন অনেকে।

উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ কাবিরুল ইসলাম খান বলেন, ঘরমুখো যাত্রীদের ভীড় ছিল ঈদের চেয়ে বেশি। করোনা সংক্রমণ থেকে রক্ষা পেতে তাদেরকে মাইকিং করে নিরাপদ দূরুত্বে থাকার পরামর্শ দেয়া হয় এবং অবৈধ ট্রলারগুলো বন্ধ করে দিয়েছি। চালকসহ পাঁচটি ট্রলার আটক করি। যাত্রীদের সচেতনতা এবং ঝুঁকি এড়াতে ফেরিতে যাওয়ার পরামর্শ দেয়া হয়। তবে অনেক যাত্রী নিয়ম মানছে না।

(ঢাকাটাইমস/২৫মার্চ/কেএম)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :