হারিকেন ইসাইয়াসে যুক্তরাষ্ট্রে নিহত ৫

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, ঢাকা টাইমস
 | প্রকাশিত : ০৬ আগস্ট ২০২০, ০৯:১৬

করোনাভাইরাসের বিপর্যস্ত মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের শক্তিশালী হারিকেন ইসাইয়াসের আঘাতে অন্তত ৫ জন নিহত হয়েছেন। আটলান্টিক মহাসাগরের পাশের কয়কটি অঙ্গরাজ্যে চরম আঘাত হানে ইসাইয়াস। খবর বিবিসির।

খবরে বলা হয়েছে, হারিকেনের আঘাতে নর্থ ক্যারোলিনাতে দু'জন এবং নিউইয়র্ক, দেলাওয়ারে ও মেরিল্যান্ডে আরও তিন জনের মৃত্যু হয়েছে।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন অঙ্গরাজ্যে তাণ্ডবের পর শক্তি হারিয়ে ক্রমে সাধারণ ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হওয়া ইসাইয়াস দক্ষিণ-পশ্চিম কানাডার দিকে সরে গেছে।

বিবিসি জানিয়েছে, ঘণ্টাখানেকের ঝড়ে উত্তর ক্যারোলিনা থেকে নিউইয়র্ক পর্যন্ত উপকূলীয় অঙ্গরাজ্যগুলোয় প্রায় ৩৪ লাখ মানুষ বিদ্যুৎবিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েন। ভেঙে পড়ে অসংখ্য গাছপালা।

ঘূর্ণিঝড় ইসাইয়াস স্থানীয় সময় মঙ্গলবার ভোরে ঘণ্টায় ১৪০ কিলোমিটার বেগে উত্তর ক্যারোলিনার উইলমিংটন ও দক্ষিণ ক্যারোলিনার মার্টল সৈকতে আঘাত হানে। ঝড়টি এদিন দুপুরে সর্বশেষ আঘাত হানে নিউইয়র্কে।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ন্যাশনাল হারিকেন সেন্টার জানাচ্ছে, সন্ধ্যায় ঘূর্ণিঝড়টির শক্তি কমে আসতে শুরু করে। মাত্র ৪০ মাইল বেগে ঝড়টি উত্তরমুখী হয়ে কানাডার দিকে বয়ে যায়।

প্রবল বৃষ্টিপাতের কারণে হাডসন নদীর অববাহিকায় বন্যা দেখা দিয়েছে। এতে ঘরবন্দি হয়ে পড়ে অনেক মানুষ। নিউজার্সি ট্রানজিটসহ কিছু স্থানে ফেরি ও রেল যোগাযোগও বন্ধ হয়ে পড়েছে। নিউজার্সির গভর্নর ঝড়ের তাণ্ডবের কারণে রাজ্যে জরুরি অবস্থা জারি করেন।

গত সপ্তাহে পুয়ের্তো রিকো, হাইতি ও ডমিনিকান রিপাবলিকে ঘূর্ণিঝড়ের শক্তি নিয়ে ইসাইয়াস আছড়ে পড়লে, অন্তত দু'জনের মৃত্যু হয়। অসংখ্য গাছ উপড়ে পড়ে। বিপুল পরিমাণ ফসলেরও ক্ষতি হয়।

ক্যারিবীয় দ্বীপপুঞ্জ অতিক্রম করার পর শক্তি কমে এটি একটি ক্রান্তীয় ঝড়ে পরিণত হয়েছিল। পরে ফের শক্তি সঞ্চয় করে, এক মাত্রার হারিকেনে পরিণত হয়।

আটলান্টিক ও প্রশান্ত মহাসাগরের উপকূলীয় অঞ্চলের তীব্র ঘূর্ণিঝড়কে হারিকেন নামে চিহ্নিত করা হয়। এই মহাসাগর দু'টিতে উৎপন্ন ঘূর্ণিঝড়ের গতিবেগ যখন ঘণ্টায় ১১৭ কিলোমিটারের বেশি হয়, তখন এই ঝড়কে হারিকেন নামে অভিহিত করা হয়।

ঢাকা টাইমস/০৬আগস্ট/একে

সংবাদটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :