সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসইতে বেড়েছে লেনদেন ও বাজার মূলধন

অর্থনৈতিক প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ৩০ জুলাই ২০২১, ১৮:৪৪

বিদায়ী সপ্তাহটিতে দেশের দুই পুঁজিবাজারে বেড়েছে বেশিরভাগ কোম্পানির শেয়ার ও ইউনিটের দর। একটি সূচক ছাড়া বেড়েছে সবগুলো সূচকও।তবে লেনদেনে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) এগিয়ে থাকলেও পিছিয়ে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই)। লেনদেনের সাথে সপ্তাহটিতে ডিএসইতে বাজার মূলধনও বেড়েছে নয় হাজার কোটি টাকা।

দেশের দুই পুঁজিবাজার সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

জানা গেছে, সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবস লেনদেন শুরুর আগে ডিএসইতে বাজার মূলধন ছিল ৫ লাখ ২৫ হাজার ২৭১ কোটি ৮২ লাখ ১৪ হাজার টাকায়। আর সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস লেনদেন শেষে বাজার মূলধন দাঁড়ায় ৫ লাখ ৩৪ হাজার ৪০৪ কোটি ৮০ লাখ ২৭ হাজার টাকায়। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে বিনিয়োগকারীরা ৯ হাজার ১৩২ কোটি ৯৮ লাখ ১৩ হাজার টাকা বাজার মূলধন ফিরেছে।

বিদায়ী সপ্তাহে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) ৭ হাজার ১২৮ কোটি ৬৭ লাখ ৫ হাজার ৬৬৫ টাকার লেনদেন হয়েছে। আর আগের সপ্তাহে লেনদেন হয়েছিল ৬ হাজার ৭০৬ কোটি ৪৮ লাখ ৭৩ হাজার ৯০৯ টাকার। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসইতে লেনদেন ৪২২ কোটি ১৮ লাখ ৩১ হাজার ৭৬৫ টাকা বা ৬.৩০ শতাংশ বেড়েছে।

সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ১১৭ পয়েন্ট বা ১.৮৭ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৬ হাজার ৪২৫ পয়েন্টে। অপর সূচকগুলোর মধ্যে শরিয়াহ সূচক ৪১ পয়েন্ট বা ৩.০৭ শতাংশ এবং ডিএসই-৩০ সূচক ৫২ পয়েন্ট বা ২.৩৩ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়ে যথাক্রমে ১ হাজার ৪০১ পয়েন্ট এবং ২ হাজার ৩২৭ পয়েন্টে।

বিদায়ী সপ্তাহে ডিএসইতে মোট ৩৮১টি প্রতিষ্ঠান শেয়ার ও ইউনিট লেনদেনে অংশ নিয়েছে। প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে দর বেড়েছে ১৯৯টির, কমেছে ১৬৭টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ১১টির শেয়ার ও ইউনিট দর।

অপরদিকে, চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) বিদায়ী সপ্তাহে টাকার পরিমাণে লেনদেন হয়েছে ২৫৯ কোটি ৭৪ লাখ ৬৪ হাজার ২০৫ টাকার। আর আগের সপ্তাহে লেনদেন হয়েছিল ২৮৬ কোটি ৩ লাখ ৭৩ হাজার ৯৪০ টাকার। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে সিএসইতে লেনদেন কিছুটা কমেছে। আর সপ্তাহটিতে সিএসইর মূলধন কমেছে ১২০ কোটি ৩২ লাখ ৩০ হাজার টাকা।

সপ্তাহটিতে সিএসইর সার্বিক সূচক সিএএসপিআই ৬৬ পয়েন্ট বা ০.৩৫ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৮ হাজার ৬৩৫ পয়েন্টে। সিএসইর অপর সূচকগুলোর মধ্যে সিএসসিএক্স ৫৭ পয়েন্ট বা ০.৩৮ শতাংশ, সিএসই-৫০ সূচক ৫ পয়েন্ট বা ০.৪১৩ শতাংশ এবং সিএসআই ১৮ পয়েন্ট বা ১.৫৮ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে যথাক্রমে ১১ হাজার ১৯০ পয়েন্ট, ১ হাজার ৩৫০ পয়েন্টে এবং সিএসআই ১ হাজর ১৭৭ পয়েন্টে। তবে সিএসই-৩০ সূচক ৯৭ পয়েন্ট বা ০.৭০ শতাংশ কমে দাঁড়িয়েছে ১৩ হাজার ৬৫৭ পয়েন্টে।

সপ্তাহজুড়ে সিএসইতে ৩৩৯টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট লেনদেনে অংশ নিয়েছে। প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে ১৪৬টির দর বেড়েছে, ১৬৬টির কমেছে এবং ২৭টির দর অপরিবর্তিত রয়েছে।

বিদায়ী সপ্তাহে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) দর বাড়ার শীর্ষে উঠে এসেছে বারাক পতেঙ্গা পাওয়ার লিমিটেড। সপ্তাহজুড়ে কোম্পানিটির শেয়ার দর বেড়েছে ৪০.১৩ শতাংশ। দর বৃদ্ধির শীর্ষে উঠে আাসা অন্য কোম্পানি গুলোর মধ্যে রয়েছে জিপিএইচ ইস্পাত লিমিটেড। বিকন ফার্মাসিটিক্যালস লিমিটেড।ল

এছাড়াও তালিকায় থাকা অন্য কোম্পানিগুলোর মধ্যে রয়েছে – ফু ওয়াং সিরামিকস, পিপলস ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি লিমিটেড, এএফসি এগ্রো, সালভো কেমিক্যালস, রহিমা ফুডস, ই-জেনারশেন এবং সেন্ট্রাল ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি লিমিটেড।

অন্যদিকে লেনদেনের শীর্ষে উঠে আ্সা কোম্পানি গুলোর মধ্যে রয়েছে সাইফ পারয়ারটেক লিমিটেড। কোম্পানিটি গেলো সপ্তাহে লেনদেন করেছে ২৫০ কোটি ৮৮ লাখ ৬৫ হাজার টাকা। এছাড়াও লেনদেনে শীর্ষ দশের মধ্যে উঠে এসেছে বেক্সিমকো লিমিটেড, জিপিএইচ ইস্পাত, ব্রিটিশ আমেরিকান টোবাকো বাংলাদেশ লিমিটেড, বারাকা পতেঙ্গা পাওয়ার, ফু ওয়াং সিরামিকস, একটিভ ফাইন, বাংলাদেশ ফাইন্যান্স, সেন্ট্রাল ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি এবং আইএফআইসি ব্যাংক লিমিটেড।

(ঢাকাটাইমস/৩০ জুলাই/এসআই)

সংবাদটি শেয়ার করুন

অর্থনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :