ব্লক মার্কেটে লেনদেনের শীর্ষে চার কোম্পানি

অর্থনৈতিক প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ০৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৬:৩৭ | প্রকাশিত : ০৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৬:৩৫

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) সপ্তাহের চতুর্থ দিন বুধবার ব্লক মার্কেটে ৫৬টি কোম্পানি লেনদেনে অংশ নিয়েছে। এসব কোম্পানির ৩৮ কোটি ৯৮ লাখ ২৫ হাজার টাকার লেনদেন হয়েছে।

ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

আজ ব্লক মার্কেটে চার কোম্পানির বড় লেনদেন হয়েছে। কোম্পানিগুলোর শেয়ার লেনদেন হয়েছে প্রায় ১৮ কোটি ৭৬ লাখ টাকার শেয়ার।

কোম্পানিগুলোর মধ্যে সবচেয়ে বেশি শেয়ার লেনদেন হয়েছে বিডি ফাইন্যান্সের। কোম্পানিটির শেয়ার লেনদেন হয়েছে ৭ কোটি ২৫ লাখ ৩৭ হাজার টাকার।

দ্বিতীয় সর্বোচ্চ লেনদেন হয়েছে বাংলাদেশ এডিএন টেলিকমের। কোম্পানিটির শেয়ার লেনদেন হয়েছে ৪ কোটি ১৭ লাখ ৬০ টাকার।

তৃতীয় সর্বোচ্চ লেনদেন হয়েছে শাহজিবাজার পাওয়ারের। কোম্পানিটির শেয়ার লেনদেন হয়েছে ৩ কোটি ৬৮ লাখ ৩ হাজার টাকার।

চতুর্থ সর্বোচ্চ লেনদেন হয়েছে ইসলামী ইন্সুরেন্সের। কোম্পানিটির শেয়ার লেনদেন হয়েছে ৩ কোটি ৬৫ লাখ টাকার।

এছাড়া, এইচআর টেক্সটাইলের ২ কোটি ৮৪ লাখ ৫৬ হাজার টাকার, পাওয়ার গ্রিডের ২ কোটি ৭ লাখ ৮৫ হাজার টাকার, বিকনফার্মার ১ কোটি ৬২ লাখ ৫০ হাজার টাকার, স্কয়ার ফার্মার ১ কোটি ৩৯ লাখ ৫৫ হাজার টাকার, লাফার্জ হোলসিমের ১ কোটি ২৪ লাখ ৫০ হাজার টাকার, বাংলাদেশ সাবমেরিন ক্যাবলের ১ কোটি ১ লাখ ৩২ হাজার টাকার, কেয়া কসমেটিকের ৭২ লাখ টাকার, ফার কেমিক্যালের ৭১ লাখ ৫৪ হাজার টাকার, অ্যাসোসিয়েট অক্সিজেনের ৬১ লাখ ৭৩ হাজার টাকার, বেক্সিমকো ফার্মার ৬০ লাখ ৭৭ হাজার টাকার, পদ্মা লাইফের ৫৩ লাখ ৪০ হাজার টাকার, মীর আআক্তারের৫০ লাখ ২০ হাজার টাকার,আক্তারের৫০ লাখ ২০ হাজার টাকার, প্যাসিফিক ডেনিমের ৪৮ লাখ ৫০ হাজার টাকার, বিডি কম্পিউটারের ৪২ লাখ ৯২ হাজার টাকার, সোনালী পেপারের ৪০ লাখ টাকার, ইসলামীক ফাইন্যান্সের ৩৭ লাখ ১ হাজার টাকার, জিবিবি পাওয়ারের ৩৫ লাখ টাকার, গ্রামীণফোনের ২৯ লাখ ২০ হাজার টাকার, ফর্চুন সুজের ২৯ লাখ ৫ হাজার টাকার, আলিফের ২৪ লাখ ৮ হাজার টাকার, ফাইন ফুডসের ২২ লাখ ৮৪ হাজার টাকার, বিডি থাইয়ের ২১ লাখ ২১ হাজার টাকার, বেক্সিমকোর ২০ লাখ ৮২ হাজার টাকার, জিপিএইচ ইস্পাতের ১৬ লাখ ৯৩ হাজার টাকার, প্রাইম ফাইন্যান্সের ১৬ লাখ ২০ হাজার টাকার, রিজেন্ট টেক্সটাইলের ১৬ লাখ ২৯ হাজার টাকার, খুলনা পাওয়ারের ১৫ লাখ ৮৪ হাজার টাকার, বাংলাদেশ ন্যাশনাল ইন্স্যুরেন্সের ১৫ লাখ টাকার, মুন্নু সিরামিকের ১৪ লাখ ৭৫ হাজার টাকার, এ্যাপেক্স ফুডের ১২ লাখ ৭২ হাজার টাকার, ইফাদ অটোর ১২ লাখ ৬ হাজার টাকার, ইস্টার্ন ইন্সুরেন্সের ১২ লাখ টাকার, পেনিনসুলার ১১ লাখ ৭৫ হাজার টাকার, ইস্টার্ন লুবরিকেন্টসের ১১ লাখ ৩ হাজার টাকার, পপুলার লাইফের ১০ লাখ ৬০ হাজার টাকার, এমএল ডাইংয়ের ১০ লাখ ৫৬ হাজার টাকার, বারাকা পতেঙ্গা পাওয়ারের ১০ লাখ ১০ হাজার টাকার, সাফকো স্পিনিংয়ের ৯ লাখ ৮৭ হাজার টাকার, লঙ্কাবাংলা ফাইন্যান্সের ৮ লাখ ৫৮ হাজার টাকার, সিভিও পেট্রোকেমিক্যালের ৮ লাখ ৫১ হাজার টাকার, ওয়ান ব্যাংকের ৭ লাখ ১০ হাজার টাকার, ব্রিটিশ আমেরিকান টোব্যাকোর ৬ লাখ ৫৪ হাজার টাকার, প্যারামাউন্ট টেক্সটাইলে ৬ লাখ টাকার, মালেক স্পিনিংয়ের ৫ লাখ ৯১ হাজার টাকার, কাশেম ইন্ডাস্ট্রিজের ৫ লাখ ৫৬ হাজার টাকার, ফু-ওয়াং সিরামিকের ৫ লাখ ৫২ হাজার টাকার, রানার অটোর ৫ লাখ ৫২ হাজার টাকার, সাইফ পাওয়ারের ৫ লাখ ৩৫ হাজার টাকার, এএমসিএল-প্রাণের ৫ লাখ ৩৪ হাজার টাকার, ফু-ওয়াং ফুডের ৫ লাখ ৬ হাজার টাকার, শাশা ডেনিমসের ৫ লাখ ৬ হাজার টাকার, তমিজ উদ্দিন টেক্সটাইলের ৫ লাখ ৪ হাজার টাকার লেনদেন হয়েছে।

ঢাকাটাইমস/৮সেপ্টেম্বর/এসকেএস

সংবাদটি শেয়ার করুন

অর্থনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :