এবার বেকারি পণ্যের দামে আগুন

পুলক রাজ, ঢাকা টাইমস
| আপডেট : ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৪:৪৪ | প্রকাশিত : ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৪:০৩

বাজারে দফায় দফায় চাল, চিনি,আটা,ময়দা,ভোজ্যতেলের মূল্যবৃদ্ধির কারণে এবার বাজারে দাম বেড়েছে বেকারি পণ্যের। ব্রেড,কেক ও বিস্কুটসহ বিভিন্ন বেকারির পণ্যের মূল্য ৫ থেকে ৪০ টাকা পর্যন্ত বেড়েছে।

ব্যবসায়ীদের কাছ থেকে জানা গেছে, ভোজ্যতেল, চিনি, ডিম, ময়দাসহ বিভিন্ন উপকরণের মূল্যবৃদ্ধির কারণে বেকারি পণ্যের দামও বেড়েছে বলে জানিয়েছেন ব্যবসায়ীরা।

মঙ্গলবার সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে,মগবাজার,পান্থপথ, কলাবাগান,ফার্মগেট,ইস্কাটন গার্ডেন, কাকরাইল, নয়া পল্টন, সেগুনবাগিচা, এলিফ্যান্ট রোড, রামপুরা, বাড্ডা, মহানগর প্রজেক্টসহ রাজধানীর বিভিন্ন বাজার ও পাড়া মহল্লার দোকানে প্যাকেটজাত ৭০ গ্রাম বাটার ফুল বিস্কুট ১৫ থেকে ৫ টাকা বেড়ে ২০ টাকা,৩৫ গ্রাম চকলেট বুম বিস্কুট ১৫ থেকে ৫ টাকা বেড়ে ২০ টাকা,৫০ গ্রাম পটাটা বিস্কুট ২০ থেকে ১৫ টাকা বেড়ে ৩৫ টাকা,১৪৫ গ্রাম চকলেট ডাইজেস্টিভ বিস্কুট ৩৫ থেকে ৫ টাকা বেড়ে ৪০ টাকা,৬০ গ্রাম ফিট বিস্কুট ১৫ থেকে ৫ টাকা বেড়ে ২০ টাকা,১২০ গ্রাম ডাইজেস্টিভ বিস্কুট ২০ থেকে ১০ টাকা বেড়ে ৩০ টাকা,৬৫ গ্রাম কোকলা বিস্কুট ১৫ থেকে ৫ টাকা বেড়ে ২০ টাকা,৮৫ গ্রাম গ্রান্ড চয়েস বিস্কুট ১৫ থেকে ৫ টাকা বেড়ে ২০ টাকা,৬৫ গ্রাম ফাস্ট চয়েস বিস্কুট ১৫ থেকে ৫ টাকা বেড়ে ২০ টাকা,২৪০ গ্রাম চকলেট কুকিজ বিস্কুট ৬৫ থেকে ৩৫ টাকা বেড়ে ১০০ টাকা, ৩০০ গ্রাম অভাল্টিন বিস্কুট ৬৫ থেকে ৫ টাকা বেড়ে ৭০ টাকা,২৭০ গ্রাম হরলিক্স কুকিজ বিস্কুট ৬৫ থেকে ৫ টাকা বেড়ে ৭০ টাকা, ২০৩ গ্রাম এনার্জি প্লাস বিস্কুট ৩৮ থেকে ১২ টাকা বেড়ে ৫০ টাকা,১২৫ গ্রাম সুগার ফ্রী বিস্কুট ৩০ থেকে ২০ টাকা বেড়ে ৫০ টাকা,২৭৫ গ্রাম সলটিন বিস্কুট ৬০ থেকে ১০ টাকা বেড়ে ৭০ টাকা,২৪০ গ্রাম মিল্ক মেরী বিস্কুট ৫০ থেকে ১০ টাকা বেড়ে ৬০ টাকা, ৫০০ গ্রাম কুইন ব্রেড এন্ড বিস্কুট ফ্যাক্টরীর বিস্কুট ৯০ থেকে ১৩০ টাকা,২০০ গ্রাম টিপ বিস্কুট ৫০ থেকে ১০ টাকা বেড়ে ৬০ টাকা,৯০০ গ্রাম টি-টাইম কুকিজ বিস্কুট ১৫০ থেকে ৪০ টাকা বেড়ে ১৯০ টাকা,৫০০ গ্রাম কুইন ড্রাই কেক ১২০ থেকে ৪০ টাকা বেড়ে ১৬০ টাকা,৫০০ গ্রাম ঘি টুস বিস্কুট ১৫০ থেকে ৩০ টাকা বেড়ে ১৮০ টাকা, ৪০০ গ্রাম ডেনিশ টুস বিস্কুট ৫০ থেকে ১০ টাকা বেড়ে ৬০ টাকা, ৪০০ গ্রাম প্রাণ টোস্ট ৫০ থেকে ১০ টাকা বেড়ে ৬০ টাকা, ৪৫০ গ্রাম কিষোয়ান টোস্ট ৬০ থেকে ১০ টাকা বেড়ে ৭০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

এছাড়াও,২০০ গ্রাম সুইস রোল কেক ১৩০ থেকে ২০ টাকা বেড়ে ১৫০ টাকা,৩০০ গ্রাম পাউন্ড কেক ১০০ থেকে ২০ টাকা বেড়ে ১২০ টাকা,৩০০ গ্রাম মারবেল কেক ১০০ থেকে ২০ টাকা বেড়ে ১২০ টাকা,৩০ গ্রাম কাপ কেক ১৫ থেকে ৫ টাকা বেড়ে ২০ টাকা,৯০ গ্রাম পাউন্ড কেক ৩০ থেকে ১০ টাকা বেড়ে ৩৫ টাকা,৫০ গ্রাম সেনডুইজ কেক ১৫ থেকে ৫ টাকা বেড়ে ২০ টাকা,২৪৫ গ্রাম প্লেইন কেক ১০০ থেকে ৩০ টাকা বেড়ে ১৩০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

অন্যদিকে, ৬০০ গ্রাম সুপার ব্রেড ৭০ থেকে ১৫ টাকা বেড়ে ৮৫ টাকা,৬০০ গ্রাম সেভেন ডেইজ ৭০ থেকে ২০ টাকা বেড়ে ৯০,৩০০ গ্রাম সুপার ব্রেড ৩৫ থেকে ১০ টাকা বেড়ে ৪৫ টাকা,৩০০ গ্রাম সেভেন ডেইজ ৩৫ থেকে ১০ টাকা বেড়ে ৪৫ টাকা,৪০০ গ্রাম ব্রেড অলম্পিক ৪০ থেকে ২০ টাকা বেড়ে ৬০ টাকা,৩০০ গ্রাম ব্রেড অলম্পিক ৩০ থেকে ১০ টাকা বেড়ে ৪০ টাকা,১৫০ গ্রাম ব্রেড ইজি ২০ থেকে ৫ টাকা বেড়ে ২৫ টাকা,২০০ গ্রাম আকিজ ব্রেড ২০ থেকে ৫ টাকা বেড়ে ২৫ টাকা, বাটর বন ১০ থেকে ৫ টাকা বেড়ে ১৫ টাকা,সিঙ্গেল বন ১০ থেকে ৫ টাকা বেড়ে ১৫ টাকা,জোড়া বন ১০ থেকে ৫ টাকা বেড়ে ১৫ টাকা,চার পিসের বন ২৫ থেকে ১০ টাকা বেড়ে ৩৫ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

রাজধানীর দিলু রোড, মগবাজার এলাকার মেহেদী জেনারেল স্টোরের মালিক হৃদয় হোসেন ঢাকা টাইমসকে বলেন,বেকারী পণ্যের অতিরিক্ত দাম বেড়েছে। আমরা ব্যবসা করতেও হিমশিম খাচ্ছি। আমাদেরও তো ঘর-বাড়ি আছে মা-বাবার সংসার চালাতে হয় এই দোকান দিয়ে।

রাধানীর পান্থপথ এলাকার শফিক স্টোরের মালিক শাহেদ হোসেন ঢাকা টাইমসকে বলেন, সব ধরণের বিস্কুট, ব্রেড ও কেকের মূল্য বেড়েছে ৫ টাকা থেকে ৪০ টাকা পর্যন্ত। আমার দোকানে ক্রেতা কমে গেছে। আগের চেয়ে আনেক কম বিক্রি হচ্ছে।

রাধানীর কাঠালবাগান এলাকার ক্রেতা জামিল আহমেদ ঢাকা টাইমসকে বলেন,আসলে সব কিছুর মূল্যবৃদ্ধি। চিন্তায় তো ঘুম আসে না। আমি মনে করি খুব খারাপ অবস্থায় আছে সাধারণ মানুষ।চাল,সবজি, মাছ, তেলসহ সব ধরণের পণ্যের দাম বাড়ায় বেকারী পণ্যের প্রতি নজর একটু কম যাচ্ছে। ভাত খাবো না বিস্কুট খাবো!

জাতীয় ভোক্তা-অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (ডিজি) এইচ এম সফিকুজ্জামান ঢাকা টাইমসকে বলেনে, আমাদের টিম বন্ধের দিনও অভিযান চালিয়ে যাচ্ছে।আমরা ধারাবাহিকভাবে অভিযান চালিয়ে যাচ্ছি। প্রতিদিনের অভিযানে জরিমানা করা হচ্ছে। এবং আগামীতেও আমাদের কার্যক্রম চলতে থাকবে।

(ঢাকাটাইমস/২৭সেপ্টেম্বর/পিআর/এআর)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বিশেষ প্রতিবেদন বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :