জাপোরঝিয়া এবং খেরসনের স্বাধীনতাকে স্বীকৃতি দিয়ে পুতিনের ডিক্রি জারি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৭:০৯ | প্রকাশিত : ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৬:০২

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বৃহস্পতিবার প্রাক্তন ইউক্রেনীয় অঞ্চল খেরসন এবং জাপোরঝিয়াকে স্বাধীন সার্বভৌম রাষ্ট্র হিসাবে স্বীকৃতি দিয়ে দুটি ডিক্রিতে স্বাক্ষর করেছেন। ডিক্রি শিগগিরই কার্যকর হবে বলে জানিয়েছে রুশ সংবাদ সংস্থা আরটি।

২৯ সেপ্টেম্বর স্বাক্ষরিত দুই ডিক্রিতে খেরসন ও জাপোরঝিয়া অঞ্চলের নাম উল্লেখ করে বলা হয়, ‘স্বাক্ষরের দিন থেকে স্বাধীন সার্বভৌম রাষ্ট্র হিসেবে তাদের স্বীকৃতি কার্যকর হবে।’

এসব নথিতে পুতিন আন্তর্জাতিক আইনের সার্বজনীনভাবে স্বীকৃত নিয়ম-নীতি এবং জাতিসংঘের সনদে অন্তর্ভুক্ত জনগণের সমান অধিকার এবং স্ব-নিয়ন্ত্রণের বিষয় উল্লেখ করেছেন।

এই দুই অঞ্চলের স্বাধীনতার স্বীকৃতি দানের পর ইউক্রেনের আরও দুই অঞ্চলের (লুহানস্ক এবং দোনেৎস্ক যাদেরকে একত্রে দনবাস বলা হয়) স্বাধীনতার স্বীকৃতি দেওয়ার জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছেন পুতিন। তিনি অঞ্চল দুটিকে রাশিয়ার অন্তর্ভুক্ত করার চুক্তিতে স্বাক্ষর করবেন বলে ধারণা করা হচ্ছে।

২৩ এবং ২৭ সেপ্টেম্বর অঞ্চলগুলোর রাশিয়ায় যোগদানের বিষয়ে গণভোট অনুষ্ঠিত হয়েছিল। খেরসন অঞ্চলে, ৮৭.০৫ শতাংশ স্বাধীনতা ঘোষণা এবং রাশিয়ান ফেডারেশনে যোগদানের পক্ষে ভোট দিয়েছে। জাপোরঝিয়া অঞ্চলের ৯৩.২৩ শতাংশ ইউক্রেন থেকে বিভক্ত হয়ে রাশিয়ায় যোগদানের ধারণাকে সমর্থন করেছিল। আর দোনেৎস্কের ৯৯.২৩ শতাংশ এবং লুহানস্কের ৯৮.৪২ শতাংশ মানুষ রাশিয়ার সঙ্গে যুক্ত হওয়ার পক্ষে ভোট দিয়েছে।

পুতিন রাশিয়ায় নতুন অঞ্চলগুলির যোগদানের চুক্তিতে স্বাক্ষর করার পরে, নথিগুলি রাশিয়ার সাংবিধানিক আদালতে জমা দেওয়া হবে। এর পরে রাশিয়ান সংসদের নিম্নকক্ষ স্টেট ডুমা চুক্তিগুলি অনুমোদন করবে। তারপরে একই পদ্ধতির জন্য ফেডারেল কাউন্সিলের উচ্চকক্ষে পাঠানো হবে।

দনবাস প্রজাতন্ত্র, খেরসন এবং জাপোরঝিয়া ততক্ষণ পর্যন্ত রাশিয়ার অংশ হতে পারবে না যতক্ষণ না আইন প্রণেতারা তাদের অন্তর্ভুক্তির বিষয়ে আইন পাস করেন। এর পরেই পুতিনকে স্বাক্ষর করতে হবে।

(ঢাকাটাইমস/৩০সেপ্টেম্বর/এসএটি)

সংবাদটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

আন্তর্জাতিক এর সর্বশেষ

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :