মায়ার জালে জাহাঙ্গীর!

জাফর আহমেদ, ঢাকা টাইমস
| আপডেট : ২৪ মে ২০২৩, ২১:২২ | প্রকাশিত : ২৪ মে ২০২৩, ২০:৫৩

দলীয় মনোনয়ন চেয়ে বিফল এবং পরে বিদ্রোহী হিসেবে আওয়ামী লীগ থেকে আজীবন বহিষ্কার গাজীপুরের সাবেক মেয়র মো. জাহাঙ্গীর আলম কি তবে ‘মায়ার জালে’ আটকা পড়লেন?

দল থেকে বহিষ্কার হলেও গাজীপুরে জাহাঙ্গীরের অনুগত নেতাকর্মী অনেক। আর এখানেই নৌকার মেয়র প্রার্থী আজমত উল্লা খানের বিপাক। কারণ, তাদের ভোট জাহাঙ্গীরের মায়ের প্রতীকে পড়বে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

ফলে ঢাকার পাশে গুরুত্বপূর্ণ নগরীটিতে ইমেজ রক্ষায় আঁটঘাট বেঁধেই নেমেছে আওয়ামী লীগ। দলের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বীরবিক্রম এই নির্বাচন পরিচালনার কমিটির প্রধান সমন্বয়ক।

হেভিওয়েট এই নেতা দলীয় প্রার্থীকে বিজয়ী করে আনতে নানা ছক আর কৌশলে কাজ করে যাচ্ছেন। দলীয় প্রতীক বরাদ্দ দেওয়ার পর থেকেই দলীয় প্রার্থী আজমত উল্লাকে বিজয়ী করতে নেতাকর্মীদের সঙ্গে নিয়ে দিনরাত কাজ যাচ্ছেন।

এদিকে তার নিজের প্রার্থিতা না টিকলেও ঢাকার পাশে গুরুত্বপূর্ণ নগরীটির মেয়র পদে লড়ছেন জাহাঙ্গীরের মা জায়েদা খাতুন। রাখঢাক না রেখেই আগের দফায় গাজীপুরের নির্বাচিত মেয়র লড়ে যাচ্ছেন মায়ের পক্ষে।

জাহাঙ্গীরের এই লড়াই কতটা ফল আনবে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় জানা যাবে। তবে একদা তার অনুগত নেতাকর্মীরাই ‘মায়ার জাল’ ভেদ করে জাহাঙ্গীরের বের হয়ে আসা নিয়ে সংশয়ে রয়েছেন।

কারণ হিসেবে তারা বলছেন, মায়া গাজীপুরে নৌকার প্রার্থীকে বিজয়ী করতে মাঠে নামার পর নির্বাচনের পরিবেশ আজমত উল্লার পক্ষে মোড় নিয়েছে। একসময় জাহাঙ্গীরের পক্ষে থাকা নেতাকর্মীরাও আওয়ামী লীগের নিদের্শনা মেনে এখন নৌকার প্রার্থীর পক্ষে কাজ করে যাচ্ছেন।

গাজীপুরে জাহাঙ্গীর আলমের পিছনে হাজার হাজার নেতাকর্মী-সমর্থক থাকলেও এখন মায়ার নির্বাচনী কৌশলের কাছে অনেকটাই হাবুডুবু খাচ্ছেন এই নির্বাচন থেকে ছিটকে পড়া সাবেক এই মেয়র। আর এমন প্রেক্ষাপটকে জাহাঙ্গীর ‘মায়ার জালে’ বলে মন্তব্য নেতাকর্মীদের।

এদিকে মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়ার সঙ্গে সমানে কাজ করে যাচ্ছেন আওয়ামী লীগের এক ঝাঁক কেন্দ্রীয় নেতা। তারা নানা ছক আর কৌশলে কাজ করে যাচ্ছেন গুরুত্বপূর্ণ এই নির্বাচনে।

মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বলেছেন, গাজীপুরে দলীয় প্রার্থীর বিরুদ্ধে মাঠে থাকা জাহাঙ্গীর আলমকে নিয়ে আওয়ামী লীগ ভাবছে না এবং মাথাও ঘামাচ্ছে না। তবে জাতীয় নির্বাচনের আগে গাজীপুর সিটি নির্বাচন অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। নির্বাচন সুষ্ঠু অবাধ হওয়ার জন্য সবার ঐক্যবদ্ধ ভাবে কাজ করতে হবে।

মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়ার নেতৃত্বে এই টিমে সমন্বয়ের কাজ করছেন দলের সাংগঠনিক সম্পাদক মির্জা আজম। উপদেষ্টা হিসেবে আছেন গাজীপুর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক। বাকি সদস্যরা হলেন দলের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য লে. কর্নেল (অব.) মুহাম্মদ ফারুক খান, অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম, ডা. মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন, সিমিন হোসেন রিমি, সাংগঠনিক সম্পাদক এস এম কামাল হোসেন, আইন সম্পাদক অ্যাডভোকেট নজিবুল্লাহ হিরু, দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আবদুস সোবহান গোলাপ, মহিলা বিষয়ক সম্পাদক জাহানারা বেগম, মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক সম্পাদক মৃণাল কান্তি দাস, বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন, শিক্ষা ও মানবসম্পদ বিষয়ক সম্পাদক বেগম শামসুন নাহার, শিল্প ও বাণিজ্য বিষয়ক সম্পাদক মো. সিদ্দিকুর রহমান, সংস্কৃতি বিষয়ক সম্পাদক অসীম কুমার উকিল।

এদিকে গাজীপুরের স্থানীয় প্রবীণ নেতাকর্মীদের ভাষ্য, আওয়ামী লীগের হাত ধরে জাহাঙ্গীর আলমের উত্থান হলেও তিনি দলের আদর্শে তেমন একটা বিশ্বাসী ছিলেন না। বরাবরই তার সঙ্গে ভেতরে ভেতরে বিএনপি-জামায়াতের সখ্য ছিল।

২০২১ সালের সেপ্টেম্বরে বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধের শহীদদের নিয়ে জাহাঙ্গীরের ‘আপত্তিকর’ মন্তব্য ভাইরাল হলে সমালোচনার ঝড় ওঠে। কেড়ে নেওয়া হয় তার দলের সদস্যপদ। মেয়র পদ থেকেও বরখাস্ত হন কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক এই নেতা।

তবে ক্ষমা চেয়ে শৃঙ্খলা মেনে চলার শর্তে গত ১ জানুয়ারি তাকে ক্ষমার চিঠি দেয় আওয়ামী লীগ। এর চার মাস না পেরোতেই দলীয় সিদ্ধান্ত না মেনে গাজীপুর সিটি নির্বাচনে প্রার্থী হন জাহাঙ্গীর। এর জের ধরে তাকে স্থায়ীভাবে বহিষ্কার করে আওয়ামী লীগ।

এদিকে নিজের পাশাপাশি মা জায়েদা খাতুনকেও দাঁড় করান মেয়র পদে। ঋণ খেলাপির কারণে জাহাঙ্গীরের মনোনয়নপত্র বাতিল হয়। টিকে যায় মায়েরটি। প্রতীক পাওয়ার পর থেকে মায়ের পক্ষেই প্রচার-গণসংযোগ চালান সাবেক এই মেয়র।

জাহাঙ্গীর বলেছেন, মা ভোটে জিতলে তার মেয়রের অভিজ্ঞতা কাজে লাগিয়ে মাকে সহযোগিতা করবেন। নগরবাসীকে সঙ্গে নিয়ে মাকে যত রকমের সহযোগিতা করা যায়, তাই তিনি করবেন।

(ঢাকাটাইমস/২৪মে/জেএ/ডিএম)

সংবাদটি শেয়ার করুন

রাজনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

রাজনীতি এর সর্বশেষ

সংগ্রামের মাধ্যমেই গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার করতে হবে: সালাম

এত বড় লুণ্ঠনকারী বেহায়া সরকার দেশের ইতিহাসে এর আগে আসেনি: দুদু

ঢাকা মহানগরসহ বিএনপির গুরুত্বপূর্ণ ইউনিট ভেঙে দেওয়ায় নেতাকর্মীদের বিস্ময় 

আওয়ামী সরকার দেশকে দেউলিয়া করতে বেপরোয়া

ছাত্রদলের ঢাকা মহানগর উত্তর-দক্ষিণ-পূর্ব-পশ্চিমের কমিটি বিলুপ্ত 

ঢাকা মহানগর উত্তর-দক্ষিণ বিএনপি এবং যুবদলের কেন্দ্রীয় কমিটি বিলুপ্ত

সরকারের দুঃশাসনে জনগণের ঈদ আনন্দ আজ ম্লান: সালাম

জনগণের কাছে সরকারের ন্যূনতম মূল্য নেই: আমিনুল হক

মহিলা দলের নেতাকর্মীদের ঈদ উপহার দিলেন বিএনপি নেতা বকুল

হরিজনদের উচ্ছেদ করে ভাগ বাটোয়ারা করলে তা হবে ডাকাতি: জিএম কাদের

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :