অভিযুক্ত জামিনে, ধর্ষিতা শিশুর মৃত্যু

নিজস্ব প্রতিবেদক, টাঙ্গাইল
 | প্রকাশিত : ১৭ জুন ২০১৯, ২২:৪১

ধর্ষণের এক বছর পর চিকিৎসাধীন অবস্থায় আট বছর বয়সী এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে। শিশুটি টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলার বাসিন্দা।

সোমবার ভোরে শিশুটি ঢাকায় তার এক আত্মীয়ের বাসায় মারা যায়। গত বছরের ৯ জুন শিশুটিকে ধর্ষণ করে কালিহাতী উপজেলার মালতী গ্রামের মাহবুব নামে এক যুবক।

শিশুটির পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, গত বছরের ৯ জুন অভিযুক্ত মাহবুব বিভিন্ন প্রলোভন দেখিয়ে শিশুটিকে ধর্ষণ করে। এতে রক্তক্ষরণ হয়ে গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। এরপর থেকেই ওই শিশুটি চিকিৎসাধীন ছিল। মাঝেমধ্যে কিছুটা ভালো হলে ওই শিশুকে তার বাড়ি ও ঢাকায় এক আত্মীয়ের বাসায় রাখা হতো। অবস্থার অবনতি হলে আবার হাসপাতালে ভর্তি করা হতো তাকে। এভাবেই চলছিল শিশুর চিকিৎসা।

এ ঘটনায় ওই সময় শিশুটির বাবা আশরাফ আলী বাদী হয়ে মাহবুবকে আসামি করে ধর্ষণ মামলা করেন। পরে পুলিশ ধর্ষক মাহবুবকে গ্রেপ্তার করে আদালতে পাঠায়। কিছুদিন পর আসামি জামিনে বের হয়ে আসে। শিশুটির মৃত্যুর পর গা ঢাকা দিয়েছে অভিযুক্ত মাহবুব।

টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালের ওয়ানস্টপ ক্রাইসিস সেন্টারের প্রোগ্রাম অফিসার (পিও)বাইজিদ বলেন, ‘ওই সময় ধর্ষণের ফলে শিশুটির ব্যাপক রক্তক্ষরণ হয়। এতে গোপন অঙ্গ ছিঁড়ে মলদ্বারের সাথে এক হয়ে যায়। এতে আটটি সেলাই করা হয়। এরপরে তার শারীরিক অবস্থার অবনিত হলে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। এতদিন ধরে সে চিকিৎসাধীন ছিল।’

কালিহাতী থানার ওসি মীর মোশারফ হোসেন বলেন, ‘ওই সময় ধর্ষণের ঘটনায় মামলা হলে অভিযুক্ত ধর্ষক মাহবুবকে গ্রেপ্তার করে আদালাতে পাঠানো হয়। পরে পুলিশের পক্ষ থেকে আদালতে চূড়ান্ত প্রতিবেদন দেয়া হয়। বর্তমানে মামলাটি বিচারাধীন রয়েছে।’

(ঢাকাটাইমস/১৭জুন/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :