ফ্লয়েড হত্যা মামলায় দোষী সাব্যস্ত পুলিশ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
 | প্রকাশিত : ২১ এপ্রিল ২০২১, ০৮:৫৩

কৃষ্ণাঙ্গ যুবক জর্জ ফ্লয়েড হত্যায় দোষীয় সাব্যস্ত হয়েছেন পুলিশ সদস্য ডেকের চাওভিন। মঙ্গলবার তাকে দোষী সাব্যস্ত করে আদালত। এরপরই মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন বলেছেন, কোনো কিছুই জর্জ ফ্লয়েডকে ফিরিয়ে আনতে পারবে না। কিন্তু কোনো বড় পদক্ষেপ আমেরিকাকে বিচারের পথে এক পা এগিয়ে নিয়ে যাবে।

বাইডেন বলেন, 'আজ মিনেসোটার জুরি জর্জ ফ্লয়েডের হত্যা মিনেসোটার প্রাক্তন পুলিশ কর্মী ডেরেক চাওভিনকে দোষী সাব্যস্ত করেছে। রায় দান এখনও বাকি। জর্জ ফ্লয়েডকে কোনো কিছুই ফিরিয়ে আনতে পারবে না। কিন্তু আমেরিকার বিচার ব্যবস্থায় এটি একটি বড় পদক্ষপ হতে পারে। কেউ আইনের ঊর্ধ্বে নয়। এদিনের রায় সেই বার্তাই পৌঁছে দিল। কিন্তু এটা যথেষ্ট নয়। আমরা এখানেই থামতে পারি না। সত্যিকারের পরিবর্তন ও সংশোধন দরকার। এই জাতীয় ট্র্যাজেডি যাতে আর না হয় তার জন্য আমাদের আরও অনেক কিছু করতে হবে। ঘটনার এক বছরও হয়নি। এর মধ্যে এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হল। আমি ফ্লয়েডের পরিবারকে আশ্বাস দিচ্ছি জর্জ ফ্লয়েডের ন্য়ায় বিচার নিয়ে আমরা লড়াই করব।'

মার্কিন প্রেসিডেন্ট বলেছেন, ''ফ্লয়েডের শেষ উক্তি ছিল- 'আমি নিঃশ্বাস নিতে পারছি না'। আমরা তাদের তার সঙ্গে মরতে দিতে পারি না। আমাদের তাদের কথা শুনতে হবে। আমাদের ঘুরে যাওয়া উচিত নয়। আমরা ঘুরবও না। এটি পরিবর্তনের উল্লেখযোগ্য মুহূর্ত। হিংসা নয়, আসুন শান্তি কামনা করি। যারা এর অনুভূতিকে নষ্ট করার চেষ্টা করছে আমরা তাদের সফল হতে দেব না। এই সময়টা আমাদের আমেরিকানদের একতাবদ্ধ হওয়ার সময়।'

ফ্লয়েডের পরিবারের সঙ্গে এদিন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন এবং ভাইস প্রেসিডেন্ট কমলা হ্যারিস কথা বলেন।

গত বছর ২৫ মে জর্জ ফ্লয়েডকে গ্রেপ্তার করতে গিয়ে নির্যাতন করেন শ্বেতাঙ্গ পুলিশ অফিসার ডেরেক চাওভিন, হাঁটু দিয়ে চেপে ধরেন ফ্লয়েডের গলা। এতে শ্বাস নিতে তার কষ্ট হচ্ছে বলে ওই সময় মৃত্যুর আগে বারবার পুলিশের কাছে আবেদন করেছিল ফ্লয়েড। কিন্তু পুলিশ তখন তার আর্তনাদে কর্ণপাত করেনি। মৃত্য হয় ফ্লয়েডের। তার মৃত্যুতে আমেরিকাসহ বিক্ষোভ ওঠে গোটা বিশ্বে।

ঢাকাটাইমস/২১এপ্রিল/একে

সংবাদটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :