কেরানীগঞ্জে বিএনপি-আ.লীগের সংঘর্ষ, নিপুণ রায়সহ অর্ধশত আহত

কেরানীগঞ্জ (ঢাকা) প্রতিনিধি
| আপডেট : ২৬ মে ২০২৩, ১৫:০৮ | প্রকাশিত : ২৬ মে ২০২৩, ১৪:৫৫
আহত একজনকে নিয়ে যাচ্ছেন নেতাকর্মীরা

রাজধানীর উপকণ্ঠ কেরানীগঞ্জের জিনজিরায় ঢাকা জেলা বিএনপির সমাবেশকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগের সঙ্গে সংঘর্ষ হয়েছে।

আজ শুক্রবার বেলা পৌনে ১১টার দিকে জিনজিরা বাস রোডে এ ঘটনায় দুই দলের অন্তত ৫০ জন আহত হয়েছেন বলে জানা গেছে। আহতদের মধ্যে বিএনপির কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য ও ঢাকা জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক নিপুন রায় চৌধুরী রয়েছেন। তাকে চিকিৎসার জন্য ঢাকায় নেওয়া হয়েছে। অন্য আহতরা স্থানীয় বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছেন।

শুক্রবার সকালে বিএনপির নেত্রী নিপুণ রায় চৌধুরীর নেতৃত্বে মিছিল নিয়ে দলীয় কার্যালয়ে আসার পথে আওয়ামী লীগের কার্যালয় থেকে মিছিলে হামলা করা হয় বলে অভিযোগ করেছেন দলটির নেতারা।

আরও পড়ুন>> নরসিংদীতে ছাত্রদলের সংঘর্ষ: মারা গেলেন গুলিবিদ্ধ আশরাফুলও

আরও পড়ুন>> যুক্তরাষ্ট্রের নতুন ভিসা নীতি বাংলাদেশের জনগণের অবাধ নির্বাচনের দাবিরই প্রতিধ্বনি: মির্জা ফখরুল

আওয়ামী লীগের অভিযোগ, নিপুণ রায় পরিকল্পিতভাবে হামলার উদ্দেশ্য আওয়ামী লীগের দলীয় কার্যালয়ে অফিসে হামলা চালিয়েছেন। অফিস রক্ষা করতে অফিসে থাকা আওয়ামী লীগ ছাত্রলীগের নেতারা প্রতিহত করেন। এসময় জিনজিরার প্রবীণ আওয়ামী লীগ নেতা আজহার বাঙ্গালী, কোন্ডা ইউনিয়ন ছাত্রলীগ সভাপতি আল আমিন মাহমুদসহ ৫-৭ আহত হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন দলটির নেতারা।

বিএনপির চলমান কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে আজ শুক্রবার সকাল ১০টায় ঢাকা জেলা বিএনপির উদ্যোগে জিনজিরায় দলটির কার্যালয়ের সামনে সমাবেশ শুরু হয়। জেলা বিএনপির সভাপতি খন্দকার আবু আশফাক এতে সভাপতিত্ব করেন। এ সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী।

হামলার ঘটনায় কেরানীগঞ্জ মডেল থানা আওয়ামী লীগের সদস্য সাকুর হোসেন সাকু অভিযোগ করে বলেন, ‘বিএনপির নেত্রী নিপুণ রায়ের নেতৃত্ব নেতাকর্মীরা আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে হামলার উদ্দেশ্য ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে। আমাদের কয়েকজন নেতাকর্মী ছিলেন, তারা প্রতিহত করে। এসময় আওয়ামী লীগের কয়েকজন নেতা আহত হন। পরে পুলিশ এসে সবাইকে ছত্রভঙ্গ করে দেয়।’

তিনি আরো বলেন, ‘এ হামলা নিপুন রায়ের পরিকল্পিত হামলা। আমরা এর জবাব রাজপথে দিব।’

পুলিশের সামনে ভাঙচুরের বিষয় জানতে চাইলে পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার( ক্রাইম এন্ড অফস) আমিনুল ইসলাম বলেন, বিএনপির মধ্যে অতিউৎসাহীরা এ ঘটনা ঘটিয়েছে। আমরা তাদের ছত্রভঙ্গ করেছি। পরে পরিবেশ শান্ত হয়।’

তবে সমাবেশকে ঘিরে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী এলাকাজুড়ে সতর্ক অবস্থানে ছিল বলে জানান তিনি।

(ঢাকাটাইমস/২৬মে/এফএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

রাজনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

রাজনীতি এর সর্বশেষ

তারেক রহমানের আগে আপনার বিচার হয়ে যায় কি না প্রস্তুত থাকেন, প্রধানমন্ত্রীকে রিজভী 

ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা দেখতে যাবেন প্রধানমন্ত্রী: ওবায়দুল কাদের 

সমাজ পরিবর্তনে যোগ্য নেতৃত্ব তৈরির বিকল্প নেই: মাওলানা রফিক

সাদা চামড়ার লোকটি কে আমরা তা জানতে চাই: মান্না

এই সরকার ক্ষমতায় থাকলে বিএনপির অস্তিত্ব রাখবে না: মির্জা আব্বাস

সরকার ও মালিকদের চাপে দেশে স্বাধীন সাংবাদিকতা নেই: রিজভী

বিএনপি নেতা দুলু হাসপাতালে ভর্তি

ঘূর্ণিঝড় রেমাল মোকাবিলায় ছাত্রদলের ৬ নির্দেশনা

জনগণ গভীর শঙ্কা-ভয় ও শিহরণের মধ্যে বাস করছে: মির্জা ফখরুল

উপজেলা নির্বাচনে অংশগ্রহণ: বিএনপি থেকে ২১৭ নেতা বহিষ্কার

এই বিভাগের সব খবর

শিরোনাম :