ময়মনসিংহে গান গাইলেন মিতালী মুখার্জী

ব্যুরো প্রধান, ময়মনসিংহ
| আপডেট : ১২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৪:০০ | প্রকাশিত : ১২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৩:৩৩

ময়মনসিংহে পুলিশ সুপারের আমন্ত্রণে ঘরোয়া পরিবেশে গান গাইলেন ভারত-বাংলার কিংবদন্তি কণ্ঠশিল্পী মিতালী মুখার্জী। সোমবার রাতে পুলিশ সুপারের বাসভবনে তিনি গান পরিবেশন করেন।

মুঠোফোনে ঢাকা টাইমসকে মিতালী মুখার্জী বলেন, ‘আমার বড় ভাই দীলিপ দা’র সঙ্গে ময়মনসিংহে ঘুরতে আসতে পারব, এটা আমি কল্পনাও করতে পারিনি। ঈশ্বরের অনেক কৃপা ছিল বলেই এটা সম্ভব হয়েছে। দীঘির্দন পর ময়মনসিংহে এসে কী যে ভালো লাগছে, তা সত্যিই একবাক্যে বোঝানো সম্ভব নয়।

ফেলে আসা দিনগুলোর কথা খুব মনে পড়ছে। তাই বিদ্যাময়ী স্কুল, মুমিনুন্নেসা কলেজসহ আরও অনেক জায়গায় ঘুরে বেড়াচ্ছি। দাদার ছোটবেলার বন্ধু দুলাল শর্মাও আমাদের সঙ্গ দিচ্ছেন। আমি জানি না, কতটা দিন এখানে থাকব। আমি প্রতি মুহূর্তেই ভীষণ আবেগাপ্লুতত হয়ে পড়ছি।’

অনুষ্ঠানে ছিলেন- ময়মনসিংহ রেঞ্জ পুলিশের রেঞ্জের ডিআইজি নিবাস চন্দ্র মাঝি, অতিরিক্ত ডিআইজি ড. আক্কাছ উদ্দিন ভূঁইয়া, ময়মনসিংহ জেলা পুলিশ সুপার শাহ আবিদ হোসেন প্রমুখ।

মিতালী মুখার্জী একজন বাংলাদেশি শাস্ত্রীয় সঙ্গীতশিল্পী। তিনি ১৯৮২ সালে ‘দুই পয়সার আলতা’ চলচ্চিত্রে ‘এই দুনিয়া এখন তো আর সেই দুনিয়া নাই...’ গানে সঙ্গীত পরিবেশনার জন্য বাংলাদেশের জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পান। তার বাবা অমূল্য কুমার মুখার্জী ও মা কল্যাণী মুখোপাধ্যায়ের ঘরে ময়মনসিংহ জেলায় জন্মগ্রহণ করেন তিনি। পিটার মিঠুন দে’র তত্ত্বাবধানে উচ্চাঙ্গ সঙ্গীতে আনুষ্ঠানিক প্রশিক্ষণ শুরু করেন তিনি। বরোদার মহারাজা সায়াজিরাও বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গীতে শিক্ষাগ্রহণ করেন মিতালী মুখার্জী। তিনি পাঞ্জাবি, গুজরাটি, তামিলসহ বিভিন্ন ভাষায় গান গেয়েছেন। বর্তমানে তিনি বোম্বাইতে বাস করছেন।

সর্বশেষ ১৯৯১ সালে মিতালী মুখার্জী ময়মনসিংহ এসেছিলেন। মিতালীর বাবা অমূল্য মুখার্জী ১৯৭৭ সালে ডিআইজি হিসেবে অবসর গ্রহণ করেন। ১৯৯৫ সালে তার বাবা ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে মারা যান।

(ঢাকাটাইমস/১২ফেব্রুয়ারি/এলএ)

 

সংবাদটি শেয়ার করুন

বিনোদন বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :