‘বঙ্গবন্ধু’ হওয়ার পেছনে বঙ্গমাতার বড় অবদান: মুর্শেদী

ক্রীড়া প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ১২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ২১:১৩ | প্রকাশিত : ১২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ২১:১২

জাতির জনক শেখ মুজিবর রহমানের ‘বঙ্গবন্ধু’ হওয়ার পেছনে বঙ্গমাতা ফজিলাতুন্নেছার বড় অবদান ছিল বলে মনে করেন সাবেক তারকা ফুটবলার, বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশেনর সিনিয়র সহ-সভাপতি আবদুস সালাম মুর্শেদী এমপি।

তিনি বলেন,‘ বঙ্গবন্ধুর স্ত্রী বেগম ফজিলাতুন্নেছা একজন মহীয়সী নারী ছিলেন। বঙ্গবন্ধুর উৎসাহদাতা ছিলেন। ‘বঙ্গবন্ধু’ হওয়ার পেছনে এই মহিয়সী নারীর অনেক বড় অবদান ছিল। আমরা বঙ্গবন্ধুর নামে নিয়মিত আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্ট অত্যন্ত সফলভাবে আয়োজন করে যাচ্ছি। তবে বঙ্গমাতার নামে এই প্রথম আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্ট হতে যাচ্ছে। এটা খুবই গর্বের বিষয়।’

দেশের ঘরোয়া ফুটবলে এক বছরে সর্বোচ্চ ২৭ গোলের রেকর্ড গড়া এ কৃতি স্ট্রাইকার ফুটবলের প্রতি বঙ্গবন্ধু পরিবারের গভীর অনুরাগের বিষয়টি তুলে ধরেন। সালাম মুর্শেদী বলেন,‘ বঙ্গবন্ধু ফুটবলার ছিলেন। ভালো ফুটবল খেলতেন। তিনি নিজে ফুটবল ক্লাব চালাতেন। তার বাবা এবং এমনকি তার দাদারও ফুটবল ক্লাব ছিল। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও ফুটবল প্রেমী। বঙ্গবন্ধু পরিবারের প্রতিটা সদস্যের ফুটবলের প্রতি অগাধ ভালোবাসা রয়েছে।এটা বাংলাদেশ ফুটবলের জন্য খুবই প্রেরণাদায়ক ও উৎসাহব্যাঞ্জক।’

অনূর্ধ-১৯ নারী আন্তর্জাতিক গোল্ড কাপ ২০১৯ ফুটবল টুর্নামেন্ট উপলক্ষে ব্রডকাস্ট পার্টনার সাইনিং সেরিমনি অনুষ্ঠানে মঙ্গলবার তিনি এ কথা বলেন। আগামী ২৩ এপ্রিল থেকে বাংলাদেশে অনুষ্ঠিত হবে । ফাইনাল ৩ মে। ৭ দল নিয়ে হবে এ টুর্নামেন্ট। ফুটবলের পাশে থাকার জন্য তিনি প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানান। পাশাপাশি আগামী বাজাটে ফুটবলের জন্য বরাদ্দ রাখার জন্য তিনি পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নানের প্রতি আহবান জানান। সরকার থেকে অর্থ পাওয়া গেলে তা টুর্নামেন্ট আয়োজনে ব্যবহার না করে ফুটবল উন্নয়নে ব্যবহার করা হবে বলে প্রতিশ্রুতি দেন তিনি।

সালাম মুর্শেদী পরিকল্পনামন্ত্রীকে আহবান জানিয়ে বলেন,‘ আগামী বাজাটে ফুটবলের জন্য বিশেস বরাদ্দ রাখার বিনীতি অনুরোধ করছি আপনার কাছে যেটা ফুটবলের উন্নয়নে খরচ করা হবে। টুর্নামেন্ট আয়োজনের পেছনে খরচ না করে বরং বিভিন্ন বয়নভিত্তিক দলের পেছনে ব্যয় করা হবে। আর ধারাবাহিকভাবে এটা করতে পারলে বাংলাদেশ ফুটবল অনেক এগিয়ে যাবে বলে আমি মনে করি।’

মঙ্গলবার টুর্নামেন্টের সরাসরি সম্প্রচার উপলক্ষে আরটিভি এর সাথে টুর্নামেন্ট স্বত্ত্বাধীকারী প্রতিষ্ঠান কে-স্পোর্টস এর এক চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠিত হয়। চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন কে-স্পোর্টস এর পক্ষে চীফ এক্সিকিউটিভ অফিসার ফাহাদ এম এ করিম এবং আরটিভি এর পক্ষে সিইও জনাব সৈয়দ আশিদ রহমান।

উক্ত ব্রডকাস্ট পার্টনার সাইনিং সেরিমনি চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের মাননীয় মন্ত্রী  এম এ মান্নান, এমপি। উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের সভাপতি কাজী মোঃ সালাহ্উদ্দিন, সিনিয়র সহ-সভাপতি আব্দুস সালাম মুর্শেদী, এমপি।

আরো উপস্থিত ছিলেন সহ-সভাপতি মহিউদ্দিন আহমেদ মহি, বাফুফে সদস্য মোঃ ইলিয়াছ হোসেন, অমিত খান শুভ্র, বাফুফে নির্বাহী সদস্য, মহিলা ফুটবল কমিটির চেয়ারম্যান মাহফুজা আক্তার কিরণ, বাফুফের সাধারণ সম্পাদক  মোঃ আবু নাইম সোহাগ, কে-স্পোর্টস এর পক্ষে উপস্থিত ছিলেন চীফ এক্সিকিউটিভ অফিসার ফাহাদ এম এ করিম, ডাইরেক্টর আশফাক আহমেদ, এক্সিকিউটিভ ডাইরেক্টর মুনতাসির ভুইয়া, সিইও মাহবুবুর রশিদ এবং আরটিভি এর সিইও  সৈয়দ আশিক রহমান।

এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন মিডিয়া ব্যক্তিত্ব শান্তা ইসলাম, আতাউর রহমান, আজিজুল হাকিম ও চয়নিকা চৌধুরীসহ অন্যান্যরা। অনুষ্ঠানে মন্ত্রী মহোদয় বাংলাদেশের মহিলা ফুটবল দলের প্রশংসা করেন এবং টুর্নমেন্টের সার্বিক সফলতা কামনা করেন।

(ঢাকাটাইমস/১২ফেব্রুয়ারি/ডিএইচ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

খেলাধুলা বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :