টেস্টে বোলিং সহায়ক পিচ চান শচীন

ক্রীড়া ডেস্ক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২৩ অক্টোবর ২০১৯, ১০:১০ | প্রকাশিত : ২৩ অক্টোবর ২০১৯, ১০:০২

টেস্ট ক্রিকেটের আকর্ষণ ধরে রাখার উপায় বলে দিলেন ভারতের সাবেক ক্রিকেটার শচীন টেন্ডুলকার। তার মতে, টেস্ট ক্রিকেটকে বাঁচিয়ে রাখতে ভালো উইকেট দরকার। এজন্য বোলারদের সহায়ক পিচ বানানোর প্রতি গুরুত্বারোপ করেন তিনি।

শচীনের মতে বোলারেরা যথেষ্ট সাহায্য পায়, এমন পিচ না করলে টেস্ট ক্রিকেটকে প্রতিদ্বন্দ্বিতামূলক করে তোলা যাবে না।

ভারতের একটি বাংলা দৈনিককে দেওয়া সাক্ষাৎকারে এমন মন্তব্য করেন ভারতের এই ক্রিকেট কিংবদন্তি।

শচীন বলেন, ওয়ান ডে বা টি-টোয়েন্টিতে বোলারদের সারাক্ষণ পরীক্ষা দিতে হয়। ব্যাটসম্যানদের পরীক্ষা কোথায় নেওয়া হয়? টেস্ট ক্রিকেটের উইকেট যদি ব্যাটসম্যানদের পরীক্ষায় ফেলে, তা হলে টেস্ট আকর্ষক হয়ে উঠবে।

ভারতের এই কিংবদন্তি ক্রিকেটার বলেন, ‘শুধু পয়েন্ট প্রথা চালু করে টেস্ট ক্রিকেটকে আকর্ষক করে তোলা যাবে না। সীমিত ওভারের ক্রিকেটে দেখুন কী হচ্ছে। টি-টোয়েন্টি দেখুন। ব্যাটসম্যানেরা প্রত্যেক বলেই আক্রমণ করতে যাচ্ছে। এতটাই ব্যাটসম্যানের পক্ষে ঢলে পড়েছে সীমিত ওভারের ক্রিকেট। দর্শকেরা কিন্তু মাঠে খেলা দেখতে আসে প্রতিদ্বন্দ্বিতা দেখতে। আর প্রতিদ্বন্দ্বিতা বলতে ব্যাট ও বলের লড়াই। অসম লড়াই নয়। ওয়ান ডে ক্রিকেটে কী সব স্কোর হচ্ছে! বোলারদের ওপরে নানা বিধিনিষেধ চাপানো হচ্ছে। ফিল্ডিং নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। এই সব কিছুই বোলারদের উপরে চাপ বাড়িয়ে দিচ্ছে। বোলারেরা এর ফলে নেতিবাচক মানসিকতায় আক্রান্ত হচ্ছে।

শচীন বলেন, ‘বোলাররা ভাবছে, কী দরকার ঝুঁকি নিয়ে আক্রমণাত্মক হওয়ার। তার চেয়ে অফস্টাম্প লাইন ধরে বল করে যাই। উইকেট নেওয়ার দরকার নেই, রানটা আটকানোর চেষ্টা করি। আমার তাই মনে হয়, টেস্ট ক্রিকেটকে বাঁচিয়ে রাখার জন্য স্পোর্টিং উইকেট লাগবেই। এজন্য বোলার সহায়ক পিচ বানানো দরকার। যেখানে পেসার ও স্পিনাররা সাহায্য পায়।

এক প্রশ্নের জবাবে শচীন বলেন, নিউজল্যান্ডের পিচ আর ভারত, শ্রীলঙ্কা বা বাংলাদেশের পিচের চরিত্র তো কখনোই এক হবে না। আর সেটাই তো ব্যাটসম্যানদের কাছে চ্যালেঞ্জ।

‘টেনিসে দেখুন। চারটি গ্র্যান্ড স্ল্যামে চার ধরনের কোর্ট। উইম্বলডনের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্র বা ফরাসি ওপেনের মিল নেই। কিন্তু আমার মনে হয়, পিচ নিয়ে রেটিংয়ের ক্ষেত্রে আম্পায়ারদের বক্তব্যও নেওয়া উচিত। খেলাটাকে সব চেয়ে কাছ থেকে তো তাঁরাই দেখেন। যদি পিচ নিয়ে তাঁরাও রেটিং করেন, তা হলে উপকার হবে। আর আম্পায়ারদের রেটিংয়ের ক্ষেত্রে সরাসরি নম্বর দিতে বলা হোক নির্দিষ্ট বিষয়ের উপরে যে, পিচ বোলারদের সাহায্য করেছিল কি না?

ঢাকাটাইমস/২৩অক্টোবর/এমআর

সংবাদটি শেয়ার করুন

খেলাধুলা বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :