বরিশালে ভোটার বেড়েছে সাড়ে ছয় লাখ

বরিশাল ব্যুরো, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২২ জানুয়ারি ২০২০, ২০:১০ | প্রকাশিত : ২২ জানুয়ারি ২০২০, ২০:০৪

বরিশাল বিভাগের ছয় জেলার ২০১৯ সালের হালনাগাদকৃত ভোটার তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। প্রকাশিত তালিকা অনুযায়ী গত বছর বরিশাল বিভাগে ভোটার সংখ্যা বেড়েছে সাড়ে ছয় লাখ। অন্যদিকে মৃত্যুর কারণে ভোটার সংখ্যা কমেছে প্রায় ৯০ হাজার।

২০১৯ সালের হালনাগাদে দেশের তৃতীয় লিঙ্গের স্বীকৃতি পাওয়া হিজড়া ভোটার বাড়েনি। সদ্য প্রকাশিত খসড়া তালিকায় হিজড়া বা দ্বৈত ভোটারের পরিসংখ্যান খুঁজে পাওয়া যায়নি।

বরিশাল আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তার কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, ‘বিভাগে মোট ভোটার বেড়েছে ছয় লাখ ৪৬ হাজার ৭৬৬ জন। এদের মধ্যে পুরুষ ভোটারের সংখ্যা তিন লাখ ৫৮ হাজার ২৯৩ জন ও নারী ভোটার দুই লাখ ৮৮ হাজার ৫৭৩ জন। বরিশাল জেলায় নতুন ভোটার বেড়েছে এক লাখ ৯৫ হাজার ৩৫৮ জন। যার মধ্যে পুরুষ এক লাখ ছয় হাজার ৬৩৩। নারী ৮৮ হাজার ৭২৫ জন।

পটুয়াখালীতে এক লাখ ১৬ হাজার ২৯ জন। এর মধ্যে পুরুষ ৬৪ হাজার ৪৮৪ ও নারী ৫১ হাজার ৫৪৫ জন। ভোলায় এক লাখ ৩৫ হাজার ২০৩ জন। যার মধ্যে পুরুষ ৭৭ হাজার ১৩৭ ও নারী ৫৮ হাজার ৬৬।

বরগুনায় ভোটার বেড়েছে ৬৬ হাজার ৬৪২ জন। এর মধ্যে পুরুষ ৩৬ হাজার ৭৬২ ও নারী ২৯ হাজার ৮৮০ জন। পিরোজপুরে ৮৬ হাজার ৬৮১ জন জন। এর মধ্যে পুরুষ ৪৭ হাজার ১২৭ ও নারী ৩৯ হাজার ৫৫৪ জন।

এছাড়া ঝালকাঠি জেলায় মোট নতুন ভোটার বেড়েছে ৪৬ হাজার ৮৫৩ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার হয়েছেন ২৬ হাজার ৫০ ও নারী ভোটার বেড়েছে ২০ হাজার ৮০৩। মোট হিসাবে সর্বোচ্চ ভোটার সংখ্যা বেড়েছে বরিশাল জেলায়।

এর আগে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের সময় বরিশাল বিভাগে মোট ভোটার সংখ্যা ছিল  ৬২ লাখ ৩১ হাজার ১৯৬ জন। এদের মধ্যে পুরুষ ভোটার ছিল ৩১ লাখ ৩৮ হাজার ৩৪৩ জন এবং নারী ভোটার ছিল ৩০ লাখ ৯২ হাজার ৮৫৩ জন।

বিভাগের ছয় জেলায় মৃত্যুজনিত কারণে ভোটার সংখ্যা কমেছে ৮৯ হাজার ৩৩৭ জন। এর মধ্যে বরিশাল জেলায় ২৪ হাজার ৮৫৯ জন, পটুয়াখালী জেলায় ১৭ হাজার ৫৯১ জন, ভোলা জেলায় ১৪ হাজার ৩৭৫ জন, বরগুনা জেলায় নয় হাজার ৬৫৯ জন, পিরোজপুর জেলায় ১৪ হাজার ১৮৪ জন এবং ঝালকাঠি জেলায় আট হাজার ৬৬৯ ভোটার কমেছে।

সে হিসেবে বরিশাল বিভাগে বর্তমানে মোট ভোটার সংখ্যা ৬৭ লাখ ৮৮ হাজার ৬২৫ জন। যদিও প্রকাশিত খসড়া ভোটার তালিকা পরিবর্তনের সম্ভাবনা রয়েছে। মোট ভোটার সংখ্যা আরও কিছু বৃদ্ধির সম্ভাবনা রয়েছে বলে জানিয়েছেন জেলার সিনিয়র নির্বাচন কর্মকর্তা নুরুল আলম।

তিনি বলেন, নতুন করে হিজড়া ভোটার বাড়েনি। আবার হতে পারে নারী-পুরুষের তালিকায় হিজড়াদের নাম ঢুকে গেছে। তাছাড়া হালনাগাদে বরিশালে দ্বৈত ভোটারও পাওয়া যায়নি।

প্রসঙ্গত, গত বছরের ২০ নভেম্বর ভোটার তালিকা হালনাগাদ কার্যক্রম শেষ হয়। পরবর্তী চলতি বছরের ২০ জানুয়ারি প্রকাশ করা হয় হালনাগাদকৃত ভোটার তালিকা।

২০০২ সালের ১ জানুয়ারির আগে যাদের জন্ম তাদের এই খসড়া ভোটার তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। আবার আগাম দুই বছরের তথ্য সংগ্রহ করা হয়েছে। যাদের বয়স ১৮ বছর হতে দুবছর বাকি তাদেরও হালনাগাদে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে।

(ঢাকাটাইমস/২২জানুয়ারি/কেএম/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :