করোনায় ষাটোর্ধ্বদের মৃত্যুই বেশি

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ৩০ অক্টোবর ২০২০, ২১:২৭
ফাইল ছবি।

দেশে মহামারি করোনাভাইরাসে আরও ১৯ জনের মত্যু হয়েছে। এ নিয়ে মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়াল পাঁচ হাজার ৯০৫ জনে। এর মধ্যে বয়সভিত্তিক হিসেবে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু ষাটোর্ধ্বদের। স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের দেয়া পরিসংখ্যান অনুযায়ী এ পর্যন্ত ষাটোর্ধ্বদের মৃত্যু তিন হাজার ৭৫ জন। যা শতকরা হিসেবে ৫২.০৭ শতাংশ।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়মিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তি বিশ্লেষণে দেখা যায়, গত ২৪ ঘণ্টায় ১৪ হাজার ১৪১টি নমুনা পরীক্ষায় এক হাজার ৬০৪ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে মোট চার লাখ ৬ হাজার ৩৬৪ জনের করোনা শনাক্ত হলো। এ পর্যন্ত মোট নমুনা পরীক্ষার সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২৩ লাখ ২৪ হাজার ৭৩০টি। নতুন যারা মারা গেছেন তাদের ১১ জনই ষাটোর্ধ্ব। এছাড়া পঞ্চাশোর্ধ্ব পাঁচজন, চল্লিশোর্ধ্ব দুইজন, ত্রিশোর্ধ্ব একজন।

গতকাল করোনাতে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ২৫ জন। তার মধ্যে ১১ জনই ষাটোর্ধ্ব ছিলেন। মারা যাওয়া অন্যান্য বয়সের মধ্যে রয়েছে– ২১ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে দুজন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে তিন জন এবং ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে নয় জন।

এর আগে গত ২৮ অক্টোবর করোনায় মৃত ২৩ জনের মধ্যে ত্রিশোর্ধ্ব তিনজন, চল্লিশোর্ধ্ব দুজন, পঞ্চাশোর্ধ্ব দুজন এবং ষাটোর্ধ্ব ১৬ জন।

দেশে প্রথম করোনা রোগীর প্রথম মৃত্যুর খবর ১৮ মার্চ। এর পর থেকেই বৃদ্ধদের মৃত্যু সংখ্যা বাড়ছেই। এছাড়াও সবচেয়ে বেশি ঝুঁকিতেও রয়েছেন ষাটোর্ধ্বরা।

(ঢাকাটাইমস/৩০অক্টোবর/টিএটি/ইএস)

সংবাদটি শেয়ার করুন

নির্বাচিত খবর বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :