তৌহিদুল হকের কবিতার বই ‘কে আসে কে যায়’

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২৬ জুলাই ২০২১, ১৭:৩৭

শিক্ষক, কবি ও কথাসাহিত্যিক তৌহিদুল হক। লেখনীর মাধ্যমে তিনি সাহিত্যের আলো ছড়িয়েছেন বহু আগেই। এবার তিনি পাঠকদের জন্য নিয়ে এসেছেন কবিতার বই ‘কে আসে কে যায়’। কবিতার বইটিতে কবি সম্পর্কের টানে মানুষের কাছে আসার যে তীর্যক আকর্ষণ সেটি গভীরভাবে ফুটিয়ে তুলেছেন।

বইটি সম্পর্কে কবি নিজেই বলেছেন- মানুষকে মানুষের খুব বেশি করে প্রয়োজন। সময় ও কর্ম চাহিদার তীর্যক অনুভবে মানুষ জড়িয়ে পড়ে মানুষের সাথে। গভীর বন্ধনে কিংবা বিশ্বস্ত আলাপনে। প্রথম সাক্ষাৎ বা দৃষ্টির আলোড়ন সচেতন কিংবা অসতর্ক পরিসরে দীর্ঘ হয়। পাল্টে যায় মানুষের স্পর্শ ও অনুভূতির অপরূপ আয়োজন। প্রয়োজনের তাগিদ মানুষকে কোমল পরিসরে রূপ পরিবর্তন করে। কাছে থাকার আকুতি সৃষ্টি হয়। প্রয়োজন হয় পাশে থাকার অঙ্গীকার।

একসময়ের অপরিচিত জনও সময়ের চাপে অতি পরিচিত হয়। চারপাশের সরব উপস্থিতি হৃদয়ের গহিনে সদা সক্রিয় অনুসন্ধানের ক্ষেত্র তৈরি করে। মানুষ খোঁজার বা বোঝার এই অবিরাম প্রচেষ্টায় পৃথিবী সম্পর্কের হাত ধরে এতদূর এসেছে, আরও যাবে বহুদূর মসৃণ অথবা অমসৃণ পথ ধরে। চারপাশে মায়ার আবেশ চিহ্ন পড়ে থাকবে। একদিন মানুষও থাকবে না। থাকবে স্মৃতি জাগানিয়া তীব্র ব্যাকুলতা আর যাওয়া-আসার ক্রমাগত অনুশীলন।

শিক্ষক, কবি ও কথাসাহিত্যিক তৌহিদুল হক বরিশাল বিভাগের পিরোজপুর জেলার মঠবাড়িয়া থানায় জন্মগ্রহণ করেন। বর্তমানে তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজকল্যাণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউটে অধ্যাপনা পেশায় নিয়োজিত আছেন।

তিনি তার কবিতায় স্বপ্ন দেখা দীর্ঘদিনের কবিতায় খুঁজে ফেরেন সমাজ, ভাবনার আঁতুড়ঘর, সম্পর্ক কিংবা বিরহের মেঘমালা। প্রতিটি কবিতায় শব্দের মিছিলে মোলায়েম আকুতি, ফিরে এসে জড়িয়ে ধরা, কাছে থাকার ব্যাকুল আয়োজন। কবিতার পাশাপাশি ছোটগল্প, সমসাময়িক বিষয়ে পত্রিকায় কলাম লেখেন তিনি।

সমাজ, অপরাধ, প্রবহমান রাজনীতির সাংস্কৃতিক জাগরণ সম্পর্কে প্রতিনিয়ত কথা বলেন টেলিভিশন ও রেডিওতে। বিভিন্ন সভা-সমিতিতে সামাজিক সম্পর্কের গভীর অনুসন্ধানী ভাবনায় কিংবা পর্যালোচনায় তার বক্তব্য উপলব্ধিগত সত্য তুলে আনে। মানুষের হৃদয় সেসব কথা স্পর্শ করে। তার কথামালা মানুষকে ভাবায় পরিবর্তনের পথে সচল পথিক হয়ে।

তৌহিদুল হকের প্রকাশিত অন্যান্য গ্রন্থের মাঝে আছে, প্রবন্ধ- সমাজবদল: উন্নয়ন ও রাজনীতি (২০১৬), বাড পাবলিকেশন্স কবিতা: ‘এসো তব জলেতে নামি’ (২০১৮), অরণ্য প্রকাশ। ‘আমি হব তুমি, তুমি হবে আমি’ (২০২০), বইলোক প্রকাশনী।

কবি ভ্রমণ কিংবা মানুষের সঙ্গ উপভোগ করেন। এক দৃষ্টিতে তাকিয়ে থাকা এবং দৃশ্যপটে হারিয়ে যাওয়ার অপূর্ব অভিজ্ঞতার কথা বলেন তিনি তার কবিতা, গল্প, প্রবন্ধ ও উপন্যাসে। সম্পর্ক আর চোখের জলের প্রতি অগাধ বিশ্বাস। ভাবনা কিংবা জটিলতায় এক সহাস্য ব্যক্তি তিনি।

ঢাকাটাইমস/২৬জুলাই/এসকেএস

সংবাদটি শেয়ার করুন

সাহিত্য বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :