জলবায়ু সম্মেলনে অংশ না নেওয়ার ইঙ্গিত মরিসনের

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৭:৪১ | প্রকাশিত : ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৭:১৭
ছবি: সংগৃহীত

অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন ইঙ্গিত দিয়েছেন যে, তিনি এবারের জলবায়ু সম্মেলনে অংশ নাও নিতে পারেন। জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবেলায় তার সরকারের দুর্বল রেকর্ড রয়েছে। আগামী নভেম্বরে স্কটল্যান্ডের গ্লাসগোতে অনুষ্ঠিত হবে জাতিসংঘের জলবায়ু বিষয়ক সম্মেলন কপ-২৬। সূত্র: বিবিসি।

এক সাক্ষাৎকারে স্কট মরিসন বলেছেন, জলবায়ু সম্মেলনে অংশ নেওয়ার ব্যাপারে তিনি এখনো চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেননি। তিনি বলেছেন, ‘এটি আরেকটি বিদেশ সফর…এবং আমি কোয়ারেন্টাইনে অনেক সময় ব্যয় করেছি।’

আশা করা হচ্ছে, ১২ দিনব্যাপী এই সম্মেলনে বৈশ্বিক উষ্ণায়ন মোকাবেলা ও তাপমাত্রা বৃদ্ধি ১.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নিচে রাখতে বিশ্বনেতারা কার্বন নির্গমনের মান ঠিক করবেন।

কিন্তু স্কট মরিসন বলছেন, তিনি অস্ট্রেলিয়ার সীমান্ত পুনরায় খুলে দেয়া সহ অন্য বিষয়গুলোতে গুরুত্ব দেবেন। তিনি বলেছেন, ‘আমাকে এখানকার পরিস্থিতি ও করোনা নিয়ে ভাবতে হবে। অনেক বিষয় আমাকে সামাল দিতে হবে।’

অস্ট্রেলিয়া বিশ্বে কয়লা ও গ্যাস রপ্তানিকারী দেশগুলোর মধ্যে অন্যতম। আশা করা হচ্ছে এবারের জলবায়ু সম্মেলনে তারা ২০৩০ সালের মধ্যে তাদের কার্বন নির্গমনের পরিকল্পনার বিষয়টি তুলে ধরবে।

মরিসন বলেছেন, অস্ট্রেলিয়া যত দ্র্রুত সম্ভব নেট জিরো কার্বন নির্গমনের লক্ষ্য অর্জন করতে চায়। কিন্তু এই লক্ষ্য অর্জনে তারা কী করবে সে বিষয়ে কিছু বলেননি।

যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য এবং অনেক উন্নয়নশীল দেশ ২০৫০ সালের মধ্যে নেট জিরো কার্বন নির্গমনের লক্ষ্য অর্জনের জন্য অঙ্গীকার করেছে। অস্ট্রেলিয়াও এ বিষয়টিতে জোর দিয়ে আসছে।

জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবেলায় ধীর উন্নয়নের জন্য অস্ট্রেলিয়া বারবার সমালোচিত হচ্ছে। তারা ব্যাপকভাবে কয়লা-ভিত্তিক বিদ্যুৎ উৎপাদনের উপর জোর দিচ্ছে।

(ঢাকাটাইমস/২৭ সেপ্টেম্বর/এসইউএল)

সংবাদটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :