ইরানের নতুন পর্যটন আকর্ষণ তিন হাজার বছরের পুরনো কানাত

ঢাকা টাইমস ডেস্ক
 | প্রকাশিত : ০৪ ডিসেম্বর ২০২৩, ২১:০৫

মধ্য ইরানে বিস্তৃত অঞ্চল জুড়ে রয়েছে ৩ হাজার বছরের পুরনো ভূগর্ভস্থ পানির চ্যানেল। এটির নাম কানাত-ই জারচ। বর্তমানে প্রাচীন এই বিস্ময়কে পুনরুজ্জীবিত করার প্রচেষ্টা চলছে। এটিকে এই অঞ্চলে পর্যটন সম্ভাবনা বাড়ানোর একটি পদক্ষেপের অংশ হিসেবে দেখা হয়।

জার্চের গভর্নর মর্তেজা জিবিয়ানের মতে, এই উচ্চাভিলাষী উদ্যোগটি যেমন ঐতিহাসিক একটি সম্পদকে পুনরুজ্জীবিত করবে ঠিক তেমনি স্থানীয় অর্থনীতিকেও শক্তিশালী করবে।

৩ হাজার বছরের পুরানো কানাত-ই জারচকে পুনরুত্থিত করার সুদূরপ্রসারী সুবিধাগুলি তুলে ধরে গভর্নর একই সাথে পর্যটনের সুযোগগুলিকে প্রসারিত করার সাথে সাথে স্থানীয় অর্থনীতিকে উল্লেখযোগ্যভাবে শক্তিশালী করার সম্ভাবনার ওপর জোর দেন।

বিশ্বব্যাপী মানবসৃষ্ট সবচেয়ে অসাধারণ জলাশয় হিসেবে মর্যাদা পাওয়া জার্চের এই কানাতটি মধ্য ইরানের ইয়াজদ প্রদেশের আধা-শুষ্ক ভূমির মধ্যে দিয়ে ৮০ কিলোমিটার বিস্তৃত।

ইয়াজদের উত্তর-পূর্ব অঞ্চলের ফাহরাজ গ্রাম থেকে চ্যানেলটি শুরু হয়েছে। কানাত ভূপৃষ্ঠের ৩০-৪০ মিটার গভীরে নিমজ্জিত। ফাহরাজ থেকে জারচে পৌঁছানো পর্যন্ত আঁকা-বাকা হয়ে ছড়িয়ে রয়েছে। এই অঞ্চলের মূল্যবান পানির উৎস নিম্ন ভূখণ্ডের সেচ ব্যবস্থা। ফলে উর্বর জমির লালন এবং স্থানীয় কৃষিকে টিকিয়ে রাখতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে এই কানাতটি।

ইরানের প্রাচীন সাবসারফেস ওয়াটার সাপ্লাই সিস্টেমের (যা কানাত নামে পরিচিত) উপর পরিচালিত সাম্প্রতিক সমীক্ষায় দেখা গেছে, ১ লাখ ২০ হাজার কানাতের মধ্যে প্রায় ৩৭ হাজার এখনও চালু আছে। এই স্থিতিস্থাপক পানির চ্যানেলগুলি সারা দেশে শুষ্ক এবং আধা-শুষ্ক অঞ্চলে মানব সম্প্রদায়ের সেবা করে চলেছে। সূত্র: তেহরান টাইমস

(ঢাকাটাইমস/০৪ডিসেম্বর/কেএম)

সংবাদটি শেয়ার করুন

ফিচার বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :