ফেসবুক ব্যবহারের নীতিমালা দরকার

তৌহিদুল হক
 | প্রকাশিত : ১৩ জুলাই ২০১৯, ২০:৫৪

দেখা যায় সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ইতিবাচক কাজের চেয়ে নেতিবাচক কাজ হয় বেশি। মানুষকে অসম্মান করা হয়, প্রোপাগান্ডা, গুজব ছড়ানো হয়। এখন উন্নয়ন পরিপন্থী প্রোপাগান্ডা দেখা যাচ্ছে।

নির্বাচনের আগে রাজনৈতিক কর্মকাণ্ড নিয়েও প্রোপাগান্ডা দেখেছি। যদি জাতীয় পরিচয়পত্রের প্রয়োজন হতো ফেসবুকের মতো সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের অ্যাকাউন্ট খুলতে। একজনের একটির বেশি আইডি যেন না থাকে সেটার ব্যবস্থা করা যেত। তাহলে সহজেই চিহ্নিত করা যেত কারা গুজব ছড়াচ্ছে।

আসলে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের জন্য নীতিমালা তৈরি করা দরকার। মাঝে মাঝে সরকারের পক্ষ থেকে এ নিয়ে কথা হয় কিন্তু কার্যকর হয় না।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অনেক সময় মতাদর্শের গরমিল দেখা যায়। তার একটা হলো রাজনৈতিক মতাদর্শের গরমিল। সরকারকে বিব্রত করার জন্য কোন একজন প্রোপাগান্ডা বা গুজব ছড়াতে চাইল। সে একটা পোস্ট দিল আর দেখা যায় সেটা ঐ মতাদর্শে যারা আছে তারা ধারণ করে। তখন তারা বাচবিচার না করেই তা শেয়ার করে প্রচার করে।

এখানে ব্যক্তির চিন্তা চেতনা, শিক্ষা গুরুত্বও অনেক সময় থাকে না। দেখা যায় তখন যুক্তি দিয়ে তারা বিচার না করেই চায় পোস্টটি যেন ছড়িয়ে যায়।   

দেখা যায় সমাজিক শিষ্ঠাচারের বর্হিভূত কিছু শেয়ার করে। আবার অনেকে না বুঝে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে গুজবকে প্রচার করে। এটা রোধ করার জন্য সামাজিক সচেতনতামূলক কার্যক্রম গ্রহণের পাশাপাশি সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে।

লেখক: সহকারী অধ্যাপক, সমাজকল্যাণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউট, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়।

 

সংবাদটি শেয়ার করুন

মতামত বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :