শৌখিন বেতার যোগাযোগ কী এবং কেন?

আসাদুজ্জামান, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৬ জানুয়ারি ২০২০, ১২:০৫

অ্যামেচার রেডিও বা শৌখিন বেতার যোগাযোগ সম্পর্কে অনেকেরই ধারণা নেই। অনেকে আবার এই বিষয়ে জানতে আগ্রহী। শৌখিন বেতার যোগাযোগ হচ্ছে এমন এক ধরনের ব্যবস্থা যাতে একজন ব্যবহারকারী নিজেই একটি পূর্ণাঙ্গ বেতার গ্রাহক ও প্রেরক যন্ত্রের অধিকারী হন। 

বেতার যন্ত্র আবিস্কার এর পরপরই শৌখিন বেতার যোগাযোগ ব্যবস্থা চালু হয় বিশ্বব্যাপী। এই ব্যবস্থায় কোন একজন ব্যক্তি বা গোষ্ঠী এই যোগাযোগকারী যন্ত্রের মাধ্যমে বেতার তরঙ্গ ব্যবহার করে নিজ শহর, নিজ দেশ এমন কি সম্পূর্ণ বিশ্বব্যপী অপরাপর এই ধরনের যন্ত্র ব্যবহারকারী দের সঙ্গে তথ্য আদান প্রদান করে থাকেন। 

এটি একটি টেলিযোগাযোগ সম্পর্কিত শখ। যা রাজনীতি, ব্যবসা, ব্যক্তিস্বার্থ বা অনান্য স্বার্থ বিষয়াদির উপরে অবস্থান করে। এবং ঐ সকল বিষয়ে এইখানে তথ্য আদান-প্রদান করা নীতিবহির্ভুত। 

এই যোগাযোগ ব্যবস্থার সবচেয়ে বড় সুবিধা হচ্ছে এতে সরাসরি বেতার তরঙ্গকে ব্যবহারকারীগণ ব্যবহার করে থাকেন দুইটি স্টেশন এর মাঝে অন্য কোন মাধ্যম বা যোগাযোগ সহায়ক সম্প্রদায় থাকে না ফলে ব্যবহারকারী কে কোন মাশুল গুণতে হয় না। এবং যে কোন প্রাকৃতিক দূর্যোগের সময়ও এই যোগাযোগ ব্যবস্থা ব্যহত হয় না।

শৌখিন বেতার যোগাযোগকারীদের সংক্ষেপে বলা হয় হ্যাম। বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো বাংলাদেশেও হ্যাম রয়েছে। হ্যাম রেডিও পরিচালনার জন্য লাইসেন্স লাগে। বাংলাদেশে লাইসেন্স দেয় বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন। এজন্য তারা একটি পরীক্ষার আয়োজন করে। পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের কলসাইন সহ লাইসেন্স দেয়া হয়। এরপর ছাড়পত্র নিয়ে দেশ-বিদেশ থেকে রেডিও সংগ্রহ করতে হয়।

(ঢাকাটাইমস/১৬জানুয়ারি/এজেড) 

সংবাদটি শেয়ার করুন

বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :