এই অচল শহরের দায় কার?

ডা. সাখাওয়াৎ হোসেন সায়ন্থ
 | প্রকাশিত : ২৬ মে ২০১৯, ২১:১১

যানজট, সময় ও খাবারের ধরণ- সব মিলিয়ে বাসার বাইরে ইফতারে আমার আগ্রহ বরাবরই কম। এই রোজায় শনিবার প্রথম বাইরে ইফতার করেছি। তাও আবার একই দিনে তিনটা আয়োজন হওয়াতে কীভাবে ম্যানেজ করবো সেটা নিয়ে একটু মুশকিলই অনুভব করছিলাম।

রাজনৈতিক গবেষণা সংগঠন জি-নাইন, ঢাকা কলেজ অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন ৯৩ (ডিসিএ-৯৩) ও আংগারিয়া হাই স্কুল (শরিয়তপুর) অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের ইফতার একই দিনে। কোনটাই মিস দেয়া সম্ভব নয়।

তাই প্ল্যান ছিল প্রথমে জি-নাইনের মিটিংয়ে এটেন্ড করে ইফতার করবো গিয়ে ঢাকা কলেজের বন্ধুদের সঙ্গে । তারপর ডিনার করবো আংগারিয়া স্কুলের প্রোগ্রামে। তিনটাই মোটামুটি কাছাকাছি হওয়াতে এই দুঃসাহসী পরিকল্পনাটা নিয়েছিলাম।

সে অনুযায়ী বাসাবো থেকে বিকাল চারটায় রওয়ানা দিয়ে কাকরাইল মসজিদ পর্যন্ত গিয়ে বসে থেকে থেকে পেরিয়ে গেল ছয়টা।

উপায়ান্তর না দেখে হাঁটা শুরু করলাম । এতটা পথ হেঁটে বাংলামটর গ্রিন লাউঞ্জে গিয়ে কোনোমতে ইফতার ধরতে পারলাম।

সামান্য দূরে সেভেন হিলে যখন পৌঁছলাম তখন অনেক বন্ধুই চলে গেছে। সবার সঙ্গে দেখাটাও হলো না। যেতেই পারলাম না আংগারিয়া স্কুলের আয়োজনে।

কথা হলো, এই অচল শহরটার দায় তো কাউকে না কাউকে নিতে হবে। এই শহরটা অচল হওয়ার জন্য কি তের বছর আগে ক্ষমতা থেকে বিদায় নেয়া বিএনপিকেই দায়ী করবো আমরা?

পৃথিবীর দ্বিতীয় পচা রাজধানী শহরের এই দশা থেকে উত্তরণের জন্য চেতনার ফেরিওয়ালাদের অবদান কী!

লেখক: সহকারী অধ্যাপক, ওরাল অ্যান্ড ম্যাক্সিলোফেসিয়াল সার্জারি; বিএসএমএমইউ

সংবাদটি শেয়ার করুন

নির্বাচিত খবর বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :